পুষ্টি

গুড়ের অনেক গুণ

শীতের অপেক্ষার মূলেই বাঙালির থাকে পিঠা-পায়েস খাওয়া। এই দারুণ স্বাদের মিষ্টি খাবারগুলো তৈরি হয় খেজুর গুড়ে।

শুধু মিষ্টি যেকোনো খাবারের মজার জন্যই নয়, এর অনেক গুণও রয়েছে।

গুণগুলো জেনে নিন:

• চিনির চেয়ে অনেক বেশি স্বাস্থ্যকর হলো গুড়। এতে ফসফরাস, আয়রন, ম্যাগনেসিয়াম, পটাশিয়াম জাতীয় খনিজ থাকে

• চায়ে গুড় মিশিয়ে খেলে সারাদিনের হজম প্রক্রিয়া উন্নত হয়

• যারা রক্তাল্পতায় ভুগছেন রক্তে হিমোগ্লোবিনের পরিমাণ বাড়াতে, তাদের জন্য গুড় খুব উপকারি

• কোল্ড অ্যালার্জি থেকে দূরে রাখে

• ওজন কমাতেও সাহায্য করে

• রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়

• গুড়ে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট থাকে, এটি ত্বক সতেজ রাখে, ব্রণ দূর করে

• ডায়াবেটিস থাকলে চিনির বিকল্প হিসেবে গুড় নয়, সুগার-ফ্রি ক্যাপসুল, স্টেইভা ব্যবহার করতে হবে।

তবে এই উপকারিতাগুলো তখনই পাই, যখন গুড় হয় খাঁটি। এই ভেজালের ভেতরে আসল গুড় চেনা সত্যি বেশ কঠিন কাজ। কঠিন, তবে অসম্ভব তোনয়, আসুন জেনে নেই, কীভাবে পরীক্ষা করবেন:

• কেনার সময় একটু গুড় ভেঙে নিয়ে চেখে দেখুন

নোনতা স্বাদের হলে বুঝবেন এই গুড়ে ভেজাল রয়েছে
• গুড়ের ধারটা দুই আঙুল দিয়ে চেপে দেখবেন। যদি নরম লাগে, বুঝবেন ভালোমানের আর ধার বেশি শক্ত হলে না কেনাই বুদ্ধিমানের কাজ হবে

• সাধারণত গুড়ের রং গাঢ় বাদামি হয়। হলদেটে রঙের গুড় হলে বুঝতে হবে অতিরিক্ত রাসায়নিক মেশানো

• কৃত্রিম চিনি মেশানো গুড় দেখতে খুব চকচকে হয়।

শীতে প্রকৃতির আশির্বাদ জিভে জল আনা সুস্বাদু ও পুষ্টিকর খেজুরের গুড়। ভেজালের ভিড়ে খাঁটি গুড় কিনতে গিয়ে আর ঠকে আসতে হবে না।

এন এইচ, ০৬ নভেম্বর

Back to top button