রূপচর্চা

৫ মিনিটেই বিউটি ব্লেন্ডার পরিষ্কার করুন

বর্তমানে সব নারীর কাছেই অন্তত একটি হলেও মেকআপ স্পঞ্জ বা বিউটি ব্লেন্ডার আছে নিশ্চয়ই! বিশেষ করে যারা সাজতে পছন্দ করেন; তাদের জন্য খুবই প্রয়োজনীয় উপকরণ এটি। বাজারে বর্তমানে বিভিন্ন ক্যাটাগরির মেকআপ স্পঞ্জ পাওয়া যায়। তবে যার কাছে যত ভালো মানের মেকআপ স্পঞ্জ আছে; তার মেকআপও তত বেশি সুন্দর হয়।

মেকআপ স্পঞ্জ ত্বকে লিকুইড মেকআপ প্রোডাক্ট যেমন- ফাউন্ডেশন, ক্রিম, প্রাইমার ইত্যাদি ব্লেন্ড করতে সাহায্য করে। এসব মেকআপ ব্যবহারের পর তা মেকআপ স্পঞ্জ দিয়ে সহজেই ত্বকের সঙ্গে মিশিয়ে দেওয়া যায়। এর ফলে মেকআপ দেখতে আর কেকি বা সাদাটে দেখায় না।

এ কারণে মেকআপ স্পঞ্জ সহজেই নোংরা হয়ে যায়। এজন্য প্রতিবার ব্যবহারের পরই মেকআপ স্পঞ্জ বা বিউটি ব্লেন্ডার ধুতে হয়। তবে অনেক সময়ই তা করা হয় না। ফলে এতে সহজেই জমতে পারে ময়লা ও জীবাণু।

যদি কখনও মেকআপ স্পঞ্জ বা বিউটি ব্লেন্ডারে কালচে বা সবুজ ছোপ দেখেন; তাহলে সেটি পরিষ্কার না করে ব্যবহার করবেন না। ওই ছোপগুলো হলো জীবাণু ও ব্যাকটেরিয়া। ঠিকভাবে পরিষ্কার না করলে বা শুকালে এই সমস্যা দেখা দেয়।

অনেকেই হয়তো বিউটি ব্লেন্ডার পরিষ্কারের সঠিক উপায় জানেন না! এজন্যে আলসেমি করে তা পরিষ্কারও করেন না। জানলে অবাক হবেন, মাত্র ২ উপকরণে ৫ মিনিটেই বিউটি ব্লেন্ডার পরিষ্কার করে নেওয়া সম্ভব। এ উপায়ে শুধু পরিষ্কার নয়, জীবাণুমুক্তও করতে পারবেন বিউটি ব্লেন্ডার।

শুধু প্রয়োজন একটু বেবি শ্যাম্পু আর পানি। দেখবেন ম্যাজিকের মতো পরিষ্কার হবে ময়লাযুক্ত বিউটি ব্লেন্ডার। এজন্য প্রয়োজন হবে- ২-৩ চা চামচ বেবি শ্যাম্পু, পরিমাণ মত পানি, মাইক্রোওয়েভ, মাইক্রোওয়েভ সেফ বাটি (কাচের হলে ভালো হবে)।

মাইক্রোওয়েভ সেফ বাটির মধ্যে পানি দিন এবং শ্যাম্পু ঢেলে মিশিয়ে নিন। বেবি শ্যাম্পু না থাকলে অন্য কোনো শ্যাম্পুও নিতে পারেন। এবার শ্যাম্পু মেশানো পানির মধ্যে মেকআপ স্পঞ্জ বা বিউটি ব্লেন্ডার রেখে দিন। খেয়াল রাখবেন পানিতে যেন মেকআপ স্পঞ্জ ডুবে থাকে।

বাটি এবার মাইক্রোওয়েভে রাখুন এবং এক মিনিটের জন্য মাইক্রোওয়েভ অন করুন। মাইক্রোওয়েভ বন্ধ হয়ে গেলে বাটি বের করে পানি ফেলে দিন। বিউটি ব্লেন্ডার একটু ঠান্ডা করে নিন। তারপর পানির কলের নীচে ধরে চিপে ময়লা বের করে নিন স্পঞ্জ থেকে। এভাবেই খুব সহজে পরিষ্কার করে নিতে পারবেন বিউটি ব্লেন্ডার।

এম ইউ

Back to top button