রূপচর্চা

চুলের যত্নে এই ৪টি হার্ব ব্যবহার করছেন তো?

চুল বৃদ্ধির জন্য কত রকম প্যাক ব্যবহার করেন। ব্যবহার করা হয় নানা হেয়ার ট্রিটমেন্ট। এমনকি খাওয়া হয় নানান ভিটামিন। এতসব করার পর হয়তো শেষ রক্ষা হচ্ছে না। কিছু হার্ব আছে যা চুল বৃদ্ধিতে সাহায্য করে। আসুন তাহলে পরিচিত হয়ে নিই হার্বগুলোর সাথে।

১। অ্যালোভেরা
অ্যালোভেরা চুলের ফলিকল বৃদ্ধি করে। এতে রয়েছে স্যালিক অ্যাসিড, অ্যান্টি ইনফ্লামেটরি এবং অ্যান্টি বায়োটিক উপাদান যা চুল ময়েশ্চারাইজড করে। মাথার তালুতে অ্যালোভেরা জুস অথবা জেল ম্যাসাজ করে লাগান। এইভাবে কয়েক ঘণ্টা রাখুন। তারপর কুসুম গরম পানি দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন। এটি সপ্তাহে চার বার করুন।

২। মেথি
খুশকি দূর করে নতুন চুল গজাতে মেথির জুড়ি নেই। দুই টেবিল চামচ মেথি পানিতে সারা রাত ভিজিয়ে রাখুন। পরের দিন এটি দিয়ে পেস্ট তৈরি করে নিন। মেথির পেস্ট মাথার তালুসহ সম্পূর্ণ চুলে লাগিয়ে রাখুন। ৩০ মিনিট পর শ্যাম্পু করে ফেলুন। এছাড়া মেথির পাতা বেটে পেস্ট চুলে ব্যবহার করতে পারেন। এটি চুলে প্রাকৃতিক রং দেবে এবং নতুন চুল গজাতে সাহায্য করবে।

৩। মেহেদি
চুলের গোড়া মজবুত করতে মেহেদি পাতার জুড়ি নেই। এমনকি প্রাকৃতিকভাবে চুল রং করতেও এর ভূমিকা রয়েছে। ২৫০ গ্রাম সরিষা তেলে ৬০ গ্রাম মেহেদি পাতা  দিয়ে জ্বাল দিন। এবার এটি ছেঁকে একটি বোতলে ভরে রাখুন। এটি মাথায় ম্যাসাজ করে লাগান। সপ্তাহে দুইবার এই তেল ব্যবহার করুন। তারপর শ্যাম্পু করে ফেলুন। এছাড়া টকদই এবং মেহেদি দিয়ে প্যাক করে চুলে লাগাতে পারেন।

৪। আমলকি
আয়ুবের্দিক হেয়ার টনিক হিসবে আমলকির জুড়ি নেই। অকালপক্কতা দূর করে নতুন চুল গজাতে এটি বেশ কার্যকর। আমলকির রস এবং লেবুর রস সম পরিমাণে মিশিয়ে নিন। এবার এটি চুলে ভাল করে ম্যাসাজ করে লাগান। ১৫ মিনিট পর হারবাল শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন। এছাড়া সারারাত শুকনো আমলকি পানিতে ভিজিয়ে রাখুন। পরের দিন সকালে এই পানির সাথে লেবুর রস মিশিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন। এটি চুলের কন্ডিশনার হিসেবে কাজ করবে।

এস সি

Back to top button