জাতীয়

রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়ে বাংলাদেশ মানবিকতার পরিচয় দিয়েছে : জন কেরি

ঢাকা, ০৯ এপ্রিল – মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের জলবায়ুবিষয়ক বিশেষ দূত জন কেরি বলেছেন, ‘বাংলাদেশ মিয়ানমারের বাস্তুচ্যুত রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়ে মানবিকতার পরিচয় দিয়েছে। রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে যুক্তরাষ্ট্র সব সময় বাংলাদেশের সঙ্গে কাজ করে যাবে।’

আজ শুক্রবার রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেনের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠক শেষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন জন কেরি।

জন কেরি আরও বলেন, ‘রোহিঙ্গা ইস্যু নিয়ে মিয়ানমার সরকার ভিন্ন পথে হাঁটছে।’ রোহিঙ্গা ইস্যুতে মিয়ানমারের ওপর জো বাইডেন প্রশাসন চাপ অব্যাহত রেখেছে বলেও জানান তিনি।

আরও পড়ুন : ১৪ এপ্রিল থেকে এক সপ্তাহের সর্বাত্মক লকডাউন : জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

জলবায়ু পরিবর্তনের বিভিন্ন দিক তুলে ধরে কেরি বলেন, ‘সবার জন্য একটি বাসযোগ্য পৃথিবী গড়ে তুলতে বাইডেন প্রশাসন জলবায়ুবিষয়ক প্যারিস চুক্তিতে আবার যোগদান করেছে। ভবিষ্যত প্রজন্মের জন্য আমাদের একটি বাসযোগ্য পৃথিবী গড়ে তুলতে হবে। এ জন্য আমাদের সবাইকে একযোগে ভূমিকা পালন করতে হবে।’

‘বাংলাদেশ জলবায়ুজনিতে কারণে ক্ষতিগ্রস্ত একটি দেশ। আসন্ন সম্মেলনে বাংলাদেশ যোগ দেওয়ার উৎসাহ প্রকাশ করায় আমরা আনন্দিত’, যোগ করেন জন কেরি।

এর আগে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেনের সঙ্গে রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় বৈঠক করেন জন কেরি।

এ সময় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম, পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন, ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল রবার্ট মিলার উপস্থিত ছিলেন।

জন কেরি আজ সকালে দিল্লি থেকে বাংলাদেশে সফরে আসেন। সন্ধ্যায় তিনি ঢাকা ত্যাগ করেন।

আগামী ২২ এপ্রিল শুরু হতে যাওয়া বিশ্ব জলবায়ু সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আমন্ত্রণ জানাতে আজই ঢাকায় আসেন কেরি। ৪০টি দেশের রাষ্ট্র বা সরকারপ্রধানের অংশগ্রহণে ভার্চুয়ালি এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে।

সূত্র : এনটিভি
এন এইচ, ০৯ এপ্রিল

Back to top button