রূপচর্চা

পায়ের পরিচর্যা করুন ভিনেগার ও জলের মিশ্রণ দিয়ে, জেনে নিন এর উপকারিতা

রান্নাঘরে থাকা অন্যতম উপাদান ভিনেগার। তবে কেবল রান্নার কাজেই ব্যবহৃত হয় না, পাশাপাশি এটি ত্বকের পরিচর্যার ক্ষেত্রেও কার্যকরি। এর অ্যাসিডিক বৈশিষ্ট্য শুষ্ক পা, আঁচিল এবং আরও বিভিন্ন পায়ের সমস্যার সমাধান করতে পারে। এতে অ্যাসিটিক অ্যাসিড রয়েছে, যার মধ্যে অ্যান্টিমাইক্রোবিয়াল বৈশিষ্ট্য বর্তমান, যা শরীর থেকে ব্যাকটেরিয়া এবং জীবাণু অপসারণে সহায়তা করে। ভিনেগার-জলের মিশ্রণে পা ভিজিয়ে রাখলে অনেক উপকার পাবেন।

ভিনেগারে অ্যান্টিফাঙ্গাল বৈশিষ্ট্য বর্তমান, যা ব্যাকটেরিয়া, ফাঙ্গাস এবং অন্যান্য ক্ষতিকারক জীবাণু থেকে রক্ষা করতে পারে। তাই পায়ের যত্নের ক্ষেত্রে ভিনেগার ব্যবহার করলে খুব ভাল ফল পাওয়া যাবে। কিন্তু কীভাবে ব্যবহার করবেন? আসুন জেনে নেওয়া যাক।

ভিনেগার ফুট সোক তৈরির পদ্ধতি

১) হালকা গরম জলে এক কাপ ভিনেগার দিন। তবে ২:১ অনুপাতে জল ও ভিনেগার মেশাবেন, উদাহরণ হিসেবে বলা যায় – দুই অংশ জলের সঙ্গে এক অংশ ভিনেগার।

২) সুগন্ধের জন্য কয়েক ফোঁটা ল্যাভেন্ডার এসেনশিয়াল অয়েলও এতে মেশাতে পারেন।

৩) এবার এই জলে ১৫-২০ মিনিটের জন্য আপনার পা ভিজিয়ে রাখুন।

জল ও ভিনেগারের মিশ্রণে পা ভিজিয়ে রাখার উপকারিতা

– পায়ের পেশির ক্ষত বা কালশিটে উপশম করে
– পায়ের দুর্গন্ধ দূর করে
– সানবার্ন থেকে ব্যথা উপশম করে
– শুষ্ক ত্বক নিরাময় করে
– পায়ের নখে ফাঙ্গাস আক্রমণ থেকে মুক্তি দেয়
– আঁচিল অপসারণ করে
– ফাটা গোড়ালি বা ত্বক থেকেও মুক্তি দেয়
– বয়সের ছাপ হালকা করে

এম এউ, ০১ জুলাই

Back to top button