Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, শুক্রবার, ১০ এপ্রিল, ২০২০ , ২৭ চৈত্র ১৪২৬

গড় রেটিং: 2.1/5 (28 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ১০-১৭-২০১২

খালাফ হত্যার বিচার দেখার অপেক্ষায় সৌদি সরকার


	খালাফ হত্যার বিচার দেখার অপেক্ষায় সৌদি সরকার

সৌদি কূটনীতিক খালাফ আল আলীর হত্যার বিচারকার্য গভীরভাবে পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে জানিয়ে ঢাকায় নিযুক্ত সৌদি রাষ্ট্রদূত ড. আবদুল্লাহ বিন নাসের আল বুসাইরি বলেছেন, এ নৃশংস হত্যার সঙ্গে জড়িতদের যথাযথ শাস্তি হলেই পুরোপুরি সন্তুষ্টি আসবে। সৌদি সরকার ও জনগণ কোন বিলম্ব ছাড়া এ ‘বিচার’ দেখার অপেক্ষায় রয়েছে বলেও জানিয়েছেন তিনি। রাজধানীর গুলশানে নিজ বাসভবনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে গতকাল দুপুরে রাষ্ট্রদূত এসব কথা বলেন। ড. বুসাইরী বলেন, খালাফ আল আলীর হত্যার বিচার নিয়ে আইনমন্ত্রী ব্যারিস্টার শফিক আহমেদের সঙ্গে কথা হয়েছে। দ্রুত বিচার আদালতে আগামী ডিসেম্বরের মধ্যে তা সম্পন্ন করার আশ্বাস দিয়েছেন সরকারের আইনমন্ত্রী। হত্যাকারীদের ধরার পর বাংলাদেশের আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী ও সরকারকে সৌদি পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ধন্যবাদ জানিয়েছে উল্লেখ করে রাষ্ট্রদূত বলেন, ঘটনাটি নিয়ে দু’দেশের সম্পর্কে শিথিলতা তো নয়ই, বরং দু’সরকার মিলে অনেক কাজ করেছে। ঘটনা পরবর্তী বাংলাদেশ সরকারের কার্যক্রমে সৌদি আরব সন্তুষ্ট। অপরাধীরা যথোপযুক্ত শাস্তি পেলেই সন্তুষ্টি পূর্ণতা পাবে। হজ ব্যবস্থাপনা নিয়ে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হলেও সাংবাদিকদের প্রশ্নে যুদ্ধাপরাধের বিচার, দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক, বাংলাদেশে সৌদি বিনিয়োগ এবং আগামী ডিসেম্বরে রিয়াদে অনুষ্ঠিত যৌথ কমিশনের বৈঠক প্রস্তুতি নিয়ে কথা বলেন। তিনি আরবিতে প্রশ্নগুলোর জবাব দিলে তা ভাষান্তর করে দেন তার ব্যক্তিগত সহকারী মুহাম্মদ ইউসুফ। আন্তর্জাতিক যু্‌দ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনাল গঠন এবং জামায়াত নেতা গোলাম আযম গ্রেপ্তার হওয়ার কারণে রিয়াদের সঙ্গে ঢাকার কূটনৈতিক সম্পর্ক শিথিল হয়েছে- জনমনের এমন ধারণার বিষয়ে রাষ্ট্রদূতের দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে তিনি বলেন, বাংলাদেশের সঙ্গে সৌদি আরবের সম্পর্ক অনেক পুরনো। কোন বিশেষ দল নয়, বাংলাদেশের জনগণের প্রতিনিধিত্বকারী সব দলের সঙ্গেই তার দেশের সম্পর্ক রয়েছে। সৌদি আরব বাংলাদেশের জনগণের কল্যাণার্থে রাজনৈতিক দলগুলোর মধ্যে সম্প্রীতি ও সৌহার্দ্যপূর্ণ সম্পর্ক বিরাজমান থাকুক- এটাই প্রত্যাশা করে। চলমান বিচার প্রক্রিয়াকে বাংলাদেশের অভ্যন্তরীণ বিষয় উল্লেখ করে রাষ্ট্রদূত এ নিয়ে কোন ধরনের মন্তব্য করতে বারবার অপারগতা প্রকাশ করেন। জনশক্তি রপ্তানির বিষয়ে জানতে চাওয়া হলে রাষ্ট্রদূত বলেন, বাংলাদেশ থেকে শ্রমিক নেয়া সৌদি আরব একেবারে বন্ধ করেনি, অন্যান্য দেশের সঙ্গে ‘ভারসাম্য’ প্রতিষ্ঠায় কিছুটা কমিয়েছে। তবে প্রতিদিনই বাংলাদেশী শ্রমিক, চিকিৎসক, ইঞ্জিনিয়ার, শিক্ষক-ছাত্র সৌদি যাচ্ছেন। কাবা ঘর সমপ্রসারণের জন্য আগামী তিন বছর বাংলাদেশ থেকে ওমরাহ ভিসা বন্ধ থাকবে- এমন খবরের বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে রাষ্ট্রদূত তা উড়িয়ে দিয়ে বলেন, এ খবর অসত্য। অতীতে অনেকবার কাবা ঘরের সংস্কার কাজ হয়েছে। একদিনের জন্যও তাতে জিয়ারতকারীদের যাতায়াত বন্ধ ছিল না, ভবিষ্যতেও থাকবে না। বাংলাদেশীদের জন্য ওমরাহ’র ভিসা ইস্যু একদিনও বন্ধ থাকবে না বলে ঘোষণা দেন রাষ্ট্রদূত। বাংলাদেশে সৌদি বিনিয়োগ বাড়ানো এবং বাণিজ্য সমপ্রসারণের উদ্যোগ রয়েছে জানিয়ে বুসাইরী বলেন, আগামী ডিসেম্বর মাসে দুই দেশের মধ্যে প্রতিষ্ঠিত যৌথ কমিশনের প্রথম বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। সৌদির রাজধানী রিয়াদে তা অনুষ্ঠিত হবে। সেখানে এ সব বিষয়ে সুনির্দিষ্ট প্রস্তাবনা নিয়ে আলোচনা হবে। বাংলাদেশে বিনিয়োগের পরিবেশ দেখতে সৌদি প্রিন্স তালালের সফর সম্পর্কিত এক প্রশ্নে রাষ্ট্রদূত বলেন, ব্যক্তিগত সফর হলেও প্রিন্স এখানে এসে সরকারের প্রতিনিধি ও ব্যবসায়ীদের সঙ্গে কথা বলেছেন। বাংলাদেশে তার বিনিয়োগের ইচ্ছা রয়েছে। তার সফরের ফলোআপ হিসাবে শিগগিরই ঢাকা থেকে একটি প্রতিনিধি দল রিয়াদ যাবে বলেও জানান তিনি। হাজীদের খেদমতে সৌদি সরকার প্রস্তুত জানিয়ে রাষ্ট্রদূত বলেন, এরই মধ্যে সারা বিশ্বের কয়েক মিলিয়ন হাজী সৌদি আরবে পৌঁছেছেন। মক্কা মুকাররামা, মদীনা মুনাওয়ারা, আরাফাহ, মীনা, মুজদালিফাসহ পবিত্র হজ সম্পাদনের স্থানগুলোকে সমপ্রসারণ করে প্রস্তুত রাখা হয়েছে। সৌদি বাদশা’র সরাসরি আমন্ত্রণে এবং সৌদি সরকারের ব্যবস্থাপনায় এবছর বিশ্বের প্রায় ১৪০০ মেহমান হজব্রত পালন করবেন। এর মধ্যে বাংলাদেশের ৬০ মেহমান রয়েছেন। বাংলাদেশ থেকে এ পর্যন্ত ১ লাখ ১১ হাজার হাজী ভিসা পেয়েছেন বলে সাংবাদিকদের অবহিত করেন রাষ্ট্রদূত। এবারের হজের টিকিট বিক্রির জন্য সৌদি এয়ারলাইন্স যে পাঁচটি প্রতিষ্ঠানকে দায়িত্ব দিয়েছিল তারা অতিরিক্ত টাকা নিয়েছে এমন অভিযোগের বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলেও রাষ্ট্রদূত বলেন, বিষয়টি তদন্ত করে সৌদি সরকার ব্যবস্থা নেবে। হাজীদের সুবিধার জন্য আগামী বছর সরকারের সিভিল এভিয়েশন কর্তৃপক্ষ ও ধর্ম মন্ত্রণালয় যদি কোন ধরনের প্রস্তাব করে তা-ও বিবেচনায় নেয়া হবে।

জাতীয়

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে