Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, মঙ্গলবার, ২১ জানুয়ারি, ২০২০ , ৮ মাঘ ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.2/5 (50 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ১১-০৮-২০১৫

সলমন খান আমার জীবনের সবচেয়ে বড় স্টার: সোনম

তপন বকসি


সলমন খান আমার জীবনের সবচেয়ে বড় স্টার: সোনম

আপনার কি মনে হচ্ছে না ২০১৫-য় আপনার নতুন ছবি ‘প্রেম রতন ধন পায়ো' আপনার জীবনে সবচেয়ে বড় ঘটনা?
হ্যাঁ, মনে হচ্ছে৷ কেন না এটা একটা বড় ক্যানভাসের ছবি৷ বড় বাজেটের ছবি৷ আর আমার জীবনে সবচেয়ে বড় স্টার বা হিরো সলমন খান এই ছবির নায়ক৷ আর হ্যাঁ, সুরজ বরজাতিয়ার মতো এত সাকসেসফুল একজন  পরিচালক রয়েছেন এখানে৷ (হাসি)

‘প্রেম রতন ধন পায়ো' নিয়ে তাই স্বাভাবিক ভাবে আপনার প্রত্যাশাও রয়েছে?
ও ইয়েস৷ এই ছবিটা নিয়ে আমি খুবই আশাবাদী৷ সুরজজি অনেক দিন পর৷ ন'বছর পর আবার ডিরেকশনে এলেন৷ আমি ওঁর পরিচালনার শেষ ছবি ‘বিবাহ' দেখেছি৷ ভীষণ টাচি ফিল্ম৷ পারিবারিক ছবির মেকার হিসাবে সুরজজি নিজেই তো প্রতিষ্ঠান হয়ে গিয়েছেন৷ তাই এরকম পরিচালকের ছবিতে সুযোগ পেয়ে নিশ্চয়ই আশাবাদী আমি৷

আপনাকে অনেকদিন পর বেশ উৎসাহী, উত্তেজিত মনে হচ্ছে৷ সেটা সলমন খানের নায়িকা হতে পেরে কি?
এটা অবশ্যই আর একটা কারণ তো বটে৷ এমনিতে সলমনকে চিনি অনেক ছোটবেলা থেকে৷ সলমন আমাদের পারিবারিক বন্ধু৷ অনেকবার, অনেক রকম পরিবেশে ওকে মিট করেছি৷ ওদের বাড়িতে গিয়েছি৷ সলমনও বিভিন্ন অকেশনে আমাদের বাড়িতে এসেছে৷ আড্ডা হয়েছে৷ কিন্তু ফিল্মে ওর বিপরীতে অভিনয় করিনি কখনও৷ যদিও আমার প্রথম ছবি ‘সাঁওয়ারিয়া'-তে ও ছিল৷ কিন্তু সেটা অন্যরকমের অ্যাপিয়ারেন্স৷ সোজাসুজি নায়িকা হিসেবে যে সলমনের বিপরীতে আসতে পারব, সেটা সেদিন সম্ভব হল৷ রিয়্যালি ভীষণ এক্সাইটেড ছিলাম৷ এখনও এক্সাইটেড৷

আমরা শুনেছি সলমন এই ছবিতে ওর নায়িকা নির্বাচন নিয়ে প্রথম দিকে দ্বিধাগ্রস্ত ছিলেন৷ আপনি শুনেছিলেন সেই কথাটা?
এটা ঠিক জানি না৷ তবে এ ব্যাপারে আমার পরিচালক সুরজজির নিশ্চয়ই কোনও ডিসিশন ছিল৷ যে ডিসিশনে উনি বরাবরই স্টিক করেছেন৷ আসলে নিজের ছবির ব্যাপারে পরিচালক যত পরিষ্কার থাকেন, সেটা ভবিষ্যতে সবকিছুকেই ঠিক রাস্তায় নিয়ে যায়৷ সেটা ছবি মানে টোটাল প্রোডাকশনের ব্যাপারেই ভাল হয়৷

আপনার কি মনে হয় না, যেমন ‘বিবাহ'-তে অমৃতা রাও-কে উনি নায়িকা হিসেবে বেছে নিয়েছিলেন হয়তো উনি ওঁর ছবির নায়িকা কিংবা নায়কের অ্যাপিয়ারেন্সের ওপর জোর দেন, নিজে যেটা মনে করেছেন তার ওপরেই ভরসা রাখেন?
আমারও তাই মনে হয়৷ কেন না সুরজজির মতো পরিচালকদের নিজস্ব ভিশনটা খুব জোরদার আর পরিষ্কার হয়৷ সেখানে কোনও নায়িকার বক্স অফিস দেখে ওঁর মতো পরিচালকরা নায়ক বা নায়িকা নির্বাচন করেন না৷ এটা যদি আপনি আরও পুরনো রেকর্ডে চলে যান ‘রাজশ্রী প্রোডাকশনস'-এর তা হলেই দেখতে পাবেন৷

অনেকটা আত্মবিশ্বাসী লাগছে নিজেকে এখন?
আত্মবিশ্বাসে ভাঁটা থাকলে তো কোনও কাজই হবে না৷ আত্মবিশ্বাসী আমি সবসময়েই৷

আমরা শুনেছি যে সুরজ বরজাতিয়া এই ছবিতে যেমন অ্যাকশন রেখেছেন, তেমনই রোমান্স-এর জায়গাও রেখেছেন৷ মূলত সলমনকে মাথায় রেখে৷ রোমান্স-এর দৃশ্যে শিসমহল এই ছবির শিল্প নির্দেশনায় একটা বড় জায়গা নিয়েছে?
ইয়া৷ শিসমহল যেটা সুরজজি তৈরি করেছেন এই ছবির জন্য, সেটা দেখার মতো৷ অ্যামেজিং! সুরজজি বলছিলেন যে ‘মুঘল-এ আজম'-এর পরিবেশ৷ চরিত্রেরা ওঁকে ভীষণভাবে ইন্সপায়ার করে এসেছে৷ তাই এই ছবির চিত্রনাট্যে উনি এরকম কিছু পরিবেশ তৈরি করার চেষ্টা করেছেন৷

আপনার যে চরিত্র ‘মৈথিলি', তার মধ্যে একটা প্রিন্সেস টাইপ ফ্লেভার আছে, তাই তো?
হ্যাঁ, এটা কিছুটা ‘খুবসুরত'-এও পাবেন৷ সত্যি একটা রাজনন্দিনী টাইপ ইমেজ পাবেন৷ একটা বিশেষ ইমেজের আলো দিয়ে নায়িকাকে হাইলাইটেড করা৷ (হাসি)

সোনম, এই ছবি যেমন আপনার কাছে উৎসাহের, রোমাঞ্চের, তেমনই এই ছবি আপনার কেরিয়ারে একটা বিশেষ সময়ে, বিশেষ অর্থে এসেছে৷ যা আপনার ভবিষ্যতে কেরিয়ারের অনেকটা ক্যারি করছে৷ মানবেন?
হিন্দি ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে এরকম কম্বিনেশন যে কোনও অভিনেতার কাছেই বিরাট সুযোগের, সম্ভাবনার৷ আমি একজন অভিনেতা হিসাবে যতটা পেরেছি নিজেকে উজাড় করে দেওয়ার চেষ্টা করেছি৷ অ্যান্ড আই হোপ, আই উইল গেট দ্য অডিয়েন্স সাপোর্ট অলওয়েজ৷

আমরা শুনেছি আপনি এই ছবিতে নিজের ড্রেস নিজেই স্টাইলিং করেছেন?
হ্যাঁ৷ ‘দিল্লি সিক্স'-ও করেছিলাম এর আগে৷ আর তারপর এই ছবিতেও করেছি৷ ডিজাইনার যা করেছেন তাঁকে স্টাইলিং কনসেপ্টটা আমিই দিয়েছি৷

সাক্ষাৎকার

আরও সাক্ষাৎকার

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে