Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, সোমবার, ১১ নভেম্বর, ২০১৯ , ২৭ কার্তিক ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.8/5 (4 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ১০-২৯-২০১৫

'বিএনপি নেতা সোহেল বলেন রংপুরে একজন বিদেশীর লাশ ফেলতে হবে'

রেজাউল আলম সবুজ


'বিএনপি নেতা সোহেল বলেন রংপুরে একজন বিদেশীর লাশ ফেলতে হবে'

ঢাকা, ২৯ অক্টোবর- রংপুরে জাপানের নাগরিক কুনিও হোশি হত্যাকাণ্ডে গ্রেপ্তার হওয়া নিহত কুনিওর ব্যবসায়িক সহযোগী হুমায়ুন কবির ওরফে হীরা বুধবার রংপুরের আমলি আদালতে এ হত্যায় জড়িত থাকার বিষয়ে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। হুমায়ুন কুনিওর ব্যবসায়িক সহযোগী। যার মাধ্যমে জাপানি নাগরিক কুনিও রংপুরে এসেছিলেন।

জবানবন্দিতে হুমায়ুন তাঁর ভাই কামালের সঙ্গে বিএনপি নেতা হাবিব-উন নবীর যোগাযোগের কথা বলেছেন। তাঁরা পরস্পর যোগসাজশে এই হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছেন ও হুমায়ুন বিষয়টি আগে থেকেই জানতেন বলে স্বীকার করেছেন। 

হীরা আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে বলেছে, ‘সোহেল ভাই কামালকে বলেছেন, ঢাকার মতো রংপুরে একজন বিদেশীর লাশ ফেলতে হবে। কামাল ভাই এই দায়িত্ব আমাকে দেন।’  কামাল হীরার বড় ভাই। কুনিও খুনের পর থেকে সে নিখোঁজ রয়েছে।

সেই বড় ভাই হাবিব উন নবী খান সোহেল এখন লন্ডনে। ৩ দিন আগে তিনি লন্ডনে পৌঁছেছেন। সেখানে এক রাজনৈতিক নেতার ঘনিষ্ঠ ব্যবসায়ীর আশ্রয়ে আছেন। লন্ডনের অবস্থান সম্পর্কে বিভ্রান্তি ছড়াতে সোহেলের ফেসবুক আইডি বাংলাদেশে খুলে রাখা হয়েছে। চট্টগ্রামের কোনো এলাকা থেকে এটি ব্যবহার করা হচ্ছে।

গোয়েন্দা সূত্রে জানা গেছে, জাপানি নাগরিক কুনিও হোশি খুনের পরপরই ঢাকা মহানগর বিএনপির সদস্য সচিব হাবিব উন নবী খান সোহেল দেশত্যাগের পরিকল্পনা করেন। মূলত গ্রেফতার এড়াতেই তিনি দেশ ছাড়তে মরিয়া হয়ে উঠেন। এজন্য প্রথমেই লন্ডনে যোগাযোগ শুরু করেন। কিন্তু সেখান থেকে তেমন সাড়া পাওয়া যায়নি। তাকে অপেক্ষা করতে বলা হয়। এ মাসের ২০ তারিখের আগে তাকে দেশ ছাড়ার সবুজ সংকেত দেয়া হয়। খবর পেয়ে তিনি দ্রুত ঢাকা থেকে সড়কপথে রংপুর যান। সেখান থেকে লালমনিরহাটের বুড়িমারী সীমান্তের কাছাকাছি কোনো এলাকা ব্যবহার করে ভারত পৌঁছান। এর আগে সোহেল ও তার ঘনিষ্ঠরা দিনাজপুরের হিলি ও জয়পুরহাটের পাঁচবিবি সীমান্তসহ আরও একাধিক সীমান্ত এলাকায় যোগাযোগ করেন। কিন্তু কেউ নিরাপদে পার করে দেয়ার আশ্বাস দিতে পারেননি বলে ঝুঁকি নেননি।

ভারতেও যাওয়ার আগে সোহেল প্রয়োজনীয় কিছু কাগজপত্রও গুছিয়ে নেন। এর ফলে ওই দেশ থেকে লন্ডন যাওয়ার পথ সুগম হয়েছে। ভারত থেকে লন্ডন, রংপুর ও ঢাকায় তিনি কয়েক দফা যোগাযোগ করেন এমন তথ্য পাওয়া গেছে। এ সময় তিনি দুই বিদেশী নাগরিক খুনের বিষয়ে এক ছাত্র নেতার সঙ্গে কথা বলেন।

কাউনিয়া থানার পুলিশ জানায়, কুনিও হত্যা মামলায় এ পর্যন্ত হুমায়ুনসহ দুজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এই দুজনের মধ্যে অন্যজন মহানগর বিএনপির সদস্য রাশেদ-উন-নবী খান ওরফে বিপ্লবকেও ৫ অক্টোবর ১০ দিনের রিমান্ড নেওয়া হয়। তবে ১০ অক্টোবর তাঁকে কারাগারে পাঠানো হয়। রাশেদ-উন-নবী বিএনপি নেতা হাবিব-উন-নবীর ভাই। 

জাতীয়

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে