Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, শুক্রবার, ২৪ জানুয়ারি, ২০২০ , ১০ মাঘ ১৪২৬

গড় রেটিং: 1.4/5 (7 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)


আপডেট : ০৩-২০-২০১৫

আম্পায়াররাই হারাল বাংলাদেশকে

আম্পায়াররাই হারাল বাংলাদেশকে

ঢাকা, ২০ মার্চ- বাংলাদেশ-ভারত চলতি বিশ্বকাপের দ্বিতীয় কোয়ার্টার ফাইনাল ম্যাচে আম্পায়াররা বেশকিছু বিতর্কিত সিদ্ধান্ত দিয়েছেন। যা কিনা মাশরাফি বাহিনীর বিপক্ষে গিয়েছে বলেই মনে করছেন বাংলাদেশ দলের সাবেক দুই অধিনায়ক শফিকুল হক হীরা ও রকিবুল হাসান। আর এসব সিদ্ধান্তে বাংলাদেশ দল বড় ব্যবধানে হেরেছে বলেই মনে করছেন তারা।

শফিকুল হক হীরা : ভারতের ইনিংসের ৪০তম ওভারে বির্ততিক সিদ্ধান্তটি দেন দুই আম্পায়ার আলিম দার ও ইয়ান গোল্ড। নিজের অষ্টম ওভারের চতুর্থ বলটি ফুলটস দিয়েছিলেন রুবেল। বাউন্ডারি মারতে গিয়ে ডিপমিড উইকেটে ক্যাচ দেন ভারতের ব্যাটসম্যান রোহিত শর্মা। কিন্ত বলটি কোমরের ওপরে ছিল উল্লেখ করে লেগ আম্পায়ার আলিম দার বোলিং প্রান্তে থাকা ইয়ান গোল্ডকে ‘নো’ বলের সংকেত দেন। ইংল্যান্ডের আম্পায়ার গোল্ড তখন ‘নো’ ডাকলে বিস্ময়ে হতবাক হয়ে পড়ে সাকিব-মাশরাফিরা।

এই সিদ্ধান্তে ভারতের সাবেক ব্যাটসম্যান ভিভিএস লক্ষন টুইটারে প্রতিক্রিয়া লিখেছেন, ‘গোল্ডের থেকে বাজে সিদ্ধান্ত এল। এটা অবশ্যই কোমরের ওপরে ছিলো না। ভাগ্যের সহায়তা পেল রোহিত।’ তাই আমিও বলব অবশ্যই এ বলটি নো বল ছিল না। কারণ রোহিত অনেকটা এগিয়ে ছিলেন। আর এই জীবন পাওয়ায় ভারতের ইনিংসটাও আরও সম্মৃদ্ধ হয়েছে। আর ব্যাটিংয়ের সময় ঠিক উল্টোটা হয়েছে বাংলাদেশের ক্ষেত্রে।  মোহাম্মদ শামির বলে লং লেগে সীমানা দড়ির কাছে শিখর ধাওয়ানের হাতে ধরা পড়েন মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। কিন্তু তার আউটটা কিছুটা হলেও ছিল দুর্ভাগ্যজনক। আম্পায়ার আরেকটু সময় নিতেই পারতেন। মনে হচ্ছিল ধাওয়ান হয়তো সীমানা দড়ি স্পর্শ করেছেন। এটা আমার কাছে মনে হয়েছে এটি ছয়ই হতো। আর সুরেশ রায়নার এলবিডব্লুর সিদ্ধান্তটিও আম্পায়াররা সুকৌশলে এড়িয়ে গেলেন। আর এসব কারণে ম্যাচ থেকে ছিটকে পড়ে বাংলাদেশ।

রকিুবুল হাসান : ভারতের বিপক্ষে খেলায় বেশকিছু বির্তকিত আম্পায়ারিংয়ের শিকার হয়েছে বাংলাদেশ দল। রুবেলের যে বলটি আম্পায়ার ইয়ান গোল্ড নো বল করছেন, সেটি আমার দৃষ্টিতে মনে হয়েছে এটি আউট ছিল। বলটি নিচের দিকে নামছিল আর ব্যাটসম্যানও ওই সময় বাইরে বেরিয়ে এসেছিল। আর মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের কে ক্যাচটি শিখর ধারওয়ান ধরেছেন। সেটিও নিয়েও সন্দেহ আছে। কারণ আমার খালি-চোখে মনে হয়েছে ধাওয়ান বলটি ক্যাচ ধরার সময় তার পা দড়ি স্পর্শ করেছিল। যা পরে আর ভিডিও ফুটেজে সেভাবে দেখানো হয়নি।

আম্পায়ারদের এই দুটো বড় ধরণের ভুলের খেসারত দিতে হলো পুরো বাংলাদেশকে। যা বিগ ম্যাচে অনেক বড় প্রভাব ফেলেছে। তাছাড়া আজ বোলাররা প্রথম ৩৫ ওভার পর্যন্ত ঠিকই বল করেছিল। কিন্তু পরে  সেটি আর তারা ধরে রাখতে পারেনি। বিশেষ করে মাশরাফিকে খুব ক্লান্ত দেখাছ্লি। তবে ভারত দল সেমিতে যাওয়ায় তাদেরকে অভিনন্দন জানাছি। তার চেয়েও বড় অভিন্ন্দন জানাতে চাই আমার বাংলাদেশ দলকে। বিশ্বকাপে তারা দুর্দান্ত পারফর্ম করেছে। তবে একটি দিন খারাপ যায়, হয়তো সেদিনটি আজ ছিল। তারপরও আমি বলব একাদশ বিশ্বকাপ থেকে বাংলাদেশ দল অনেক কিছুই অজর্ন করেছে।

২০ মার্চ ২০১৫/১১ঃ৩৮এএম/আনিকা/

ক্রিকেট

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে