Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, সোমবার, ২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ , ১২ ফাল্গুন ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.1/5 (76 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)


আপডেট : ১১-২২-২০১৪

মেয়েদের নিতম্ব বড় করার হিড়িক

মেয়েদের নিতম্ব বড় করার হিড়িক

নিউইয়র্ক, ২২ নভেম্বর- ব্যায়ামাগারে নারীদের নিতম্ব বড় করার ব্যায়ামের চাহিদা বাড়ছে হুড়হুড়িয়ে। অনেকে সহজ পন্থা হিসেবে বেছে নিচ্ছেন অস্ত্রোপচার। আর ফোম দেওয়া প্যান্টিতো আছেই। উদ্দেশ্য একটাই, নিতম্ব বড় করা।

নিতম্ব বড় করলে তার সৌন্দর্য বাড়ে কিনা বলা মুশকিল। তবে মার্কিন মুল্লুকে এখন নতুন ট্রেন্ড নিতম্ব। আর এই ট্রেন্ডের শুরুটা করিয়ে দিয়েছেন নিকি মিনাজ আর কিম কারদাশিয়ানের মতো তারকারা। ফলে নারীরা এখন ব্যাপক আগ্রহ দেখাচ্ছেন নিজেদের নিতম্বের আকার বাড়ানোর প্রতি।

'অ্যানাকোন্ডা' অ্যালবামের রিলিজের সময় নিজের বাড়ন্ত নিতম্ব প্রদর্শন করে ব্যাপক আলোচনার সৃষ্টি করেন মিনাজ। আর গত সপ্তাহে পেপার ম্যাগাজিনের জন্য তোলা ছবিতে নিজের নিতম্ব পুরোটাই নগ্ন করে দিয়েছেন কিম কারদাশিয়ান। এমনকি নিতম্বের ওপর শ্যাম্পেন গ্লাস রেখে সেটিতে বিশেষ কৌশলে শ্যাম্পেনও ঢেলেছেন তিনি। তাঁর এসব ছবি এখন ইন্টারনেটে উড়ে বেড়াচ্ছে ট্রেন্ডি ফটো হিসেবে।

এদিকে, নিতম্বের এই প্রদর্শনী অনেকের ব্যবসাও বাড়িয়ে দিয়েছে। হালের খবর হচ্ছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ব্যায়ামগারগুলোতে নাকি নারীর আগমন বাড়ছে। তাদের উদ্দেশ্য ব্যায়াম করে নিতম্বের আকার আরো বড় করতে হবে, করতে হবে আরো আকর্ষণীয়।

পাশাপাশি ফোম দেওয়া প্যান্টির বিক্রিও বাড়ছে হুড়হুড়িয়ে। 'বুটি পপ' নামক অনলাইনে অন্তর্বাস বিক্রয়কারী একটি প্রতিষ্ঠান জানিয়েছে, গত বছরের তুলনায় তাদের বিক্রি বেড়েছে ৪৭ শতাংশ। শুধু তাই নয়, চলতি বছর ফোম লাগানো প্যান্টি এত বিক্রি হয়েছে যে তাদের স্টক শেষ।

বড় নিতম্বের আশায় সার্জারি বা অস্ত্রোপচারেও দ্বিধা করছেন না অনেক নারী। এ ধরনের সার্জারির পেছনে গড়পড়তায় খরচ ১০ থেকে ১৩ হাজার মার্কিন ডলার। কোথাও কোথাও নাকি পেট থেকে চর্বি নিয়ে তা নিতম্বে জোড়া হচ্ছে। কেউ কেউ আবার সস্তায় সার্জারি করতে গিয়ে বিভিন্ন জটিলতায় পড়ছেন। তবুও থামছে না এই চর্চা।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন এটা পরিবর্তনের হাওয়া। এখন নাকি মেয়েদের স্তনের বদলে নিতম্বের দিকেই অনেকের নজর যায় বেশি। তাই এই পরিবর্তন। আর এই পরিবর্তন শুধু মার্কিন মুল্লুকে নয়, দেখা দিয়েছে ফ্রান্সেও।

ফরাসি সমাজবিজ্ঞানী জঁ ক্লোদ কাউফমান বলেন, ইউরোপ, বিশেষ করে ফ্রান্সে স্তনের বদলে নিতম্ব প্রদর্শনের চর্চা বাড়ছে। এটাকে ল্যাটিন আমেরিকার প্রভাব বলা যেতে পারে। পাশাপাশি বিয়ন্সে আর রিহানার মতো তারকাদের অবদানও কম নয়।

উত্তর আমেরিকা

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে