Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, রবিবার, ১৫ ডিসেম্বর, ২০১৯ , ১ পৌষ ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.2/5 (44 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৫-০৩-২০১৪

অতিরিক্ত ছবি তোলার অভ্যাস কমিয়ে দেয় স্মৃতিশক্তি

অতিরিক্ত ছবি তোলার অভ্যাস কমিয়ে দেয় স্মৃতিশক্তি

ছুটির দিনে বাড়ির বাইরে বেড়াতে যান নিশ্চয়ই অনেকেই? আর তখন নিশ্চয়ই খেয়াল করেছেন অনেকে নিজের আপনজনের সাথে মিষ্টি মুহূর্তটুকু ধরে রাখার জন্য ক্যামেরায় ক্লিক করে যাচ্ছেন। এমনকি ঠিক এই কাজটি হয়তো আপনি নিজেই করছেন। কিন্তু জানেন কি, স্মৃতি ধরে রাখার জন্য যে ক্যামেরা আপনি ব্যবহার করছেন, সেই ক্যামেরার অতি ব্যবহারের ফলেই আপনার স্মৃতিশক্তি খারাপ হয়ে যাচ্ছে, আপনি সহজেই ভুলে যাচ্ছেন প্রিয় সব মুহূর্ত! Psychological Science জার্নালে প্রকাশিত ফেয়ারফিল্ড ইউনিভার্সিটির এক গবেষণায় জানা যায় এই তথ্য।

রাস্তায় হাঁটতে হাঁটতে সুন্দর একটা ফুল দেখলেন। সাথে সাথেই ক্যামেরা বা মোবাইল বের করে তার ছবি তুলে ফেললেন আপনি। এতে কি হবে জানেন? পরবর্তী সময়ে এই ফুলের ছবিটি আপনার কাছে থাকবে বটে, কিন্তু সেই ফুলের কথা আর আপনার স্মৃতিতে থাকবে না। “মানুষ কোনও মুহূর্তের স্মৃতি ধরে রাখার জন্য সহজেই ক্যামেরা বের করে ছবি তুলে ফেলেন, কিন্তু তার সামনে আসলে কি ঘটছে সেটাই তারা হারিয়ে ফেলছেন,” বলেন ফেয়ারফিল্ড ইউনিভার্সিটির মনস্তত্ববিদ লিন্ডা এ হেনকেল।

এই গবেষণায় অংশগ্রহণকারীদেরকে ফেয়ারফিল্ড ইউনিভার্সিটির বেলারমেইন মিউজিয়াম অফ আর্ট ঘুরে দেখতে বলা হয় এবং কিছু কিছু নির্দিষ্ট বস্তুর মনে রাখতে বলা হয়। তাদেরকে বলা হয় তারা এসব বস্তু শুধু দেখে বা ছবি তুলে মনে রাখতে পারেন। পরের দিন তাদের স্মৃতিশক্তি পরীক্ষা করা হয়। দেখা যায়, যেসব বিশেষ বস্তু মনে রাখার কথা বলা হয়েছিলো, সেগুলোর ছবি তুলে রাখার ফলে এগুলোর ব্যাপারে তাদের স্মৃতি খারাপ। কিন্তু অন্য যেসব বস্তু তারা ছবি না তুলে শুধু পর্যবেক্ষণ করেন, সেগুলোর স্মৃতি ছিলো ভালো। যেসব বস্তুর ছবি তারা তুলেছিলেন, সেগুলোর খুঁটিনাটি তথ্য দেবার ব্যাপারেও তাদের স্মৃতি খুব একটা সহায়ক হয় নি। হেনকেল এই ঘটনাকে ব্যাখ্যা করেন “photo-taking impairment effect” হিসেবে।

“মানুষ যখন কোনও কিছু মনে রাখার জন্য প্রযুক্তির ওপর নির্ভরশীল হয়ে পড়ে- নিজে কোনও ঘটনার প্রতি মনোযোগ না দিয়ে ভাবে ক্যামেরায় ছবি তুলে রাখলে সেটাই ঘটনাটিকে ধরে রাখবে- তখন এসব অভিজ্ঞতা মনে রাখার ক্ষেত্রে একটি নেতিবাচক প্রভাব পড়ে তাদের মনে,” বলেন হেনকেল।

গবেষণার পরবর্তী পর্যায়ে এসব অংশগ্রহণকারীকে বলা হয় কিছু বস্তুর ওপর ক্যামেরা জুম করে তাদের ব্যাপারে খুঁটিনাটি বিষয়গুলো মনে রাখতে। এক্ষেত্রে দেখা যায়, অংশগ্রহকারিদের স্মৃতি ভালোভাবে কাজ করে। এমনকি ওই বস্তুর যেই অংশ জুম করে দেখা হয়নি সেই অংশের ব্যাপারেও তারা অনেক কিছু মনে রাখতে পারছেন। অর্থাৎ ওই বস্তুর প্রতি তাদেরকে মনোযোগ দিতে বলার ফলেই তাদের স্মৃতিশক্তি ভালোভাবে কাজ করছে।

ক্যামেরায় তোলা ছবির বিষয়বস্তুর ওপর স্মৃতিশক্তির তীক্ষ্ণতা নির্ভর করে কিনা, তা নিয়ে এখন গবেষণা করছেন হেনকেল। ছবি তোলার ব্যাপারে আরও কিছু বিষয় ব্যাখ্যা করেন তিনি। যেমন বেশিরভাগ সময়ে আমরা কোনও স্মৃতি মনে রাখার জন্য ছবি তুলে থাকলেও অনেকে সেই স্মৃতি ভুলে যাবার জন্য ছবি তুলে তাকে লুকিয়ে রেখে দেয় এলোমেলো করে।

 

জানা-অজানা

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে