Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, শনিবার, ২৪ আগস্ট, ২০১৯ , ৯ ভাদ্র ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.0/5 (37 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)


আপডেট : ০৪-০৯-২০১৪

পাশাপাশি হাঁটাও অপরাধ!

পাশাপাশি হাঁটাও অপরাধ!

নীলফামারী, এপ্রিল ০৯- ওই তরুণ-তরুণীর দোষ ছিল তাঁরা পূর্বপরিচিত, তাঁদের পথে দেখা হয়েছে। আর তারপর তাঁরা কথা বলতে বলতে রাস্তা দিয়ে হাঁটছিলেন। কিন্তু রাস্তাটি যে মহল্লার, সেখানকার বখাটেদের তা সহ্য হয়নি। পাশাপাশি হাঁটার অপরাধে তারা টাকা দাবি করে তরুণ-তরুণীর কাছে।
কিন্তু তা না দেওয়ায় বখাটেরা তাঁদের নিয়ে যায় স্থানীয় কাউন্সিলরের কাছে। সেখানে টানা নয় ঘণ্টা ধরে চলে ছেলে আর মেয়েটিকে নাজেহাল করার পালা। একপর্যায়ে মেয়েটিকে অভিভাবকদের হাতে আর ছেলেটিকে পুলিশে দেওয়া হয়। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালতে ৫০০ টাকা জরিমানা দিয়ে পার পান ছেলেটি।
গত সোমবার দিনভর এ নাটক চলে নীলফামারীর সৈয়দপুর পৌরসভার ১৪ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আবিদ হোসেন লাড্ডানের তত্ত্বাবধানে। তবে সৈয়দপুরের মতো শিল্প-শিক্ষায় অগ্রসর একটি অঞ্চলের পৌর শহরে একটি ছেলে আর একটি মেয়ে পাশাপাশি হাঁটা কীভাবে অপরাধ হয় তা নিয়ে জনমনে প্রশ্ন দেখা দিয়েছে।
গত সোমবার বিকেলে সরেজমিনে দেখা যায়, কাউন্সিলর লাড্ডান ছেলেমেয়ে দুটিকে শহরের বাঁশবাড়ি মহল্লার একটি বাড়িতে বেলা দুইটা থেকে আটকে রেখেছেন। কখনো পুলিশ ডাকছেন, কখনো সাংবাদিকদের সামনে হাজির করছেন। আর এলাকাবাসীর ভিড় তো আছেই।
মেয়েটি কাঁদতে কাঁদতে বলেন, ‘এরা যা করল, এখন তো সমাজে মুখ দেখানোই কঠিন। মরা ছাড়া আর তো কোনো পথ আমি দেখছি না।’
কাউন্সিলর লাড্ডান বলেন, ‘প্রেম করেছিল বলেই ওদের আমরা আটক করেছি।’ আনারুল হক (২৫) নামের স্থানীয় এক যুবক ও তাঁর সঙ্গীরা ছেলেমেয়ে দুটিকে তাঁর হাতে তুলে দেন বলে জানান তিনি।
এদিকে আনারুলের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ছেলেরা তাঁকে জানিয়েছে, ওই ছেলেমেয়ে হাত ধরাধরি করে হাঁটছিল। তিনি নিজে অবশ্য ঘটনাটি দেখেননি।
দায়িত্বে থাকা প্যানেল মেয়র জিয়াউল হক বলেন, ‘বিষয়টি শুনেছি। আজ (মঙ্গলবার) পৌরসভার মাসিক সভায় বিষয়টি তোলা হবে।’
এলাকার বাসিন্দা গোলাম সাবদার বলেন, ‘ছেলেমেয়ে দুটিকে এভাবে আটক করার কোনো কারণই তো দেখি না।’
রাত ১০টার পর খবর পেয়ে আসেন জাতীয় পার্টির সৈয়দপুর পৌর শাখার সভাপতি মোস্তফা কামাল। তাঁর মধ্যস্থতায় রাত ১১টার দিকে মেয়েটিকে তাঁর অভিভাবকের হাতে তুলে দেওয়া হয়। তবে শাহাবুলকে দেওয়া হয় পুলিশে।
সৈয়দপুর থানার ওসি সহিদার রহমান জানান, ছেলেটি বিবাহিত। মেয়েটির সঙ্গে ঘোরাফেরা করে তিনি অপরাধ করেছেন। তাঁকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে দেওয়া হয়। আদালত তাঁকে ৫০০ টাকা জরিমানা করেছেন।

নীলফামারী

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে