Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই, ২০১৯ , ৭ শ্রাবণ ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.6/5 (34 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৩-২৮-২০১৪

ফের বিতর্কে কিশোর অপরাধীর যাবজ্জীবন

ফের বিতর্কে কিশোর অপরাধীর যাবজ্জীবন

ওয়াশিংটন, ২৮ মার্চ- পৃথিবীতে সম্ভবত যুক্তরাষ্ট্রই একমাত্র দেশ যেখানে কিশোর অপরাধীদের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেয়া হয়। এমনকি ১৮ বছর বয়সের কম বয়সী কিশোরকে প্যারল (বন্দীর শর্তাধীন মুক্তি) ছাড়া যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেয়ার নজিরও আছে। এ বিষয়টি নিয়ে আগে থেকেই বিতর্ক ছিল। গত মঙ্গলবার আমেরিকান সিভিল লিবার্টিজ ইউনিয়ন এবং কলাম্বিয়ার ল স্কুলের মানবাধিকার ইনস্টিটিউট নতুন করে তা সামনে এনেছে। প্রতিষ্ঠান দুটি ইন্টার আমেরিকান কমিশন ফর হিউম্যান রাইটসকে শিশুদের এমন শাস্তির বৈধতা নিয়ে চ্যালেঞ্জ করেছে।
 
ইউনিয়নের একজন আইনজীবী ডেবোরাহ ল্যাবেল বলেন, ‘আপনি এইসব শিশুদের পুনর্বাসন কেন্দ্রে পাঠানোর উদ্দেশ্য থেকেই কারাদণ্ডের আদেশ দিতে পারেন। সংশোধনের জন্য যতো কম সময় সম্ভব তাকে কারারুদ্ধ রাখার আদেশ দেয়া যেতে পারে।’
 
এধরনের অনেকগুলো মামলার মধ্যে একটি হলো জুয়ান উইকওয়্যার (১৬) নামের এক কিশোরের হত্যা মামলা। সে একটি ডাকাতির ঘটনায় অংশ নিয়েছিল এবং সে ঘটনায় একজন গুলিবিদ্ধ হয়ে মারা যায়। এটা মিশিগান অঙ্গরাজ্যে ২০১০ সালের ৭ এপ্রিলে সংঘটিত ঘটনা।
 
ল্যাবেল বলেন, নিহতের শরীরে যে বুলেট পাওয়া গেছে সে পিস্তলটি ছিল জুয়ানের সহযোগী এক কিশোরের হাতে। সুতরাং এটা নিঃসন্দেহ যে তার গুলিতে ওই ব্যক্তি নিহত হয়নি।
 
তিনি মিশিগানের ফৌজদারি আইনের সীমাবদ্ধতা তুলে ধরে বলেন, তাদের আইন অনুযায়ী যদি আপনি পরিকল্পনার সঙ্গে যুক্ত থাকেন এবং হত্যকাণ্ডের সঙ্গে কোনো ধরনের সংশ্লিষ্টতা পাওয়া যায় তাহলে আপনাকে মূল হত্যাকারীর সমান শাস্তি পেতে হবে। এ আইনে আপনার সরাসরি হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে যুক্ত থাকা জরুরি নয়।
 
জুয়ানের ব্যাপারেও সেরকমটিই ঘটেছে। তার বিরুদ্ধে আগে এমন কোনো অভিযোগ ছিল না। কিন্তু তাকে একটি হত্যাকাণ্ডে যাবজ্জীবন দেয়া হলো।
 
জুয়ানের রায়ের পর ২০১২ সালে মার্কিন সুপ্রিমকোর্ট রায় দেন যে, কিশোর অপরাধীকে প্যারল ছাড়া যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেয়া নিষ্ঠুরতা এবং ব্যতিক্রমী শাস্তি। তবে বিচারকরা বিচক্ষণতার সঙ্গে এ ধরনের রায় দিতে পারেন, তাতে বাধা নেই।
 
২০১২ সালের আগস্টে জুয়ানের মামলার রায়ে বিচারক বলেছিলেন, এমন কর্মকাণ্ডের জন্য তার বিরুদ্ধে এ রায় যথার্থ। অথচ জুরিদের রায়ে জুয়ানের সহযোগী কিশোরটি নির্দোষ প্রমাণিত হয়। সেই সময় এক নারী সাক্ষী দেন যে, তার মনে হয়েছে তৃতীয় কোনো ব্যক্তি গুলিটি করেছিল। এর ভিত্তিতেই সেই কিশোর নির্দোষ প্রমাণিত হয়।
 
মানবাধিকার আইনজীবী ল্যাবেল জানান, যুক্তরাষ্ট্রে বর্তমানে ২ হাজার ৬০০ জন প্যারল ছাড়া যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ভোগ করছে যারা ১৮ বছরের  কম বয়সী থাকা অবস্থায় অপরাধ করেছিল।
 
২০১২ সালের একটি প্রতিবেদনে বলা হয়, যুক্তরাষ্ট্রে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডপ্রাপ্তদের মধ্যে ২ হাজার ৫৭০ জন রয়েছে যুবক। এরা যখন অপরাধ করেছে তখন তারা ছিল কিশোর। এর মধ্যে ৩০১ জন রয়েছে ক্যালিফোর্নিয়ার কারাগারে। এদের খুনের মামলায় যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। আদালত এদের জামিনে মুক্তি দিতে নিষেধ করেছেন।
 
যুক্তরাষ্ট্রের কারাগারের ওপর দীর্ঘ অনুসন্ধানী জরিপের ভিত্তিতে ২০১২ সালের ২৯ ফেব্রুয়ারি হিউম্যান রাইটস ওয়াচের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ক্যালিফোর্নিয়ায় যেসব কিশোরকে খুনের দায়ে যাবজ্জীবন দণ্ড দেয়া হয়েছে তার সংখ্যা ৩০১ এবং এদের অর্ধেকই প্রকৃত অর্থে খুনি নয়।

উত্তর আমেরিকা

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে