Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, সোমবার, ২০ জানুয়ারি, ২০২০ , ৭ মাঘ ১৪২৬

গড় রেটিং: 2.8/5 (17 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০১-১২-২০১২

শাবিতে ছাত্রলীগ-শিবির সংঘর্ষ, আহত ৫০

শাবিতে ছাত্রলীগ-শিবির সংঘর্ষ, আহত ৫০
সিলেটের শাহ্‌জালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগ ও ছাত্রশিবিরের মধ্যে ব্যাপক সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। সংঘর্ষ চলাকালে শাহ্‌পরাণ হলের অর্ধশতাধিক কক্ষে ভাঙচুর চালানো হয়। বিকাল থেকে টানা চার ঘণ্টাব্যাপী সংঘর্ষে অর্ধশতাধিক ছাত্রলীগ ও ছাত্রশিবির কর্মী আহত হয়েছে। এর মধ্যে প্রায় ১০ জনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে ক্যাম্পাসে পুলিশ ২০ থেকে ৩০ রাউন্ড টিয়ার শেল ছুড়ে এবং ব্যাপক লাঠিচার্জ করে। এদিকে, সংঘর্ষের একপর্যায়ে ছাত্রশিবিরের কর্মীরা হল দখলে নিয়ে ভাঙচুর চালায়। এ সময় শতাধিক ছাত্র হলের ভেতরে আটকা পড়ে। এ নিয়ে তীব্র উত্তেজনা বিরাজ করছে ক্যাম্পাস এলাকায়। বিপুল পরিমাণ পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। এদিকে সর্বশেষ খবরে জানা গেছে, রাত ৯টার দিকে পরিস্থিতি কিছুটা শান্ত হয়ে এলে  পুলিশ হলে ঢুকে। গতকাল গোলাম আযম গ্রেপ্তারের সংবাদ ক্যাম্পাসে ছড়িয়ে পড়লে ছাত্রলীগ আনন্দ মিছিল করে। পরে ছাত্রলীগ আনন্দ মিছিল শেষে শাহ্‌পরাণ হলের সামনে যায়। এ সময় হলে অবস্থানরত শিবিরের কর্মীরা তাদের ওপর হামলা চালায়। এতে দুই পক্ষের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া শুরু হয়। ওই সময় ছাত্রলীগ বিশ্ববিদ্যালয় শিবির সভাপতি মোজাহিদ রুমি ও সেত্রেটারি জাকির হোসেনসহ শিবির কর্মীদের মারধর করে বের করে দেয়। এ সময় ওই হলের ৩০টি কক্ষ ভাঙচুর করা হয়। এর পর ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা দ্বিতীয় দফায় হলে হামলা করতে এলে আগে থেকেই সংঘবদ্ধ থাকা দেশীয় অস্ত্রসজ্জিত শিবির কর্মীরা প্রতিরোধ করে। ওই সময়  দুই ছাত্র হলের মধ্যবর্তী স্থানে ঘণ্টাব্যাপী সংঘর্ষ হয়। সংর্ঘের একপর্যায়ে ছাত্রলীগ পিছু হটে বিশ্ববিদ্যালয় মেডিকেল সেন্টারে এবং শিবির বিশ্ববিদ্যালয় ক্লাবের পাশে অবস্থান নিয়ে সন্ধ্যা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত দফায় দফায় ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। একপর্যায়ে ছাত্রলীগ দ্বিতীয় ছাত্রহলে শিবির নিয়ন্ত্রিত ৪০টি কক্ষ ভাঙচুর ও কম্পিউটার লুটপাট করে। ছাত্রলীগ নেতা-কর্মীরা শিবির কর্মীদের ব্যবহৃত আসবাবপত্র হলের বাইরে এনে আগুন ধরিয়ে দেয়। আহতদের মধ্যে রয়েছে- সিলেট মহানগর ছাত্রলীগের  উপ-দপ্তর সম্পাদক রুহেল তরফদার, উপ-পরিবেশ সম্পাদক ইমদাদুল হক জায়েদ, সদস্য ফরিদ মিয়া ও শাবি ছাত্রলীগ কর্মী মোস্তাফা ও সুপ্রাজিত। অন্যদিকে শিবিরের বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি মোজাহিদ রুমি ও সেত্রেটারি জাকির হোসেন আহত হন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে হল ও ক্যাম্পাসসহ গুরুত্বপূর্ণ স্থানে পুলিশ ও র‌্যাব মোতায়েন করা হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর হিমাদ্রি শেখর রায় জানান, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। সিন্ডিকেট বৈঠক ডাকা হয়েছে।

জাতীয়

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে