Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, সোমবার, ২০ জানুয়ারি, ২০২০ , ৭ মাঘ ১৪২৬

গড় রেটিং: 2.9/5 (38 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ১২-২৯-২০১৩

ভারত সফরে ডি’ক্যাপ্রিও

ভারত সফরে ডি’ক্যাপ্রিও

নয়াদিল্লি, ২৯ ডিসেম্বর- প্রথমবার হয়নি৷ দ্বিতীয়বার কিংবা তৃতীয়বারও না৷ প্রত্যেকবারই তাঁর ভক্তকুল আশা করে বসে থেকেছে৷ আর শেষমুহূর্তে খবর এসেছে– আসবেন না৷ এবারও তিনি আসবেন না৷
কিন্তু, চতুর্থবারের ব্যাপারটা একটু আলাদা৷ এবার আর গুজব নয়৷ আন্তর্জাতিক খ্যতিসম্পন্ন অভিনেতার ব্যক্তিগত সচিবের বয়ানও নয়৷ অভিনেতা নিজেই বলেছেন– ভারতে আসছি৷ ভারতের তরুণদের সঙ্গে দেখা করার জন্য মুখিয়ে আছি…৷

বিশেষ গণ্ডগোল না হলে এই শেডিউলের পরিবর্তন হচ্ছে না৷ জানুয়ারির প্রথম সপ্তাহেই ভারতে আসছেন লিওনার্দো ডি’ক্যাপ্রিও৷

যদিও এই নামে তাঁকে চেনেন না অনেকেই৷ ৩৯ বছরের সুঠাম যুবক লিও ভারতীয়দের কাছে এখনও সেই বছর কুড়ির ছটফটে ছেলেটা৷ যার গায়ের রং টকটকে ফরসা৷ কাটা-কাটা চোখ-নাক-ঠোঁট৷ মাঝারি উচ্চতা৷ আর নাম? জ্যাক৷ জ্যাক ডসন৷ দ্য গ্রেট গ্যাটসবি, ইনসেপশন, ক্যাচ মি ইফ ইউ ক্যান, টাইটানিক খ্যাত হলিউড অভিনেতা লিওনার্দো ডি’ক্যাপ্রিওকে এই নামে, এই ভাবেই চেনে ভারতীয় দর্শক৷ লিওনার্দো ডি’ক্যাপ্রিও বা তাঁর লম্বা চওড়া ফিল্মোগ্রাফি নয়, টাইটানিকের নায়ক জ্যাক ডসনকে ভারতীয় দর্শক চেনেন বিশ শতকের ‘রোমিও’ হিসাবে৷

জ্যাকের বোহেমিয়ানা, জীবনকে প্রতি মুহূর্তে উপভোগ করে নেওয়ার দর্শন, আবেগঘন মুহূর্ত -মুগ্ধতা সবকিছুতেই ফিদা ভারত৷ তাই বিদেশি হয়েও হলিউডের লিও পাল্লা দিয়েছেন শাহরুখ-সলমনদের সঙ্গে৷ আর এই জনপ্রিয়তার স্বাদ নিতেই বোধ হয় এতদিনে ভারতে আসতে চলেছেন লিওনার্দো ডি’ক্যাপ্রিও৷

যদিও লিও-র ভারত সংযোগ এখানেই শেষ নয়৷পর্দায় লিও-র গডফাদার আসলে ভারতীয় সিনেমার শাহেনশা–অমিতাভ বচচন৷ সাম্প্রতিক হলিউড ফিল্ম ‘দ্য গ্রেট গ্যাটসবি’তে অমিতাভের সঙ্গে সি্নস্পেস শেয়ার করেছেন ডি’ক্যাপ্রিও৷ কথা ছিল গ্রেট গ্যাটসবির পর ভারতে ঘুরে যাবেন লিওনার্দো৷ কিন্তু, নানা কারণে তা সম্ভব হয়ে ওঠেনি৷ তাই আগেরবারের জন্য ভারতের ভক্তদের ‘sorry’-ও বলেছেন লিও৷ সব ঠিকঠাক চললে আগামী বছরের প্রথম সপ্তাহেই ভারতে আসছেন এই হলিউড অভিনেতা৷ তবে তারও আগে চলে আসছে লিও-র নতুন ছবি ‘দ্য উলফ অফ ওয়ালস্ট্রিট’৷ বড়দিনে ছবিটি মুক্তি পাচ্ছে ভারতে৷ লিও অবশ্য জানিয়েছেন, ছবির প্রচারে নয়, তিনি ভারতে আসছেন আদতে এ দেশের তরুণ ব্যবসায়ীদের সঙ্গে আলাপ জমাতে৷

আসলে লিও-র নতুন ছবি ‘দ্য উলফ অফ ওয়ালস্ট্রিট’ তৈরি হয়েছে এককালের কুখ্যাত ও ধনী স্টকব্রোকার জর্ডন বেলফোর্টের সত্যি ঘটনা অবলম্বনে৷ যিনি ওয়ালস্ট্রিটের এক সামান্য শেয়ার লেনদেনকারী হিসাবে জীবিকা শুরু করলেও বিচক্ষণতা ও ক্ষুরধার বুরি জোরে পৌঁছে গিয়েছিলেন সাফল্যের শিখরে৷ আবার মুখোমুখি হয়েছিলেন ভয়ঙ্কর পতনেরও৷ তাই মুখে প্রচারের কথা না বললেও, লিওর ভারতীয় তরুণ ব্যবসায়ীদের সঙ্গে দেখা করার ইচ্ছে যে এই ছবির কারণেই, তা স্পষ্ট৷

‘দ্য উলফ অফ ওয়ালস্ট্রিট’ একটি জীবনীভিত্তিক ক্রাইম থ্রিলার৷ যা আবর্তিত হয়েছে জর্ডন বেলফোর্ট নামে এক উচচাকাঙক্ষী, নীতিহীন ব্যবসায়ীকে কেন্দ্র করে৷ সাফল্য আর সম্পদের জন্য জালিয়াতি, লোকঠকানো, ঘুষ–কোনও অপরাধই বাদ রাখেননি জর্ডন৷ খ্যতির শীর্ষে পৌঁছতে সব করেছেন৷ তৈরি করেছেন নিজস্ব বাণিজ্যিক সংস্হাও৷ কিন্ত্ত শেষরক্ষা করতে পারেননি৷ স্বপ্ণ, উচ্চাশা আর তার থেকে তৈরি লোভ কীভাবে অপরাধ প্রবণতা ও পতনের পথে টেনে নিয়ে যায় তা-ই নানাভাবে ধরা পড়েছে জর্ডনের বায়োগ্রাফিকাল ক্রাইম থ্রিলারে৷

অস্কার বিজয়ী পরিচালক মার্টিন স্করসেইসের নির্দেশনায় জর্ডনের ভূমিকায় অভিনয় করেছেন লিও৷ এছড়াও অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকায় রয়েছেন জোনা হিল, ম্যাথিউ ম্যাককনাফি, জিন ডুজার্ডিন এবং কাইল শ্যান্ডলার৷

হলিউড

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে