Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, সোমবার, ১০ আগস্ট, ২০২০ , ২৬ শ্রাবণ ১৪২৭

গড় রেটিং: 3.0/5 (20 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৭-১১-২০২০

বর্ষায় চুল পড়া সমস্যায় যা করবেন

বর্ষায় চুল পড়া সমস্যায় যা করবেন

ঋতু হিসেবে বর্ষার সৌন্দর্য অনন্য। এসময় প্রকৃতি যেন আরও বেশি সতেজ হয়ে ওঠে। রিমঝিম বৃষ্টি দেখতে ভালোলাগে না, এমন কাউকে হয়তো পাওয়া যাবে না। কিন্তু প্রাকৃতিক সৌন্দর্য যতই আকর্ষণীয় হোক না কেন, এসময় আমাদের শরীরে নানারকম সমস্যা দেখা দিতে পারে। বিশেষ করে ত্বকে ও চুলে সমস্যা বেড়ে যায়।

বর্ষাকালে সবচেয়ে বেশি চুল পড়া, খুশকি, স্ক্যাল্পে ইনফেকশন, এসব সমস্যা লেগেই থাকে। বর্ষাকালে আবহাওয়া আর্দ্র থাকার জন্য চুল বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়, তাই এই সময় চুলের বিশেষ যত্ন নেয়া খুবই জরুরি। বোল্ডস্কাই জানাচ্ছে এমন কিছু উপায় যা বর্ষাকালে চুল পড়ার সমস্যা কমিয়ে চুল সুন্দর রাখবে-

শ্যাম্পু ব্যবহার
বর্ষাকালে আবহাওয়া স্যাঁতস্যাঁতে হওয়ার কারণে চুলের গোড়া খুব তৈলাক্ত হয়ে যায়। এক্ষেত্রে, সালফেট ফ্রি ক্লিনজার ব্যবহার করুন। শ্যাম্পু করার সময় চুলের গোড়া ভালো করে ঘষুন। সপ্তাহে তিন দিন অবশ্যই শ্যাম্পু করুন।

চুলের গোড়া শুকনো রাখুন
বর্ষাকালে আবহাওয়া গুমোট থাকায় চুলের গোড়া ঘেমে যায়। আর, এই ঘাম থেকেই খুশকি ও চুল পড়া শুরু হয়। তাই চুলের গোড়া সবসময় শুকনো রাখা উচিত।

সিরাম লাগান
এসময় কোঁকড়ানো এবং ওয়েভি চুলের যত্ন নেওয়া খুবই কঠিন হয়ে পড়ে। তাই বর্ষাকালে চুলে সিরাম লাগান। এতে চুলে জট পড়বে না।

ভেজা চুলের ক্ষেত্রে সাবধানতা
বর্ষাকালে ভেজা চুলের বিশেষ যত্ন নিতে হয়। ভেজা চুল বেঁধে রাখা উচিত নয়, কারণ এতে সংক্রমণের ঝুঁকি বেড়ে যায়। খুশকি, উকুনের মতো সমস্যা দেখা যায়। বৃষ্টিতে ভিজে যাওয়ার পরে চুল অবশ্যই শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলতে হবে।

আর্দ্রতা
বৃষ্টির দিনে আবহাওয়া স্যাঁতস্যাঁতে থাকে, যার কারণে কোঁকড়ানো চুল আরও বেশি ঘন মনে হয়। এর কারণ হল, কোঁকড়ানো চুল বাতাসের আর্দ্রতা শোষণ করে নেয়। এক্ষেত্রে আপনার চুলে অবশ্যই কন্ডিশনার লাগান।

সপ্তাহে তিনদিন চুলের যত্ন
সপ্তাহে অন্তত তিন বার চুলে প্যাক ও গোলাপজল এক সাথে মিশিয়ে শ্যাম্পুর পর লাগান। কিছুক্ষণ রেখে তারপর ঠান্ডা পানিতে চুল ধুয়ে নিন। এছাড়া টক দইয়ের সঙ্গে পাতিলেবু ও নিমপাতার রস মিশিয়েও লাগাতে পারেন।

হেয়ার মাস্ক
বর্ষাকালে চুল নিস্তেজ ও প্রাণহীন হয়ে যায়। তাই, চুলের যত্ন নিতে এই মরসুমে হেয়ার মাস্ক লাগানো উচিত। চুলে দই এবং অ্যাভোকাডোর হেয়ার মাস্ক লাগাতে পারেন।

মেথি
চুলের জন্যে মেথি খুবই উপকারী। সারারাত মেথি ভিজিয়ে রেখে পরেরদিন পানিটুকু ছেঁকে নিন। শ্যাম্পু করার পর সব শেষে মেথি ভেজানো পানি দিয়ে চুল ধুয়ে নিন। এতে চুল পড়া, খুশকি দূর হবে এবং চুলের উজ্জ্বলতা বাড়বে।

হেয়ার ড্রায়ার
এই সময়টায় হেয়ার ড্রায়ার ব্যবহার না করাই ভালো, যতটা সম্ভব এড়িয়ে চলবেন।

রূপচর্চা

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে