Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, সোমবার, ১০ আগস্ট, ২০২০ , ২৬ শ্রাবণ ১৪২৭

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৭-০৯-২০২০

দুদকের তালিকার ১৪ ঠিকাদারের সঙ্গে কাজে ‘না’ স্বাস্থ্য অধিদফতরের

দুদকের তালিকার ১৪ ঠিকাদারের সঙ্গে কাজে ‘না’ স্বাস্থ্য অধিদফতরের

ঢাকা, ০৯ জুলাই- দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) তালিকাভুক্ত ১৪ ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানসহ প্রতিষ্ঠানের স্বত্বাধিকারীর সঙ্গে দফতর সংক্রান্ত কোনো কাজে সম্পৃক্ত না হতে নির্দেশনা জারি করেছে স্বাস্থ্য অধিদফতর। দুদকের সুপারিশ মোতাবেক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্যসেবা বিভাগ থেকে নির্দেশের প্রেক্ষিতে অধিদফতর এ নির্দেশনা জারি করে।

বৃহস্পতিবার (৯ জুলাই) স্বাস্থ্য অধিদফতরের পরিচালক (প্রশাসন) ডা. মো. বেলাল হোসেন স্বাক্ষরিত চিঠিতে রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন সরকারি মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল, বিশেষায়িত হাসপাতালের পরিচালক, সিভিল সার্জন ও উপজেলা পর্যায়ের কর্মকর্তাদের এ নির্দেশনা দেয়া হয়।

গত ১২ ডিসেম্বর দুদকের এক চিঠিতে সরকারি অর্থের যথাযথ ব্যবহার নিশ্চিতকরণসহ কার্যক্রমে স্বচ্ছতা এবং দুর্নীতি, প্রতারণা প্রতিরোধকল্পে ১৪ ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ও প্রতিষ্ঠানের স্বত্বাধিকারীদের বিরুদ্ধে অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে রুজুকৃত মামলার তালিকা প্রেরণ করে সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানসহ স্বত্বাধিকারীদের কালো তালিকাভুক্ত করা প্রয়োজন বলে অভিমত ব্যক্ত করা হয়।

ওই চিঠির সূত্র ধরে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য অধিদফতরকে উপরোক্ত নির্দেশনা দেয়া হয়।

যে কারণে কালো তালিকাভুক্ত করা হয় ১৪ প্রতিষ্ঠানকে
রহমান ট্রেড ইন্টারন্যাশনাল এবং রুপা ফ্যাশনের স্বত্বাধিকারী রুবিনা খানমের বিরুদ্ধে সরকারি হাসপাতালে এমএসআর ও ইকুইপমেন্ট ক্রয়ে পাঁচ কোটি ৯০ লাখ ২৮ হাজার ৯২৬ টাকা আত্মসাৎ ও জ্ঞাত-আয়বহির্ভূত ৩১ কোটি ৫০ লাখ টাকা মূল্যের অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে মামলা হয়।

মেসার্স অনিক ট্রেডার্সের স্বত্বাধিকারী আব্দুল্লাহ আল মামুন এবং মেসার্স আহমেদ এন্টারপ্রাইজের স্বত্বাধিকারী মুন্সি ফারুক হোসাইনের বিরুদ্ধে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে যন্ত্রপাতি ক্রয়ের মাধ্যমে ১০ কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে মামলা হয়।

মেসার্স ম্যানিলা মেডিসিন ট্রেডার্সের স্বত্বাধিকারী মঞ্জুর আহমেদ এবং এমএইচ ফার্মার স্বত্বাধিকারী মোসাদ্দেক হোসেন, ছবিটার স্বত্বাধিকারী মো. জয়নাল আবেদীন, মেসার্স আলভিরা ফার্মেসির স্বত্বাধিকারী মো. আলমগীর হোসেন এবং এসএম ট্রেডার্সের স্বত্বাধিকারী মোহাম্মদ মিন্টুর বিরুদ্ধে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে এমএসআর খাতে পাঁচ কোটি ১০ লাখ ৪২ হাজার ৪০৬ টাকা ও পথ্য খাতে তিন কোটি ৫০ লাখ ৭৬ হাজার ৩৩২ টাকা আত্মসাৎসহ বিনা টেন্ডারে ৯ কোটি ৫৩ লাখ ৬২ হাজার ৬৩০ টাকা পাচারের অভিযোগে মামলা হয়।

রহমান ট্রেড ইন্টারন্যাশনালের স্বত্বাধিকারী রুবিনা খানমের বিরুদ্ধে সরকারি ৩৭ কোটি ৫০ লাখ টাকা আত্মসাৎ এবং আত্মসাৎকৃত অর্থ স্থানান্তর রূপান্তরের মাধ্যমে ভোগদখলের অপরাধে মামলা হয়।

মেসার্স মার্কেন্টাইল ট্রেড ইন্টারন্যাশনালের স্বত্বাধিকারী মো. আব্দুস সাত্তার সরকার ও মোহাম্মদ হাসান আরিফ, বেঙ্গল সায়েন্টিফিক অ্যান্ড সার্জিক্যাল কোম্পানির স্বত্বাধিকারী মোহাম্মদ জাহির উদ্দিন সরকার এবং ইউনিভার্সেল ট্রেড করপোরেশনের স্বত্বাধিকারী মোহাম্মদ আসাদুর রহমানের বিরুদ্ধে সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ছয় কোটি ছয় লাখ ৯৯ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে মামলা হয়।

মেসার্স বেঙ্গল সায়েন্টিফিক অ্যান্ড সার্জিক্যাল কোম্পানির স্বত্বাধিকারী মোহাম্মদ জাহির উদ্দিন সরকারের বিরুদ্ধে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালসহ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ১৬ কোটি ৬১ লাখ ৩১ হাজার ৮২৭ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে মামলা হয়। এছাড়া তার বিরুদ্ধে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালেও চার কোটি ৪৮ লাখ ৮৯ হাজার ৩০০ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে মামলা হয়।

বেঙ্গল সায়েন্টিফিক অ্যান্ড সার্জিক্যাল কোম্পানি স্বত্বাধিকারী মোহাম্মদ জাহির উদ্দিন সরকার, মেসার্স আহমদ এন্টারপ্রাইজের স্বত্বাধিকারী মুন্সি ফারুক হোসেন এবং ইএসএল’র ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিইও আফতাব আহমেদের বিরুদ্ধে চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালের নামে বিভিন্ন যন্ত্রপাতি ক্রয়ের মাধ্যমে ৯ কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে মামলা হয়।

ব্লেয়ার এভিয়েশনের স্বত্বাধিকারী মো. মোরশেদুল ইসলামের বিরুদ্ধে পরস্পর যোগসাজশে বর্ধিত অর্থের ৭৪ লাখ ৯৮ হাজার টাকার কোনো কাজ না করে মিথ্যা ব্যয় দেখিয়ে ৮৭ লাখ ৪৯ হাজার ৮২৫ টাকা উত্তোলন করে আত্মসাতের অভিযোগে মামলা হয়।

সূত্র: জাগোনিউজ

আর/০৮:১৪/৯ জুলাই

জাতীয়

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে