Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, শনিবার, ১৮ জানুয়ারি, ২০২০ , ৫ মাঘ ১৪২৬

গড় রেটিং: 2.9/5 (12 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ১২-২৯-২০১১

বাংলাদেশ বুড্ডিষ্ট এসোসিয়েশন অব কানাডা টরন্টোর সংবর্ধনা

বাংলাদেশ বুড্ডিষ্ট এসোসিয়েশন অব কানাডা টরন্টোর সংবর্ধনা
গত ২৫শে ডিসেম্বর ২০১১ বিকেল পাঁচটায় বাংলাদেশ বুড্ডিষ্ট এসোসিয়েশন ক্যানাডা টরন্টো বাংলাদেশী বৌদ্ধ ভিক্ষু ভদন্ত শরনাপালা’র টরন্টো বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পিএইচডি. ডিগ্রী প্রাপ্তি উপলক্ষে বার্মা মহাধাম্বিকা বৌদ্ধ বিহারে এক নাগরিক সংবর্ধনার আয়োজন করে।
বিহারাধ্যক্ষ উ কাবিদা মহাথেরর সভাপতিত্বে বাংলাদেশী বার্মিজ ও শ্রীলংকান ভিক্ষু সংঘ টরন্টো ও পাশ্ববর্তী এলাকা থেকে আগত বাংলাদেশী, শ্রীলংকা ও বার্মিজ কমিউনিটির সদস্যদের উপস্থিতিতে উক্ত সংবর্ধনা সভায় কমিউনিটির বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ ভিক্ষু শরনাপালা মহোদয়ের  পি.এইচ.ডি. ডিগ্রী প্রাপ্তির উপর মুল্যবান বক্তব্য প্রদান করেন।
প্রকৌশলী  অশকাঙ্কুর বড়ুয়ার স্বাগত ভাষনের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের উদ্বোধান করা হয়। পঞ্চশীল প্রার্থনার পর ভিক্ষু শরনাপালাকে ফুলের শুভেচ্ছা সহ প্ল্যাক প্রদান করা হয়। প্ল্যাক প্রদান করেন ফার্মাসিষ্ট কানন বড়ুয়া। এরপর ভদন্ত শরনাপালার  জীবনালেখ্য পাঠ করেন ডাক্তার রুমা চৌধুরী।  ভদন্ত শরনাপালা ১২ বছর বয়সে প্রজ্ঞা গ্রহন করে শ্রীলংকা গমন করেন। এরপর উনি শ্রীলংকা থেকে গ্রাজুয়েশন এবং ‘হ্যামিল্টন ম্যাক মাষ্টার বিশ্ববিদ্যালয়’ থেকে মাষ্টারস ও টরন্টো বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ‘বৌদ্ধ ধর্ম ও বিনয়’ এর উপরে পি.এইচ.ডি. ডিগ্রী অর্জন করেন। ২০০৪ সালে তিনি ক্যানাডিয়ান পার্লামেন্টে বক্তব্য প্রদান করেন।
ভান্তে শরনাপালার পি.এইচ.ডি. ডিগ্রী অর্জন উপলক্ষে তার কৃতিত্বের প্রশংসনীয় বক্তব্য প্রদান করেন। যথাক্রমে ভান্তের দীক্ষাগুরু ও শিক্ষক শ্রীলংকান ভান্তে ভদন্ত মুদিতা মহাথের, বাংলাদেশের অধ্যাপক ভবতোষ চৌধুরী, শ্রীলংকান সাংবাদিক ও সমাজসেবী  এলয় পেরেরা ও সারটেক্স সিসটেমের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান ও সি.ই.ও  প্রকৌশলী জয়দেব সরকার।
এরপর সংবর্ধিত ভদন্ত শরনাপালা তার জ্ঞানগর্ভ ভাষনে বিনম্র ভাবে তার নিষ্ঠা, ধর্ম, কর্ম, শিক্ষকতা এসব বিষয়ের উপর বিস্তারিত আলোকপাত করে উপস্থিত সুধী মন্ডলীকে উদ্ভাসিত করেন।
বার্মিজ বিহারাধ্যক্ষ ভদন্ত উ কাবিদা মহাথেরর সভাপতির ভাষন এবং বাংলাদেশে বুড্ডিষ্ট এসোসিয়েশন অব ক্যানাডার সভাপতি রনট চৌধুরী ধন্যবাদ সুচক বক্তব্য প্রদান করেন।
অনুষ্ঠানের সমাপ্তি হয় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও হালকা জলখাবার পরিবেশনের মাধ্যমে। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে অংশ করেন শ্রাবনী সুচনা, মোনালিসা, অন্তি ও ছোট্ট সোনামনিরা। হালকা  জলখাবারের আয়োজন করেন টরন্টোর বিশিষ্ট বাংলাদেশী ব্যবসায়ী দম্পতি শ্রী অমল সাহা ও শ্রীমতি শর্মিষ্টা সাহা। অনুষ্ঠানের সার্বিক তত্বাবধানের দায়িত্বে ছিলেন বনফুল বড়ুয়া,  সার্বিক সহযোগিতায় ছিলেন অসিত বড়ৃয়া, নিখিল বড়ৃয়া ও কুসুম বড়ুয়া।
(আরও ছবি দেখুন আজকের ছবি এবং ফটো গ্যালারিতে)

কানাডা

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে