Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, মঙ্গলবার, ২১ জানুয়ারি, ২০২০ , ৭ মাঘ ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.3/5 (38 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ১২-২৭-২০১১

সংলাপে যাবে বিএনপি

সংলাপে যাবে বিএনপি
ঢাকা, ডিসেম্বর ২৬ - নতুন নির্বাচন কমিশন গঠনে মত দিতে রাষ্ট্রপতির সংলাপে যোগ দেবে বিএনপির নেতৃত্বাধীন চার দলীয় জোট।

সোমবার রাতে খালেদা জিয়ার সঙ্গে চার দলের নেতাদের বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত হয়।

বৈঠকের পর বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাংবাদিকদের বলেন, “চার দলের বৈঠকে শরিকদের সঙ্গে আলোচনা করেই এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।”

আগামী ১১ জানুয়ারি সংলাপে অংশ নিতে সোমবার বিকেলে রাষ্ট্রপতির কাছ থেকে আমন্ত্রণ পায় বিএনপি। দলটি ইতিমধ্যে বলেছে, রাষ্ট্রপতির আমন্ত্রণ পাওয়ার পর তারা এ সংলাপ নিয়ে আনুষ্ঠানিক প্রতিক্রিয়া জানাবে।

তবে দলটি এও বলে আসছিল, তত্ত্বাবধায়ক সরকার পুনবর্হালের সিদ্ধান্ত হওয়ার পর তারা নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠন বিষয়ে সংলাপে আগ্রহী।

গত ৩০ জুন পঞ্চদশ সংবিধান সংশোধনীর মাধ্যমে বাতিল হয় তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা।

চারদলীয় জোটের শরিক ইসলামী ঐক্যজোটের সঙ্গে আগামী ১ জানুয়ারি এবং এর পরদিন বাংলাদেশ জাতীয় পার্টির (বিজেপি) সঙ্গে সংলাপ করবেন রাষ্ট্রপতি মো. জিল্লুর রহমান। দলগুলোর কাছে ইতিমধ্যে আমন্ত্রণপত্র পৌঁছেছে।

চার দলের অন্যতম শরিক বাংলাদেশ জাতীয় পার্টির (বিজেপি) চেয়ারম্যান আন্দালিব রহমান পার্থ বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের বলেন, “রাষ্ট্রপতির সংলাপের বিষয়বস্তু নিয়ে বৈঠকে বিস্তারিত আলোচনা হয়েছে।”

তবে জামায়াত সংলাপের কোনো আমন্ত্রণ পায়নি বলে জানান মহানগর জামায়াতের সহকারী সেক্রেটারি নুরুল ইসলাম বুলবুল।

ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগকে আগামী ১২ জানুয়ারি সংলাপে অংশ নেওয়ার আমন্ত্রণ জানিয়ে সোমবারই চিঠি দেওয়া হয় রাষ্ট্রপতির পক্ষ থেকে।

বর্তমান নির্বাচন কমিশনের মেয়াদ শেষ হচ্ছে আগামী ফেব্র“য়ারির মাঝামাঝি। এ পরিপ্রেক্ষিতে নতুন নির্বাচন কমিশন গঠন নিয়ে মতামত জানতে রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে গত ২২ ডিসেম্বর সংলাপ শুরু করেন রাষ্ট্রপতি মো. জিল্লুর রহমান।

সোমবার পর্যন্ত দুই দফায় জাতীয় পার্টি (এরশাদ), জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (ইনু), বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টি ও জাতীয় পার্টির (জেপি) সঙ্গে সংলাপ করেছেন রাষ্ট্রপতি।

জোট স¤প্রসারণের সিদ্ধান্ত আগামী বৈঠকে

খালেদা জিয়ার গুলশান কার্যালয়ে রাত ৯টা ২৫ মিনিটে চারদলীয় জোটের বৈঠক শুরু হয়ে চলে ঘণ্টাব্যাপী। বৈঠকে রাষ্ট্রপতির সংলাপের বাইরে চার দলের জোট স¤প্রসারণ, চট্টগ্রামের রোড মার্চ ও লিয়াজোঁ কমিটি গঠন নিয়ে আলোচনা হয়।

মির্জা ফখরুল বলেন, “শিগগিরই চারদলীয় জোটের স¤প্রসারণ হবে। আগামী ২৯ ডিসেম্বর রাতে চার দলের বৈঠকে এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হবে।”

জামায়াতের সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল অধ্যাপক মজিবুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, “আগামী বৈঠকেই কোন কোন দল জোটে অন্তুর্ভুক্ত হবে সে বিষয়ে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।”

খেলাফত মজলিশের আমীর মুহাম্মদ ইসহাক বলেন, “২৯ ডিসেম্বর চার দলের বৈঠকে জোটের নামকরণের বিষয়ে সিদ্ধান্ত হবে।”

খালেদা জিয়ার সভাপতিত্বে বৈঠকে জামায়াতে ইসলামীর নায়েবে আমীর মাওলানা আবদুস সুবহান, সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল অধ্যাপক মজিবুর রহমান, মহানগর সহকারী সেক্রেটারি নুরুল ইসলাম বুলবুল, বিজেপি চেয়ারম্যান আন্দালিব রহমান পার্থ, মহাসচিব শামীম আল মামুন, খেলাফত মজলিশের আমীর অধ্যক্ষ মুহাম্মদ ইসহাক, মহাসচিব অধ্যাপক আহমেদ আবদুল কাদের, ইসলামী ঐক্যজোটের মহাসচিব আবদুল লতিফ নেজামী, যুগ্ম মহাসচিব মুফতি ফয়েজউল্লাহ, জমিয়তে উলামা ইসলামের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা শাহীনুর পাশা চৌধুরী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

চার দলের সর্বশেষ বৈঠক হয় গত ৮ ডিসেম্বর।

প্রয়াত জিয়াউর রহমানের এক সময়ের ঘনিষ্ঠ অবসরপ্রাপ্ত কর্নেল অলি আহমদের গড়া নতুন দল লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টির চারদলীয় জোটে অন্তর্ভুক্তি নিয়ে চলতি মাসেই ঘোষণা আসবে বলে এর আগে বলেছিলেন অলি এবং বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল।

জি-৯ এর মানবাধিকার বিষয়ক প্রামাণ্যচিত্র

বৈঠকের আগে ‘জি-নাইন’ নামে একটি গবেষণা প্রতিষ্ঠানের তৈরি মানবাধিকার বিষয়ক একটি প্রামাণ্যচিত্রের কপি খালেদা জিয়াকে হস্তান্তর করা হয়। এ সময় বিরোধীদলীয় নেতা জি-নাইনের কর্মকর্তাদের নিয়ে ওই প্রামাণ্যচিত্রটি দেখেন।

অনুষ্ঠানে প্রতিষ্ঠানটির সভাপতি এম সাইফুল ইসলাম, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন, এম শামসুল ইসলাম, মির্জা আব্বাস, আবদুল মঈন খান, সহসভাপতি শমসের মবিন চৌধুরী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

জাতীয়

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে