Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, শনিবার, ৬ জুন, ২০২০ , ২২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৩-৩০-২০২০

টাটা’র পর করোনা মোকাবেলায় মুকেশ আম্বানিও দিলেন ৫০০ কোটি

টাটা’র পর করোনা মোকাবেলায় মুকেশ আম্বানিও দিলেন ৫০০ কোটি

নয়াদিল্লী, ৩১ মার্চ- টাটা গ্রুপের পর এবার আম্বানিও। করোনাভাইরাস রুখতে বিপুল আর্থিক সাহায্য নিয়ে এগিয়ে এল দেশের তথা এশিয়ার সবচেয়ে ধনী পরিবার।  ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ‘পিএমকেয়ার্স’ ফান্ডে ৫০০ কোটি টাকা (ভারতীয় রুপি) দিল মুকেশ আম্বানির সংস্থা রিলায়্যান্স ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড (রিল) এবং রিলায়্যান্স ফাউন্ডেশন। 

তার সঙ্গে মহারাষ্ট্র ও গুজরাট সরকারকেও ৫ কোটি টাকা করে দেওয়ার ঘোষণা দেওয়া হয়েছে। এছাড়াও ব্যক্তিগত সুরক্ষা সামগ্রী, মাস্ক ও অন্যান্য সরঞ্জাম দিয়ে এবং সংস্থার গ্রাহকদের নানা পরিষেবার মাধ্যমে করোনা-যুদ্ধে রিলায়্যান্স শামিল হয়েছে বলে সোমবার একটি বিবৃতিতে জানিয়েছে।

ওই বিবৃতিতেই সংস্থার চেয়ারম্যান ও ডিরেক্টর মুকেশ আম্বানি বলেছেন, ‘আমরা আত্মবিশ্বাসী যে করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে যুদ্ধে আমরা দেরিতে নয়, আগেই জিতব। এই সঙ্কটের সময় গোটা রিলায়্যান্স ইন্ডাস্ট্রিজ পরিবার দেশবাসীর সঙ্গে আছে এবং কোভিড-১৯ এর বিরুদ্ধে যুদ্ধে জিততে সব রকম প্রচেষ্টা চালাবে।’

অন্য দিকে রিলায়্যান্স ফাউন্ডেশনের চেয়ারপার্সন তথা মুকেশ আম্বানির স্ত্রী নীতা অম্বানি বলেছেন, ‘কোভিড-১৯ এর বিরুদ্ধে দেশবাসী এক হয়ে লড়াই করছে। রিলায়্যান্স ফাউন্ডেশনের আমরা সবাই দেশবাসীর সঙ্গে আছি। বিশেষ করে যারা সামনের সারিতে দাঁড়িয়ে লড়াই করছেন, তাদের প্রতি আমাদের সম্পূর্ণ সমর্থন রয়েছে। আমাদের চিকিৎসক ও কর্মীরা দেশের প্রথম করোনা হাসপাতাল তৈরি করেছে। স্ক্রিনিং, টেস্ট, প্রতিরোধ এবং চিকিৎসায় তারা সরকারকে সব রকম সাহায্য করবেন।’ নীতা আরও বলেছেন, ‘এই সময় সবচেয়ে বেশি দরকার গরীব, দিনমজুরদের পাশে দাঁড়ানো। আমাদের খাদ্য-বিলি কর্মসূচিতে দেশের লক্ষ লক্ষ মানুষকে খাওয়াচ্ছি আমরা।’

করোনাভাইরাসের মোকাবিলায় অর্থভাণ্ডার গড়ে তুলতে ‘পিএমকেয়ার্স’ নামে একটি ফান্ড চালু করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সেই তহবিলে যে কেউ অর্থসাহায্য করতে পারেন। ওই তহবিল গঠনের পর থেকেই তাতে সাহায্য করছেন সমাজের সব শ্রেণির মানুষ। বলিউড তারকা থেকে শুরু করে রাজনীতিবিদ, খেলোয়াড়, ব্যবসায়ী অনেকেই ওই তহবিলে অর্থ জমা করছেন। সেই তালিকায় এবার নাম লেখাল মুকেশ আম্বানির সংস্থা। এর আগে শনিবারই প্রধানমন্ত্রীর তহবিলে ৫০০ কোটি টাকা দানের ঘোষণা দিয়েছে টাটা গোষ্ঠীও।

সূত্র : আনন্দবাজার পত্রিকা
এম এন  / ৩১ মার্চ

দক্ষিণ এশিয়া

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে