Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, মঙ্গলবার, ৭ এপ্রিল, ২০২০ , ২৪ চৈত্র ১৪২৬

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০২-১৬-২০২০

ইশারা ভাষায় উৎসাহিত করতে গ্রামীণফোনের বিশেষ উদ্যোগ

ইশারা ভাষায় উৎসাহিত করতে গ্রামীণফোনের বিশেষ উদ্যোগ

ঢাকা, ১৭ ফেব্রুয়ারি - শ্রবণ ও বাকপ্রতিবন্ধীদের সঙ্গে যোগাযোগের জন্য সবাইকে ইশারা ভাষা শিখতে উৎসাহিত করতে বিশেষ উদ্যোগ গ্রহণ করেছে গ্রামীণফোন। প্রতিষ্ঠানটি আজ রোববার রাজধানীর ওয়েস্টিন হোটেলে সাইন-লাইন ডিজিটাল কেয়ার উদ্বোধন করে। শ্রবণ ও বাকপ্রতিবন্ধীদের জন্য এ ডিজিটাল কেয়ারে সেবাও প্রদান করবেন শ্রবণ ও বাক্‌প্রতিবন্ধী ব্যক্তিরা।

গ্রামীণফোন এ উদ্যোগের প্রতিপাদ্য ঠিক করেছে ‘কথাগুলো হারিয়ে না যাক শব্দের অভাবে’। এ উদ্যোগের মাধ্যমে গ্রামীণফোন নিজেদের ওয়েবসাইট ও সেলফ সার্ভিস ডিজিটাল কেয়ার অ্যাপ মাইজিপিতে ইশারা ভাষা ভিত্তিক গ্রাহকসেবা চালু করেছে। এ ছাড়া এ ক্যাম্পেইনের মাধ্যমে ইশারা ভাষা বিশেষজ্ঞ আরাফাত সুলতানার প্রশিক্ষণে গ্রামীণফোনের ইউটিউব চ্যানেলে ইশারা ভাষার ভিডিও টিউটোরিয়াল আপলোড করা হয়েছে। এটি আগ্রহীদের ইশারা ভাষা শিখতে প্রাথমিক সহায়তা করবে এবং কথা বলতে ও শুনতে না পারা প্রিয়জনদের সঙ্গে যোগাযোগ করতে সুযোগ করে দেবে।

এক বিজ্ঞপ্তিতে গ্রামীণফোন বলেছে, শ্রবণ ও বাক্‌প্রতিবন্ধী মানুষের যোগাযোগের মাধ্যম ইশারা ভাষা অনেকেরই অজানা। গ্রামীণফোনের এ উদ্যোগ মূল ভাষার মতো এ ভাষার গুরুত্বকে সমাজে সবার সামনে নিয়ে আসতে সহায়তা করবে।

অনুষ্ঠানে সমাজের প্রতি গ্রামীণফোনের দায়িত্ববোধের কথা উল্লেখ করে প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী ইয়াসির আজমান বলেন, ‘সমাজের প্রতিটি মানুষের কাছে যোগাযোগ প্রযুক্তি অন্তর্ভুক্তির সুবিধা পৌঁছানো উচিত। গ্রামীণফোন এখন ৭ কোটি ৬৫ লাখ গ্রাহকের পরিবার। আমাদের দায়িত্ব হলো আমাদের নেটওয়ার্কে সবাইকে সমানভাবে সেবা প্রদান করা।’

গ্রামীণফোন বলছে, বাংলাদেশে লাখো শ্রবণ ও বাক্‌প্রতিবন্ধী থাকলেও ইশারা ভাষা শেখার যথেষ্ট সুযোগ নেই। যে কারণে বাকিদের সঙ্গে তাঁরা ঠিকভাবে যোগাযোগ করতে পারেন না। ইয়াসির আজমান বলেন, ‘আমরা আমাদের ভাষায় একে অন্যের সঙ্গে যোগাযোগ করছি। কিন্তু অসমতা দূর করতে হলে একটি অন্তর্ভুক্তিমূলক সমাজে যারা কথা বলতে পারেন না এবং কথা শুনতে পান তাঁদের জন্যও যোগাযোগের ব্যবস্থা থাকতে হবে।’

অনুষ্ঠানে ইশারা ভাষা বিশেষজ্ঞ আরাফাত সুলতানার নেতৃত্বে একুশের গান ‘আমার ভাইয়ের রক্তে রাঙানো’ ইশারা ভাষায় পরিবেশন করা হয়। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন গ্রামীণফোনের প্রধান বিপণন কর্মকর্তা সাজ্জাদ হাসিব, হেড অব মার্কেটিং নাফিস আনোয়ার চৌধুরী, হেড অব কমিউনিকেশনস খায়রুল বাশার এবং অভিনেতা ও শিল্পী তাহসান খান।

সূত্র : প্রথম আলো
এন এইচ, ১৭ ফেব্রুয়ারি

জাতীয়

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে