Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, সোমবার, ১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ , ৫ ফাল্গুন ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.0/5 (10 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০১-১৮-২০২০

প্রধানমন্ত্রীকে আরেকটা সুযোগ দিলেন প্রেসিডেন্ট

প্রধানমন্ত্রীকে আরেকটা সুযোগ দিলেন প্রেসিডেন্ট

কিয়েভ, ১৮ জানুয়ারি - ইউক্রেনের প্রধানমন্ত্রী ওলেকসি হনচারুকের পদত্যাগপত্র অনুমোদন করেননি প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি। বরং তাকে দ্বিতীয় দফা সুযোগ দিয়ে প্রধানমন্ত্রী হিসাবে কাজ করে যাওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন।

গত মাসে একটি অডিও ক্লিপ ফাঁস হওয়ার ঘটনায় জেলেনস্কির সঙ্গে বিরোধের জের ধরে শুক্রবার প্রেসিডেন্টের কাছে পদত্যাগপত্র পাঠিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী ওলেকসি। কিন্তু প্রেসিডেন্ট তার পদত্যাগপত্র অনুমোদন করেননি।

যদিও এর আগে প্রেসিডেন্ট প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগপত্রটি বিবেচনা করা দেখবেন বলে জানিয়েছিলেন।

শুক্রবার এ নিয়ে দিনভর বৈঠকের পর প্রেসিডেন্ট জেলোনস্কি প্রধানমন্ত্রীকে ডেকে বলেন, ‘আমি আপনাকে এবং আপনার সরকারকে আরেকটি সুযোগ দিতে চাই। যাতে করে দেশের গুরুত্বপূর্ণ অর্থনীতি ও সামাজিক ইস্যুতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে পারেন। দেশের অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক পরিবর্তনের এটি সঠিক সময় নয়।’

এসময় ফাঁস হওয়া ওই ভিডিও টেপটি কে রেকর্ড করেছে আগামী দু সপ্তাহের মধ্যে তা খুঁজে বের করারও নির্দেশ দেন প্রেসিডেন্ট জেলনস্কি।

দিন কয়েক আগে দেশের চলমান মুদ্রাস্ফীতি সঙ্কট নিয়ে ইউক্রেনের ন্যাশনাল ব্যাংকের কর্মকর্তাদের সঙ্গে একটি নিয়মিত বৈঠকে মিলিত হয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী ওলেকসি। সেখানে বেশ কয়েকজন মন্ত্রীও উপস্থিত ছিলেন। ইউক্রেনের সরকারি ওয়েবসাইডে ওই বেঠকের খবর প্রকাশিত হওয়ার মাত্র একদিন পরেই প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ করার ঘোষণা দেন ওলেকসি।

এর এক মাস আগে ন্যাশনাল ব্যাংকের উর্ধ্বতনদের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর বৈঠকের একটি অডিও টেপ অনলাইনে ফাঁস হয়েছিলো। সেখানে দেশের অর্থনৈতিক দুর্দশার জন্য প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কিকে দায়ী করে প্রধানমন্ত্রী ওলেকসিকে বক্তব্য রাখতে দেখা যায়। এছাড়া ব্যক্তিগতভাবেও ওলেকসি মনে করতেন, প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি ইউক্রেনের মুদ্রার মান কমে যাওয়া সম্পর্কে তেমন কিছু জানেন না বলেই ব্যবস্থা নিতে পারছেন না। মুদ্রাস্ফিতির কারণে দেশের রপ্তানি খাদে ধাস নেমেছে এবং কর আয় অনেক কমে গেছে।

প্রধানমন্ত্রী মনে করেন, জেলেনস্কি অর্থনীতি সম্পর্কে যেসব ধারণা পোষণ করেন সেগুলো খুবই পুরানো ও অচল।

ফাঁস হওয়া ওই অডিওতে দেয়া বক্তব্য সম্পর্কে স্বীকার বা অস্বীকার কোনোটাই করেননি ওলেকসি। প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কিও এ নিয়ে প্রকাশ্যে কোনো মন্তব্য করেননি। তবে তিনি যে ভিতরে ভিতরে প্রধানমন্ত্রীর প্রতি নাখোশ হয়েছিলেন সেটি স্পষ্ট। ওই অডিও ফাঁস হওয়ার মাত্র এক মাস পরেই ক্ষমতা থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দেন প্রধানমন্ত্রী ওলেকসি।

সূত্র : বাংলাদেশ জার্নাল
এন এইচ, ১৮ জানুয়ারি

ইউরোপ

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে