Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, মঙ্গলবার, ১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ , ৬ ফাল্গুন ১৪২৬

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০১-১৩-২০২০

হকি ফেডারেশনকে অভয় দিলেন ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী

হকি ফেডারেশনকে অভয় দিলেন ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী

ঢাকা, ১৪ জানুয়ারি- সময় হাতে নেই পাঁচ মাসও। জুনের ৪ তারিখ ঢাকায় শুরু হবে বঙ্গবন্ধু এএইচএফ অনূর্ধ্ব-২১ হকি চ্যাম্পিয়নশিপ। বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীর কর্মসূচির অংশ হওয়ায় এশিয়ান হকি ফেডারেশনের কাছ থেকে টুর্নামেন্টের টাইটেল স্পন্সরের স্বত্ব কিনে নিয়েছে বাংলাদেশ। এ জন্য এশিয়ান হকি ফেডারেশনকে দিতে হবে ১ লাখ ৩০ হাজার মার্কিন ডলার। এর মধ্যে ১ লাখ মার্কিন ডলার অগ্রীম হিসেবে দিতে হবে ২৩ ফেব্রুয়ারি টুর্নামেন্ট নিয়ে এশিয়ান হকি ফেডারেশন ও বাংলাদেশ হকি ফেডারেশনের মধ্যে সমঝোতা স্মারক চুক্তি অনুষ্ঠানে।

এই চুক্তি স্বাক্ষর করতে ২২ ফ্রেব্রুয়ারি ঢাকা আসছেন এশিয়ান হকি ফেডারেশনের সিইও তৈয়ব ইকরাম। ২৩ ফেব্রুয়ারি প্যানপ্যাসেফিক সোনারগাঁও হোটেলে চুক্তি স্বাক্ষর হওয়ার পরের দুদিন তৈয়ব ইকরামসহ এশিয়ান হকি ফেডারেশনের অন্য কর্মকর্তারা পরিদর্শন করবেন মওলানা ভাসানী স্টেডিয়াম। যেখানে ৪ থেকে ১২ জুন অনুষ্ঠিত হবে এই টুর্নামেন্ট।

টুর্নামেন্টের ভেন্যুতে বেশকিছু উন্নয়নমূলক কাজ করতে হবে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে। এর মধ্যে প্রধান দুটি কাজ হচ্ছে ড্রেসিংরুম এবং মিডিয়া সেন্টারের উন্নতি করা। কনফারেন্স রুমসহ কিছু কাজও করতে হবে টুর্নামেন্টের আগে।

এসব নিয়ে আলোচনা করতেই আজ (সোমবার) বাংলাদেশ হকি ফেডারেশনের কর্মকর্তারা সাক্ষাৎ করেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল এমপির সঙ্গে। ফেডারেশনের সিনিয়র সহসভাপতি আবদুর রশিদ শিকদার এবং ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ইউসুফ আলীর নেতৃত্বে ফেডারেশনের কর্মকর্তারা ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করে টুর্নামেন্টের প্রস্তুতির সর্বশেষ অবস্থা উপস্থাপন করেন এবং স্টেডিয়ামের প্রয়োজনীয় সংস্কার কাজগুলো দ্রুত সম্পন্নের উদ্যোগ নেয়ার আহ্বান জানান।

‘আমরা ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করতে গিয়েছিলাম। উদ্দেশ্য আগামী জুনের জুনিয়র এশিয়া কাপ নিয়ে আলোচনা। আগামী মাসে এশিয়ান হকি ফেডারেশনের সিইও আসছেন। ২৩ ফেব্রুয়ারি চুক্তি হবে। ওই সময় ১ লাখ মার্কিন ডলার তাদের দিতে হবে। টুর্নামেন্টেটি বঙ্গবন্ধুর নামে করার জন্য আমরা তাদের দেব মোট ১ লাখ ৩০ হাজার মার্কিন ডলার। এর বাইরেও স্টেডিয়াম সংস্কারের কিছু কাজ আছে। সেগুলো দ্রুত করে দেয়ার জন্যই মন্ত্রীকে আমরা অনুরোধ করেছি’ বলেছেন বাংলাদেশ হকি ফেডারেশনের সিনিয়র সহসভাপতি আবদুর রশিদ শিকদার।

ফেডারেশনের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী আমাদের সামনেই জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের সংশ্লিষ্ট বিভাগকে স্টেডিয়াম সংস্কার করে দেয়ার প্রয়োজনী ব্যবস্থা নেয়ার নির্দেশ দিয়েছেন। আশা করি, আগামী দু-একদিনের মধ্যে জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ সব কিছু দেখে প্রয়োজনীয় সংস্কারের কাজ শুরু করবেন। তিনি আমাদের আশ্বাস দিয়েছেন সময় মতোই সবকিছুই হয়ে যাবে।’

সূত্র: জাগোনিউজ

আর/০৮:১৪/১৪ জানুয়ারি

অন্যান্য

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে