Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, সোমবার, ২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ , ১২ ফাল্গুন ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.0/5 (5 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০১-০১-২০২০

ফজলে রশীদ সম্মাননা পেলেন সাংবাদিক মাহবুবুর রহমান

শেলী জামান খান


ফজলে রশীদ সম্মাননা পেলেন সাংবাদিক মাহবুবুর রহমান

নিউইয়র্ক, ১ জানুয়ারি- নিউইয়র্ক-বাংলাদেশ প্রেসক্লাব প্রবর্তিত মরহুম ফজলে রশীদ সম্মাননা পেয়েছেন প্রথম আলো উত্তর আমেরিকার লেখক ও সাংবাদিক মাহবুবুর রহমান।

২৮ ডিসেম্বর প্রেসক্লাবের নতুন কমিটির অভিষেক অনুষ্ঠানে তাঁকে এই সম্মাননা দেওয়া হয়।

সংগঠনের সভাপতি ওয়াজেদ খানের সভাপতিত্বে ২০১৯ সালের অভিষেক অনুষ্ঠানের সঞ্চালনায় ছিলেন শেখ সিরাজ ও সাদিয়া খন্দকার।

অনুষ্ঠান মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন প্রবীণ সাংবাদিক মনজুর আহমেদ, আনোয়ার হোসেন মঞ্জু, মঈন উদ্দিন নাসের, মাহবুবুর রহমান, আবু তাহের, নিনি ওয়াহেদ, অ্যাটর্নি মঈন চৌধুরী, চৌধুরী সরোয়ার হাসান, নিউইয়র্কে বাংলাদেশ কনসালের ফার্স্ট সেক্রেটারি শামীম হোসেন, শিল্পপতি জহিরুল ইসলাম প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে নির্বাচন কমিশনার মনজুর আহমেদ সবার সঙ্গে নতুন কমিটির সদস্যদের পরিচয় করিয়ে দেন। কমিটির অভিষিক্ত সদস্যরা হলেন-সভাপতি ওয়াজেদ এ খান, সহসভাপতি হাবিব রহমান, সাধারণ সম্পাদক মনোয়ারুল ইসলাম, সহসাধারণ সম্পাদক আলমগীর সরকার, অর্থ সম্পাদক মমিনুল ইসলাম মজুমদার, সাংগঠনিক সম্পাদক রশীদ আহমেদ, প্রচার সম্পাদক সৈয়দ ইলিয়াস খসরু, নির্বাহী সদস্য শেখ সিরাজুল ইসলাম, এ বি এম সালাহ উদ্দীন আহমেদ, হাসানুজ্জামান সাকী, মোহাম্মদ সোহেল মাহমুদ ও শিবলী চৌধুরী।

অনুষ্ঠানে সাংবাদিক মাহবুবুর রহমানকে মরহুম ফজলে রশীদ সম্মাননা দেওয়া হয়। সম্মাননা পাওয়ার প্রতিক্রিয়ায় মাহবুবুর রহমান বলেন, ‘আমি অভিভূত। জীবনে চেষ্টা করেছি সাংবাদিকতার মর্যাদা ঊর্ধ্বে রাখার জন্য। আজকের এ দিনে আমি সহকর্মীদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি।’

৭৩ সাল থেকে সাংবাদিকতা শুরু করার কথা উল্লেখ করে মাহবুবুর রহমান বলেন, তিনি এখনো সাংবাদিকতা করছেন। জীবনের বাকি সময় সাংবাদিকতার মহান পেশাকে সম্মানিত করার কাজে ব্রতী থাকবেন বলে তিনি উল্লেখ করেন।

ষাটের দশকে ‘সাপ্তাহিক যুগভেরী’ ও ঢাকার দৈনিক ‘পূর্বদেশ’-এ লেখালেখি শুরু করেন মাহবুবুর রহমান। ১৯৭৩ সালের জুনে ‘যুগভেরীতে’ প্রুফ রিডার হিসেবে কর্মজীবন শুরু। ছয় মাস পর সহসম্পাদক ও ১৯৮৫ সালের সেপ্টেম্বর থেকে ১৯৮৯ সালে যুক্তরাষ্ট্রে আসার আগ পর্যন্ত পত্রিকাটির ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক ছিলেন। ‘যুগভেরী’র সম্পাদক ছিলেন সিলেটের মরহুম আমিনুর রশীদ চৌধুরী। সে সময় ইউনেসকোর অধীন এশিয়ান মাস কমিউনিকেশন এশিয়ার পাঁচটি পত্রিকাকে ‘সাকসেসফুল কমিউনিটি নিউজ পেপার’ হিসেবে স্বীকৃতি দেয়। ‘যুগভেরী’ তার একটি।

মাহবুবুর রহমান ১৯৭৪ সাল থেকে ১৯৭৯ সাল পর্যন্ত ঢাকার দৈনিক ‘সংবাদ’-এর নিজস্ব বার্তা পরিবেশক (স্টাফ রিপোর্টার) হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৭৮ সালে সিলেট প্রেসক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য ও সাধারণ সম্পাদক ছিলেন।

১৯৯০ সালে নিউইয়র্কে ‘সাপ্তাহিক ঠিকানা’র সঙ্গে জড়িত হয়ে শুরু হয় তাঁর প্রবাস সাংবাদিকতা। তিনি ‘ঠিকানা’র নির্বাহী সম্পাদক ছিলেন। এরপর ‘সাপ্তাহিক বাঙ্গালী’র অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা ও নির্বাহী সম্পাদক ছিলেন। ১৯৯৬ সালে সাপ্তাহিক বাংলা পত্রিকার প্রতিষ্ঠাতা সম্পাদক ছিলেন। প্রায় ১৩ বছর বাংলা পত্রিকা সম্পাদনার পর অবসরে যান। অবসরে যাওয়ার পর ‘সাপ্তাহিক নিউইয়র্ক’ নামে একটি পত্রিকা প্রকাশ করলেও অসুস্থতার কারণে কয়েক মাস পর প্রকাশনা বন্ধ করে দেন। বর্তমানে প্রথম আলো উত্তর আমেরিকায় নিয়মিত কলাম ও ফিচার লিখে থাকেন। মাহবুবুর রহমান নিউইয়র্ক-বাংলাদেশ প্রেসক্লাবের প্রথম সভাপতি। তিনি নিউইয়র্কের অন্যতম বৃহত্তর সামাজিক সংগঠন জালালাবাদ অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ছিলেন।

অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন আবু তাহের, নাজমুল আহসান, মোহাম্মদ সাঈদ, রতন তালুকদার, মুশফিকুল আনসারী, ইব্রাহিম চৌধুরী, কাজী শামসুল হক, শাহাব উদ্দিন সাগর, জয়নাল আবেদীন, নার্গিস আহমেদ, শাহ নেওয়াজ, ফখরুল ইসলাম দেলওয়ার, মেরী জোবায়দা, জয় চৌধুরী, রুহুল আমিন সিদ্দিকী, কাজী আশরাফ হোসেন নয়ন, এ্যানি ফেরদৌস, আবদুর রব, জসিম উদ্দিন ভূঁইয়া, নাসির আলী খান, আল আমীন রাসেল, আবদুর রহিম হাওলাদার প্রমুখ।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে অ্যাটর্নি মঈন চৌধুরী বলেন, নতুন প্রজন্মের আমেরিকানদের নিয়ে এখানকার সংবাদমাধ্যম আরও এগিয়ে যাবে। এ জন্য সব ধরনের সাহায্য সহযোগিতার আশ্বাস দেন তিনি।

অনুষ্ঠানের শেষ পর্বে ছিল কবিতা আর সংগীত। কবিতা আবৃত্তি করেন দিমা নেফারতিথি, সংগীত পরিবেশন করেন শাহ মাহবুব ও রোকসানা মির্জা।

সূত্র: প্রথম আলো

আর/০৮১৪/০১ জানুয়ারি

মিডিয়া

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে