Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, বৃহস্পতিবার, ২৩ জানুয়ারি, ২০২০ , ১০ মাঘ ১৪২৬

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ১২-১২-২০১৯

শিক্ষার্থীদের প্রযুক্তির দিকে নিয়ে যাওয়াই বর্তমান সরকারের লক্ষ্য

শিক্ষার্থীদের প্রযুক্তির দিকে নিয়ে যাওয়াই বর্তমান সরকারের লক্ষ্য

সিলেট, ১৩ ডিসেম্বর - পরিকল্পনামন্ত্রী এমএ মান্নান বলেছেন, বর্তমান সরকারের লক্ষ্য হচ্ছে ন্যূনতম ৪০ ভাগ শিক্ষার্থীকে প্রযুক্তিগত শিক্ষার দিকে নিয়ে যাওয়া। সেই লক্ষ্যে দেশের বিভিন্ন স্থানে অনেকগুলো প্রযুক্তিগত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান গড়ে উঠেছে।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় সিলেট চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির উদ্যোগে মেধাবী শিক্ষার্থীদের বৃত্তিপ্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। সিলেট জেলার প্রতিটি উপজেলার তিনটি করে স্কুল ও একটি করে মাদরাসা থেকে গত বছরের পিএসসি পরীক্ষায় কৃতিত্বপূর্ণ সাফল্য অর্জনকারী মোট ৪৮ জন শিক্ষার্থীকে এ বৃত্তি প্রদান করা হয়।

ব্যবসা-বাণিজ্যের উন্নয়নের পাশাপাশি শিক্ষার বিকাশে সিলেট চেম্বার অব কমার্সের বৃত্তি কর্মসূচি অত্যন্ত প্রশংসনীয় উদ্যোগ মন্তব্য করে মন্ত্রী বলেন, আমাদের যার যার অবস্থান থেকে শিক্ষার বিকাশে কাজ করে যেতে হবে।

চেম্বার কনফারেন্স হলে সিলেট চেম্বারের সভাপতি আবু তাহের মো. শোয়েবের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ কম্পিউটার সমিতির সভাপতি শহিদ উল মুনীর। বক্তব্য রাখেন সিলেটের কাস্টমস এক্সাইজ অ্যান্ড ভ্যাট কমিশনারেট কমিশনার গোলাম মোহাম্মদ মুনীর, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) নাছির উল্লাহ্ খান, সিলেট চেম্বারের সিনিয়র সহ-সভাপতি চন্দন সাহা, সহ-সভাপতি তাহমিন আহমদ ও বৃত্তি সাব কমিটির আহ্বায়ক মো. সাহিদুর রহমান।

সভাপতির বক্তব্যে সিলেট চেম্বার অব কমার্সের সভাপতি আবু তাহের মো. শোয়েব বলেন, প্রাথমিক শিক্ষাই হলো শিক্ষার ব্যবস্থার মূলভিত্তি। কেবলমাত্র শিক্ষার মাধ্যমেই দেশের বিপুলসংখ্যক জনগোষ্ঠীকে দক্ষ মানবসম্পদে রূপান্তরিত করে উন্নয়নের মূলধারায় সম্পৃক্ত করা সম্ভব।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ সরকারের সময়োপযোগী পদক্ষেপের ফলে প্রায় শতভাগ শিশুকে প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ভর্তি করানো সম্ভব হচ্ছে। বর্তমান সরকারের আমলে শিক্ষাখাতে যে সাফল্য অর্জিত হয়েছে তা পূর্বের যেকোনো সময়ের চেয়ে অনেক বেশি।

অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন সিলেট চেম্বারের সিনিয়র অফিসার মিনতি দেবী। উপস্থিত ছিলেন সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি মাসুক উদ্দিন আহমদ, সিলেট চেম্বারের প্রাক্তন সিনিয়র সহ-সভাপতি এম. মুহিবুর রহমান, পরিচালক মো. এমদাদ হোসেন, পিন্টু চক্রবর্তী, আব্দুর রহমান, মো. আব্দুর রহমান (জামিল), হুমায়ুন আহমদ, ওয়াহিদুজ্জামান চৌধুরী (রাজিব), আমিনুজ্জামান জোয়াহির, বৃত্তি সাব কমিটির যুগ্ম আহ্বায়ক ও সিলেট চেম্বারের প্রাক্তন পরিচালক এনামুল কুদ্দুছ চৌধুরী, প্রাক্তন পরিচালক মুকির হোসেন চৌধুরী, মো. বশিরুল হক, সদস্য আব্দুল হান্নান সেলিম প্রমুখ।

সূত্র : জাগো নিউজ
এন এইচ, ১৩ ডিসেম্বর

সিলেট

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে