Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, রবিবার, ১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ , ৪ ফাল্গুন ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.0/5 (5 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ১১-২৭-২০১৯

ভারতীয় উপগ্রহ এবার শত্রুর হাতের বন্দুকও খুঁজে দেবে!

ভারতীয় উপগ্রহ এবার শত্রুর হাতের বন্দুকও খুঁজে দেবে!

নয়াদিল্লী, ২৭ নভেম্বর -  আরও এক সাফল্যের মুখোমুখি ভারত। সফল উৎক্ষেপণ হল কার্টোস্যাট-থ্রি। বুধবার সকালে ভারতের অন্ধ্রপ্রদেশের শ্রীহরিকোটায় সতীশ ধাওয়ান স্পেস সেন্টার থেকে সফলভাবে উৎক্ষেপণ করা হয় অত্যাধুনিক এই রকেট। বুধবার সকাল থেকেই শুরু হয় কাউন্টডাউন। ঠিক ৯টা বেজে ২৮ মিনিটে (ভারতীয় সময়) সফলভাবে মহাকাশের উদ্দেশে পাড়ি দেয় কার্টোস্যাট-থ্রি।

বুধবার সকাল ৯.২৮ মিনিটে মহাকাশের উদ্দেশে এটি রওনা দেয়। পোলার স্যাটেলাইট লঞ্চ ভেহিকেল বা পিএসএলভি সি ৪৭ রকেট ব্যবহার করে এই কৃত্রিম উপগ্রহটি উৎক্ষেপণ করল ভারতীয় মহাকাশ গবেষণা সংস্থা (ইসরো)। এটি শ্রীহরিকোটা থেকে ৭৪তম লঞ্চ ভেইকল বলে জানা গিয়েছে। সীমান্ত পাহারা দিতে কৃত্রিম উপগ্রহের সাহায্য নেবে ভারত। মহাকাশ গবেষণা সংস্থা ইসরো এমন স্যাটেলাইট নিয়ে কাজ করছিল। যার মধ্যে অন্যতম হলো কার্টোস্যাট-থ্রি। ২৭ নভেম্বর এটি মহাকাশে পাঠাল ইসরো।
 
কার্টোস্যাট-৩ উন্নতমানের। আবহাওয়ার গতিপ্রকৃতি থেকে দেশের প্রতিরক্ষার কাজেও ব্যবহার করা যাবে এই কৃত্রিম উপগ্রহ। অতিসূক্ষ্ম বস্তু এর হাইরেজোলিউশন লেন্সে বন্দী হবে। কাজেই সীমান্তের ওপারে ঘাঁটি বা বাঙ্কার, যেকোন আড়ালে লুকিয়ে থাকা সুড়ঙ্গগুলো সহজেই ধরা দেবে এর ক্যামেরায়। এমনকি বন্দুকের মতো অস্ত্রশস্ত্রও দেখা সম্ভব হবে।

অন্যদিকে, ২০২০ সাল থেকে জোরকদমে আরও তিন ঐতিহাসিক লক্ষ্যের পথে পা বাড়াবে ভারতের মহাকাশ গবেষণা সংস্থা। চাঁদের পরে সূর্য অভিযানে নামবে ভারতীয় মহাকাশ গবেষণা সংস্থা। ইসরো জানিয়েছে, আমেরিকা থেকে এই তেরোটি কৃত্রিম উপগ্রহ পাঠানোর কাজটি মহাকাশ বিভাগের আওতায় নতুন কোম্পানি নিউ স্পেস ইন্ডিয়ার তত্ত্বাবধানে হয়েছে। পৃথিবীর কক্ষপথে সম্পূর্ণ দেশীয় প্রযুক্তিতে তৈরি স্পেস স্টেশন বানানোর কাজও শুরু হবে।

সূত্র : বিডি-প্রতিদিন
এন এইচ, ২৭ নভেম্বর

দক্ষিণ এশিয়া

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে