Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, বুধবার, ১৩ নভেম্বর, ২০১৯ , ২৯ কার্তিক ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.0/5 (5 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ১০-১৫-২০১৯

হটলাইন চালুর অগ্রগতি : দুই মাস সময় চায় ভোক্তা অধিদফতর

হটলাইন চালুর অগ্রগতি : দুই মাস সময় চায় ভোক্তা অধিদফতর

ঢাকা, ১৫ অক্টোবর - খাদ্যপণ্যসহ অন্য পণ্যের মানের বিষয়ে ভোক্তাদের সার্বক্ষণিক (২৪ ঘণ্টা) সেবা দিতে হটলাইন চালুর বিষয়ে হাইকোর্টে অগ্রগতি প্রতিবেদন দাখিল করেছে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতর। এ সময় তারা হটলাইন চালুর জন্য দুই মাস সময় চেয়েছে। আদালত আবেদন মঞ্জুর করে ১৭ ডিসেম্বর পরবর্তী দিন ঠিক করেছেন।

অগ্রগতি প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, হট লাইন চালুর জন্য প্রয়োজনীয় অর্থ বরাদ্দ পেয়ে ইতোমধ্যে দরপত্র আহ্বান করা হয়েছে। এখন আইন অনুযায়ী দরপত্র প্রক্রিয়ার কাজ শেষ করে হটলাইন স্থাপন ও চালু করা হবে। এ বিষয়ে অগ্রগতি প্রতিবেদন দাখিল এবং আদেশের জন্য ১৭ ডিসেম্বর দিন ঠিক করেছেন আদালত।

হটলাইন চালুর অগ্রগতি প্রতিবেদনের শুনানি নিয়ে মঙ্গলবার (১৫ অক্টোবর) হাইকোর্টের বিচারপতি শেখ হাসান আরিফ ও বিচারপতি রাজিক আল জলিলের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আদালতে রিট আবেদনের পক্ষে ছিলেন ব্যারিস্টার শিহাব উদ্দিন খান। আর নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী মুহাম্মদ ফরিদুল ইসলাম ও ভোক্তা অধিকারের পক্ষে ছিলেন কামরুজ্জামান কচি।

কামরুজ্জামান কচি সাংবাদিকদের বলেন, গত ২৭ আগস্টের আদেশের প্রেক্ষিতে আমরা হটলাইন চালুতে কী করেছি তার অগ্রগতি প্রতিবেদন দিয়েছি। আমরা টেন্ডার নোটিশ করেছি। এর মধ্যে ৯ কোম্পানির প্রস্তাবনা পেয়েছি। প্রাথমিকভাবে ৫ কোম্পানিকে সিলেক্ট করেছি। এরপর ২৮ দিন সময় দিতে হয়। যাচাই বাছাই করে একজনকে অ্যাওয়ার্ড দিব। আদালত ১৭ ডিসেম্বরের মধ্যে আপডেট দিতে বলেছে।

শিহাব উদ্দিন খান বলেন, তারা হটলাইন স্থাপন ও ব্যবস্থাপনার জন্য ৪৫ লাখ টাকা বরাদ্দ পেয়েছেন বলে আদালতে জানিয়েছেন। এখন টেন্ডার প্রক্রিয়া ও স্থাপনের কাজ শেষ করার জন্য সময় নিয়েছেন। আদালত বলেছেন হটলাইন চালুর বিষয়টি ব্যাপকভাবে প্রচার করতে। সম্ভব হলে প্রধানমন্ত্রীকে অতিথি করে এ হটলাইন চালু করতে।

এর আগে গত ২৭ আগস্ট ৩ মাসের মধ্যে আউটসোর্সিংয়ের মাধ্যমে হটলাইন চালু করতে নির্দেশ দেন হাইকোর্ট। এ জন্য কোনো প্রকার অজুহাত ছাড়া বাণিজ্য মন্ত্রণালয়সহ অর্থ মন্ত্রণালয় বাজেট বরাদ্দের ব্যবস্থা করবেন। এ বিষয়ে ১৫ অক্টোবর অগ্রগতি জানাতে ভোক্তা অধিকার অধিদফতরকে নির্দেশ দিয়েছিলেন আদালত। সে অনুসারে মঙ্গলবার অগ্রগতি প্রতিবেদন দেয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতর।

এর আগে এক আদেশে গত ১৬ জুন হাইকোর্ট দুই মাসের মধ্যে একটি হটলাইন সেবা চালু করতে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতরকে নির্দেশ দিয়েছিলেন। এ আদেশের পর ২০ আগস্ট ভোক্তা অধিকারের আইনজীবী আদালতে একটি আবেদন দিয়ে জানান, এ জন্য বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে ৫০ লাখ টাকা বরাদ্দ চেয়ে আবেদন করা হয়েছে।

বিএসটিআইয়ের পরীক্ষায় অকৃতকার্য হওয়া নামি-দামি কোম্পানি ও প্রতিষ্ঠানের নিম্নমানের (সাব-স্ট্যান্ডার্ড) পণ্য বাজার থেকে সরাতে করা এক রিটের শুনানিতে গত ১৬ জুন ওই আদেশ দেয়া হয়।

গত ৮ মে ভোক্তা অধিকার সংস্থা ‘কনসাস কনজুমার্স সোসাইটির (সিসিএস) নির্বাহী পরিচালক পলাশ মাহমুদের পক্ষে সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার শিহাব উদ্দিন খান ওই রিট করেন।

সূত্র : জাগো নিউজ
এন এইচ, ১৫ অক্টোবর

আইন-আদালত

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে