Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর, ২০১৯ , ২ কার্তিক ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.0/5 (5 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৯-২০-২০১৯

ভারতে শিক্ষার্থী ধর্ষণের অভিযোগে সাবেক মন্ত্রী চিন্ময়ানন্দ গ্রেফতার

ভারতে শিক্ষার্থী ধর্ষণের অভিযোগে সাবেক মন্ত্রী চিন্ময়ানন্দ গ্রেফতার

নয়াদিল্লী, ২০ সেপ্টেম্বর - ভারতের উত্তরপ্রদেশের শাহজাহানপুরের আইনের শিক্ষার্থী এক তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগে বিজেপি নেতা ও সাবেক কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্বামী চিন্ময়ানন্দকে গ্রেফতার করা হয়েছে। শুক্রবার উত্তরপ্রদেশের সহারনপুরের আশ্রম থেকে তাকে গ্রেফতার করে বিশেষ তদন্তকারী দল (সিট)। সূত্র জানিয়েছে, গ্রেফতারের পর শারীরিক পরীক্ষার জন্য চিন্ময়ানন্দকে শাহাজাহানপুর জেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বিকেলে তাকে আদালতে তোলা হবে।

গত সোমবার আদালতে চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেটের কাছে স্বামী চিন্ময়ানন্দের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন উত্তরপ্রদেশের ওই শিক্ষার্থী। ২৩ বছর বয়সী ওই তরুণীর অভিযোগ, এক বছর ধরে তাকে ধর্ষণ ও শারীরিক নির্যাতন করেছেন চিন্ময়ানন্দ। গত ২৩ অগস্ট ফেসবুকে একটি ভিডিও পোস্টে প্রথমে চিন্ময়ানন্দের বিরুদ্ধে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ করেন তিনি। পরের দিন থেকে তার খোঁজ না মেলায় ওই তরুণীর পরিবার পুলিশের দ্বারস্থ হয়। এরপর রাজস্থানের জয়পুরে ওই তরুণীর খোঁজ মেলে। এরপর তাকে আদালতে হাজির করা হয়। চিন্ময়ানন্দের ভয়েই তিনি পালিয়ে বন্ধুদের কাছে আশ্রয় নিয়েছিলেন বলে দাবি করেন ওই তরুণী। পরে তিনি ধর্ষণ ও এই ঘটনায় পুলিশি নিষ্ক্রিয়তার অভিযোগ তোলেন।

চিন্ময়ানন্দের বিরুদ্ধে প্রথমে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ করলেও পরে ওই তরুণী দাবি করেন, ওই বিজেপি নেতা তাকে ধর্ষণ করেছেন। চিন্ময়ানন্দের সে সব 'কুকীর্তি' তিনি গোপন ক্যামেরায় বন্দি করেছেন। এই মামলায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের হস্তক্ষেপের দাবি করেন তিনি।

প্রথম থেকেই এই মামলায় শাহজাহানপুর পুলিশের অসহযোগিতার অভিযোগ করে আসছেন ওই তরুণী। এ নিয়ে উত্তরপ্রদেশের পরিবর্তে দিল্লি পুলিশে চিন্ময়ানন্দের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন তিনি। আগ্নেয়াস্ত্র দেখিয়ে ভয় দেখানো ছাড়াও তার পরিবারকে খুনের হুমকি দররবোয়া হয়েছে বলেও অভিযোগ ছিল ওই তরুণীর।

এ ঘটনায় উত্তরপ্রদেশ সরকারের বিরুদ্ধে চিন্ময়ানন্দকে আড়াল করার অভিযোগও করেন বিরোধীদলের নেতারা।

এদিকে গ্রেফতারের পরও স্বামী চিন্ময়ানন্দের বিরুদ্ধে এখন পর্যন্ত ধর্ষণের অভিযোগ দায়ের করেনি শাহজাহানপুর পুলিশ। তারা চিন্ময়ানন্দের বিরুদ্ধে ওই তরুণীকে ভয় দেখানো ও হুমকির অভিযোগ দায়ের করেছে।

এই ঘটনায় সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে তদন্ত শুরু করেছিল সিট। ইতিমধ্যেই চিন্ময়ানন্দের বিরুদ্ধে প্রমাণ হিসাবে মোট ৪৩টি ভিডিও পেন ড্রাইভে করে তদন্তকারীদের কাছে জমা দিয়েছেন ওই তরুণী। পাশাপাশি, তাকে সঙ্গে নিয়ে তার কলেজের হোস্টেলসহ চিন্ময়ানন্দের বেডরুমে গিয়েও তথ্যপ্রমাণ সংগ্রহ করেছেন তদন্তকারীরা।

সূত্র : সমকাল
এন এইচ, ২০ সেপ্টেম্বর

দক্ষিণ এশিয়া

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে