Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, বুধবার, ১৩ নভেম্বর, ২০১৯ , ২৮ কার্তিক ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.0/5 (5 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৯-১৫-২০১৯

বাংলাদেশের বিপক্ষে আজ জিতলেই বিশ্বরেকর্ড গড়বে আফগানিস্তান

বাংলাদেশের বিপক্ষে আজ জিতলেই বিশ্বরেকর্ড গড়বে আফগানিস্তান

ঢাকা, ১৫ সেপ্টেম্বর- পরিসংখ্যান বলছে, ক্রিকেটের সংক্ষিপ্ত ফরম্যাট টি-টোয়েন্টিতে বরাবরই ভয়ঙ্কর দল আফগানিস্তান। রেকর্ডের পর রেকর্ড গড়ে যাচ্ছে তারা।

বলতে গেলে রেকর্ডের ধারাবাহিকতায় আছে দলটি। আজ সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় মিরপুর গ্রাউন্ডে বাংলাদেশের মুখোমুখি হচ্ছে দলটি।

আর এ ম্যাচে বাংলাদেশকে হারাতে পারলে আরেকটি দলীয় বিশ্বরেকর্ড গড়ে ফেলবে আফগানিস্তান।

টানা তিন বছর ধরে রাখা নিজেদের রেকর্ডটি ভেঙে নতুন রেকর্ড রচনা করবে তারা। অর্থাৎ আজ সুযোগ এসেছে সেই রেকর্ডটি আরেক দফা বাড়িয়ে নেয়ার।

আর সেটি হলো- আজ জিতলে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে টানা ১২ ম্যাচ জয়ের রেকর্ড গড়বেন আফগানরা। গতকাল হেসেখেলে জিম্বাবুয়েকে হারিয়ে টানা ১১ জয় ঝুলিতে জমা করেছেন রশিদ খানরা। যে রেকর্ড পর পর দুবার করা হয়ে গেছে তাদের।

তাই সেভাবে উৎসবে মাতেননি তারা। আজ সাকিব বাহিনীর বিপক্ষে জয় ছিনিয়ে নিয়েই নতুন রেকর্ডের উন্মাদনায় ভাসার পরিকল্পনা নিয়ে মাঠে নামবে আফগানিস্তান।

২০১৬-১৭ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজ, ওমান, আরব আমিরাত ও আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে খেলেছিল আফগানিস্তান। সে বছর টানা ১১ ম্যাচ জিতেছিল তারা।

টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে জয়ের সেই ধারাবাহিকতা ধরে রেখেছে র‌্যাংকিংয়ে ৭-এ থাকা দলটি। ২০১৮-১৯ সালে বাংলাদেশ, আয়ারল্যান্ড ও জিম্বাবুয়েকে হারিয়েই টানা ১১ জয় পেয়ে গেছে দলটি।

গত বছর শারজায় জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে দুই ম্যাচের সিরিজ নিজেদের করে নেয় আফগানিস্তান। এর পর দেরাদুনে অনুষ্ঠিত বাংলাদেশের বিপক্ষে তিন ম্যাচেই জয় পান তারা। পরে আয়ারল্যান্ডকে হারানোসহ দেরাদুনে পাঁচ ম্যাচ এবং সবশেষ চলতি ত্রিদেশীয় সিরিজে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে জিতে ১১টি টানা জয় পেয়েছে আফগানিস্তান।

আজ সন্ধ্যায় বাংলাদেশের বিপক্ষে টানা ১২তম জয়ের লক্ষ্যে খেলতে নামবেন আফগানরা।

পরিসংখ্যান বলছে, এখন পর্যন্ত ক্রিকেটের এই সংক্ষিপ্ত ফরম্যাটে ৭২ ম্যাচ খেলে ৫০টিতে জয় পেয়েছে আফগানিস্তান। পরাজয় মাত্র ২২ ম্যাচে।

টি-টোয়েন্টিতে টানা জয়ের রেকর্ড

১. আফগানিস্তান - ১১* ম্যাচ (২০১৮-১৯)

২. আফগানিস্তান - ১১ ম্যাচ (২০১৬-১৭)

৩. পাকিস্তান - ৯ ম্যাচ (২০১৮)

৪. ইংল্যান্ড - ৮ ম্যাচ (২০১০-১১)

৫. আয়ারল্যান্ড - ৮ ম্যাচ (২০১২)

সূত্র: যুগান্তর

আর/০৮:১৪/১৫ সেপ্টেম্বর

ক্রিকেট

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে