Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, রবিবার, ২৫ আগস্ট, ২০১৯ , ১০ ভাদ্র ১৪২৬

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৮-০৫-২০১৯

পরিষ্কার রাস্তায় ‘ময়লা ফেলে’ ফটোসেশনে ঢাবি উপাচার্য!

পরিষ্কার রাস্তায় ‘ময়লা ফেলে’ ফটোসেশনে ঢাবি উপাচার্য!

ঢাকা, ০৫ আগস্ট- ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) পরিষ্কার রাস্তায় কর্মচারীরা ময়লা ফেলার কিছুক্ষণ পর ‘ক্লিন ক্যাম্পাস উইক’ কর্মসূচি উদ্বোধন করতে আসেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান। তিনি ঘটনাস্থলে আসার পরই শুরু হয় ফটোসেশন। উপাচার্যের রাস্তা পরিষ্কারের সেই ছবি এখন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল।       

আজ সোমবার বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী, মহান স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী এবং ঢাবির শতবর্ষপূর্তি উদযাপন উপলক্ষে এই কর্মসূচির আয়োজন করা হয়।

জানা গেছে, আজ বেলা ১১ টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ‘ক্লিন ক্যাম্পাস উইক’ উদ্ধোধনের পরিচ্ছন্নতা কর্মীরা ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্র প্রাঙ্গণে ময়লা ফেলে যায়। পরে তা পরিস্কার আয়োজনের উদ্বোধন করেন উপাচার্য। যদিও আগে থেকে ময়লা ফেলার ঘটনার সত্যতা মানতে রাজি নন অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান।

এ বিষয়ে একজন প্রতক্ষ্যদর্শী শিক্ষার্থী বলেন, আমরা সকালেও এ জায়গাটি পরিষ্কার থাকতে দেখি। ভিসি স্যারের প্রোগ্রামের আগে দেখি বিভিন্ন, পলিথিন, প্লাস্টিকের চায়ের কাপ, ডাবের খোসাসহ বিভিন্ন জিনিস পড়ে আছে। এ ময়লাগুলো একটু আগেও পরিচ্ছন্ন কর্মীর ভ্যানে দেখেছি। এখানে যে বর্জ্যগুলো পড়ে ছিল তা এখানকার বর্জ্যও না। অন্য কোথাও থেকে এখানে এসব ময়লা ফেলা হয়েছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক পরিচ্ছন্ন কর্মী বলেন, ‘স্যারদের তোলার সুবিধার্থে এসব ময়লা এখানে আনা হয়েছে। স্যার চলে গেলে এগুলো আমরাই পরিষ্কার করব।’

কর্মসূচি উদ্বোধনকালে উপাচার্য আখতারুজ্জামান বলেন, ‘একটি সুন্দর, স্বাস্থ্যসম্মত, পরিচ্ছন্ন ও নান্দনিক ক্যাম্পাস নির্মাণের লক্ষ্যে প্রতি মাসের প্রথম সপ্তাহে ক্লিন ক্যাম্পাস উইক শীর্ষক পরিচ্ছন্নতা অভিযান পরিচালিত হবে। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ও ডাকসুর যৌথ উদ্যোগে পরিচালিত এই অভিযানের ফলে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা নিয়ে আমাদের মনস্তাত্ত্বিক জগতের একটি পরিবর্তন হবে বলে তিনি উল্লেখ করেন।

পরে ময়লা ফেলে তা পরিস্কারের ব্যাপারে উপাচার্যের কাছে জানতে চাইলে আগে থেকে ময়লা ফেলার ঘটনার সত্যতা মানতে রাজি হননি তিনি। বলেন,‘আমরা সবাইকে পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা থাকার জন্য আহ্বান করব। কেউ যেন ময়লা না ফেলে সে বিষয়ে অনুরোধ করব।’

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ সামাদ, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. মো কামাল উদ্দীন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. এ এস এম মাকসুদ কামাল ডাকসুর এজিএস সাদ্দাম হোসেন, সমাজসেবা সম্পাদক আকতার হোসেন ও ডাক্তার সদস্য তিলোত্তমা শিকদারসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক কর্মকর্তা,কর্মচারী ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে পরিষ্কার রাস্তায় ময়লা ফেলে আবার তার পরিষ্কার করে বিতর্কিত হয়েছিলেন ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম।

সূত্র: আমাদের সময়
এনইউ / ০৫ আগস্ট

 

শিক্ষা

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে