Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, রবিবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৯ , ৩ ভাদ্র ১৪২৬

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৭-১৮-২০১৯

কম বিরতির কারণে ট্রেনের নিচে প্রাণ গেল নারীর

কম বিরতির কারণে ট্রেনের নিচে প্রাণ গেল নারীর

কিশোরগঞ্জ, ১৮ জুলাই- কিশোরগঞ্জের ভৈরব উপজেলায় তড়িঘড়ি করে ট্রেনে উঠতে গিয়ে জানু বেগম (৩৫) নামে এক নারী কাটা পড়ে মারা গেছেন।

বৃহস্পতিবার ঢাকা-চট্রগ্রামগামী চট্টলা আন্তঃনগর ট্রেন ভৈরব রেলওয়ে স্টেশনে পৌঁছালে এ ঘটনা ঘটে।

ট্রেনটি দুপুর ৩টা ২৩ মিনিটে ভৈরব রেলওয়ে স্টেশনে বিরতি দেয় এবং দুই মিনিট বিরতির পর ৩টা ২৫ মিনিটে ট্রেনটি ছেড়ে দেয়।

এতো কম সময়ের মধ্য তাড়াহুড়া করে ট্রেনে উঠতে গিয়ে জানু বেগম নামের ওই যাত্রী ট্রেনে কাটা পরে ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারায়।

নিহত জানু বেগম স্বামীর কিশোরগঞ্জের মিটামইন থানার আমানপুর গ্রামের মইজউদ্দিনের স্ত্রী। তার লাশ ভৈরব রেলওয়ে পুলিশ উদ্ধার করে।

নিহত জানু বেগমের আত্মীয় মো. আজাদ মিয়া জানান, ট্রেনটি থামল আর ছেড়ে দিল। তাড়াহুড়া করে আমার বন্ধুর মা ট্রেনে উঠতে গিয়ে চাকার নিচে পরে গিয়ে নিহত হয়েছে বলে সে জানায়।

আজ তিনিসহ অসংখ্য যাত্রী ট্রেনে উঠতে পারেনি বলে জানান আজাদ।

ভৈরব রেলওয়ে স্টেশনের কেবিন মাস্টার মাহবুব হোসেন এই প্রতিনিধিকে জানায়, চট্রলা ট্রেনটি ভৈরব রেলওয়ে স্টেশনে বিকাল ৩টা ২৩ মিনিটে বিরতি দিয়ে ৩টা ২৫ মিনিটে ছেড়ে যায়।

এতো কম সময় বিরতিতে যাত্রীরা উঠানামা করতে পারে কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, এ বিষয়টি আমার দেখার নয়। ভৈরবে ২ মিনিট বিরতির সিডিউল দেয়া আছে তাই নির্ধারিত সময় আমাকে গাড়ি ছাড়ার সিগনাল দিতেই হবে।

ভৈরব রেলওয়ে স্টেশন মাস্টার মো. কামরুজ্জামান জানান, ভৈরবে বিরতির সময় দুই মিনিট। তবে ট্রেনের গার্ড যাত্রীর ভিড় দেখলে ট্রেন ছাড়ার সিগনাল কিছুটা পরে দিতে পারত। তিনি কেন সিগনাল কিছুটা সময় পরে দিলেন না সেটা তার বিষয়।

ভৈরব রেলওয়ে থানার ওসি আবদুল মজিদ জানান, চট্টলা ট্রেনটি ভৈরবে মাত্র দুই মিনিট বিরতি দেয়। আজকের দুর্ঘটনাটি কম বিরতির কারণেই ঘটছে বলে তিনি স্বীকার করেন।

সূত্র: যুগান্তর
এমএ/ ০৯:৪৪/ ১৮ জুলাই

কিশোরগঞ্জ

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে