Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, শুক্রবার, ২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ , ৫ আশ্বিন ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.0/5 (10 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)


আপডেট : ০৭-১৩-২০১৯

বিশ্বকাপ ফাইনালের পরই ক্রিকেটকে বিদায় জানাচ্ছেন আলিম দার!

বিশ্বকাপ ফাইনালের পরই ক্রিকেটকে বিদায় জানাচ্ছেন আলিম দার!

লন্ডন, ১৩ জুলাই- আলোচিত-সমালোচিত পাকিস্তানি আম্পায়ার আলিম দার অবশেষে ক্রিকেটকেই বিদায় বলে দিতে যাচ্ছেন! রোববার লর্ডসে নিউজিল্যান্ড এবং ইংল্যান্ডের মধ্যকার ফাইনালের পরই আলিম দার আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে আম্পায়ারিংকে গুডবাই জানিয়ে দিচ্ছেন বলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে ছড়িয়ে পড়েছে।

পাকিস্তানের এই আম্পায়ার ক্রিকেটের বেশ পরিচিত মুখ। বাংলাদেশের দর্শকদের কাছে অবশ্য তার পরিচিতিটা একটু ভিন্ন রূপে। টাইগারদের বিপক্ষে আম্পায়ার হিসেবে দায়িত্ব পালন করতে গেলেই বিতর্ক তৈরি করা ছিল যেন তার একটি অভ্যাস। ২০১৫ বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে শুরু করে বেশ কয়েকবার বিতর্কিত সিদ্ধান্ত দিয়ে সমালোচনার মুখে পড়েছেন পাকিস্তানি এই আম্পায়ার।

রোববার লর্ডসে আলিম দার দায়িত্ব পালন করবেন চতুর্থ আম্পায়ার হিসেবে। ফাইনালের আগেই টুইটারের বিভিন্ন অ্যাকাউন্ট থেকে জানা যাচ্ছে, লর্ডসের ফাইনালই হতে যাচ্ছে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে আম্পায়ার হিসেবে তার শেষ ম্যাচ।

জি.পাকিস্তান নামে একটি টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে লিখা হয়েছে, ‘বিশ্বকাপ ফাইনালের পরই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট আম্পায়ারিং থেকে অবসর নিচ্ছেন আলিম দার। অন দ্য ফিল্ডে সব সময়ই সেরা সিদ্ধান্ত দিয়েছেন তিনি। হ্যাটস অব ইউ।’ আবরার মাজহার নামে একজন লিখেছেন, বিশ্বকাপ ফাইনালের পরই আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে গুডবাই জানাচ্ছেন আলিম দার। থ্যাংক ইউ দার সাব, ফর ইউর সার্ভিস।’ পাকিস্তান ক্রিকেট নামে একটি আইডি থেকেও একই টুইট করা হয়েছে।

আম্পায়ারিংয়ে আসার আগে পাকিস্তানের ঘরোয়া লিগে প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটও খেলেছেন তিনি। ২০০০ সালে পাকিস্তান ও শ্রীলংকার একটি ওয়ানডে ম্যাচের মাধ্যমে আম্পায়ার হিসেবে অভিষেক ঘটে তার। ২০০৪ সালে প্রথম পাকিস্তানি হিসেবে আইসিসির আম্পায়ারদের এলিট প্যানেলে স্থান পান তিনি।

২০০৫ ও ২০০৬ সালে আইসিসির বর্ষসেরা আম্পায়ার মনোনীত হন আলিম দার। ২০০৭ সালে ইতিহাসের মাত্র দশম আম্পায়ার হিসেবে ১০০টি ওডিআই ম্যাচ পরিচলানার মাইলফলক স্পর্শ করেন তিনি। সবচেয়ে কম সময়ে ও প্রথম পাকিস্তানি হিসেবে ১০০ ওয়ানডে পরিচালনার কৃতিত্বও দেখান তিনি। ২০০৯ থেকে ২০১১- টানা তিন বছর হয়েছেন আইসিসির বর্ষসেরা আম্পায়ার।

ভারত পাকিস্তান ম্যাচ, ৫ টি অ্যাসেজ, ২০০৬ সালের চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনাল, ২০০৭ বিশ্বকাপের ফাইনালসহ অনেকগুলো গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচেও আম্পায়ারের দায়িত্ব পালন করেন তিনি। কয়েক দিন আগে আয়ারল্যান্ডের ত্রি-দেশীয় সিরিজে আম্পায়ার হিসেবে দুইশ তম ম্যাচ পরিচালনা করেন দার।

বেশ কয়েক মাস ধরেই গুঞ্জন চলছিলো অবসরে যেতে পারেন আলিম দার। তবে তখন তিনি জানিয়েছিলেন, বিশ্বকাপের আগে অবসরে যাবেন না। তবে, বিশ্বকাপ শেষেই যে অবসর ঘোষণা করছেন, সেটা সামাজিক মাধ্যমে তুমুলভাবে ছড়িয়ে পড়েছে। 

এমএ/ ০৬:১১/ ১৩ জুলাই

ক্রিকেট

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে