Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই, ২০১৯ , ৮ শ্রাবণ ১৪২৬

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৬-১১-২০১৯

ফের #MeToo প্রসঙ্গে মুখ খুললেন মাধুরী দীক্ষিত

ফের #MeToo প্রসঙ্গে মুখ খুললেন মাধুরী দীক্ষিত

মুম্বাই, ১১ জুন - কয়েকমাস আগেও #MeToo আন্দোলনের জের ছিল বলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে। তবে সময়ের সঙ্গে সঙ্গে তা অনেকটাই থিতিয়ে পড়েছে। গতবছর অলোক নাথ, বিকাশ বহেল, কৈলাশ খের, রজত কাপুর থেকে শুরু করে বলিউড ইন্ডাস্ট্রির অনেক বাঘা বাঘা নামই উঠে এসেছে এই আন্দোলনের হাত ধরে। তবে, সম্প্রতি পরিচালক বিকাশ বহেল ক্লিনচিট পাওয়ায় ফের একবার #MeToo নিয়ে জল্পনা শুরু হয়েছে বলিউডে। এবার #MeToo নিয়ে মুখ খুললেন অভিনেত্রী মাধুরী দীক্ষিত।

লাস্যময়ী মাধুরীর মতে, শুধু বিনোদন জগতেই নয়, বরং সবক্ষেত্রে জায়গা নির্বিশেষে মেয়েদের নিরাপত্তার কথা ভাবা উচিত। যে কোনও পরিস্থিতিতেই মেয়েদের নিরাপত্তার ইস্যুকে এগিয়ে রাখা উচিত। অনেকেই রয়েছেন যারা রাস্তাঘাটে যানবাহনে হেনস্তা হন, তাঁদের কথাও মাথা রাখা উচিত। তিনি বলেন, “জনপ্রিয় মানুষদের কুকীর্তির কথা সকলেই অল্পবিস্তর জানেন। কিন্তু সাধারণ মানুষের কথা ভাবুন। যাঁদের মুখ অচেনা। তাঁদের হাতে প্রতিনিয়ত মহিলারা কীভাবে হেনস্তা হচ্ছেন। সেই মহিলা ট্রেনে, বাসে কিংবা প্রকাশ্যে যৌন অত্যাচারের শিকার হচ্ছেন। যদি মহিলাদের হেনস্তামূলক সমস্যাকে নির্মূল করতে হয় এবং সুরক্ষিত পরিবেশ চান, তাহলে ঘরে ঘরে মানুষদের শিক্ষিত হতে হবে। আরও বেশি করে শিক্ষিত মানুষদের এগিয়ে আসতে হবে মহিলাদের হেনস্তার বিরুদ্ধে। তাঁদের সাহায্যেই এগিয়ে এসে নিজেদের যুদ্ধটা নির্ভয়ে করতে পারবেন মহিলারা।” তবে হ্যাঁ, শিক্ষিত মানুষরা সেই লড়াইটাকে কীভাবে এগিয়ে নিয়ে যাবেন, সেই বিষয়টা সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ। শুধু ইন্ডাস্ট্রির ভিতরেই নয়, সর্বক্ষেত্রেই এই হেনস্তা বন্ধ হোক, এটাই চান মাধুরী দীক্ষিত।

#MeToo আন্দোলন প্রসঙ্গে এর আগেও সরব হয়েছিলেন মাধুরী দীক্ষিত। জানিয়েছিলেন, অলোকনাথ এবং সৌমিক সেনের মতো মানুষের সঙ্গে নিকট সম্পর্কই ছিল তাঁর। কিন্তু, #MeToo আন্দোলনের জেরে তাঁদের অজানা দিক জানার পর বেশ অস্বস্তিই হয়েছিল অভিনেত্রীর। অলোকনাথের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে জেনে হতভম্ব হয়ে গিয়েছিলেন মাধুরী। ‘হাম আপকে হ্যায় কৌন’, ‘জামাই রাজা’-সহ বহু হিট ছবিতে মাধুরীর সঙ্গে অভিনয় করেছেন অলোকনাথ। সব ক্ষেত্রেই মাধুরীর গুরুজনের ভূমিকায় দেখা গিয়েছে তাঁকে। অন্যদিকে, ‘গুলাব গ্যাং’ ছবির দৌলতেই পরিচালক সৌমিক সেনের সঙ্গে ভাল সম্পর্ক গড়ে উঠেছিল মাধুরীর। প্রসঙ্গত, সম্প্রতি ‘সুপার ৩০‘ পরিচালক বিকাশ তাঁর উপর আনা #MeToo মামলায় ক্লিনচিট পেয়েছেন, যেই ঘটনার প্রতিবাদে অভিনেত্রী তাপসী পান্নু-সহ একাধিক তারকা মুখ খুলেছিলেন। অন্যদিকে, পুরুষদের উদ্দেশে বলিউডে করণ ওবেরয়ের হাত ধরে শুরু হয়েছে #MenToo আন্দোলন। যদিও, #MeToo-র মতো #MenToo আন্দোলন সেভাবে চাগাড় দিয়ে ওঠেনি বলিউডে। ধর্ষণের অভিযোগে অভিযুক্ত করণও ক্লিনচিট পেয়ে গিয়েছেন।

এন এ/ ১১ জুন

বলিউড

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে