Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর, ২০১৯ , ৭ কার্তিক ১৪২৬

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৪-১৬-২০১৯

চমকের নাম আবু জায়েদ রাহী

চমকের নাম আবু জায়েদ রাহী

ঢাকা, ১৬ এপ্রিল- বাংলাদেশের বিশ্বকাপ দল কেমন হবে? এই প্রশ্নকে সামনে রেখে সাম্প্রতিক সময়ে জল্পনা-কল্পনা অনেকই হয়েছে। যদিও বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন ও নির্বাচকদের নানা সময়ের আলোচনায় ১৩ জনের নাম একরকম নিশ্চিতই হয়ে যায়।

ধোঁয়াশা বা কৌতুহল ছিল মূলত দু’টি পজিশন নিয়ে। আজ মঙ্গলবার ১৫ সদস্যের বিশ্বকাপ দল ঘোষণা করে সেই জল্পনা-কল্পনাও মিটিয়ে ফেলল বিসিবি।

তবে জল্পনার অবসান বিসিবি ঘটিয়েছে বড় এক চমকের মধ্যদিয়ে। সেই চমকের নাম আবু জায়েদ রাহী। এখনো পর্যন্ত ওয়ানডে অভিষেকই হয়নি যার, সেই আবু জায়েদ রাহী এক লাফে জায়গা করে নিলেন ওয়ানডের বিশ্বকাপ দলে! রাহীর সৌভাগ্যের দরজা খোলায় কপাল পুড়ল তাসকিন আহমেদ বা শফিউল ইসলামের।

এবারের বিশ্বকাপ আসর বসছে ক্রিকেটের জন্মভূমি ইংল্যান্ডে। ইংল্যান্ডের কন্ডিশনের কথা মাথায় রেখেই বাংলাদেশের বিশ্বকাপ দলে ৫ পেসার অন্তর্ভূক্ত করার পরিকল্পনা সেরে ফেলে বিসিবি। সেই ৫ পেসারের মধ্যে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা, রুবেল হোসেন, মোস্তাফিজুর রহমান ও সাইফউদ্দিন— এই ৪ জনের দলে থাকার কথা আগেই নিশ্চিত করে দেন বিসিবি সভাপতি ও নির্বাচকরা।

বাকি একটি পজিশনে কে থাকবেন, তা নিয়েই ছিল জল্পনা। আলোচনায় ছিলেন মূলত দুজন— চোটের কারণে দীর্ঘ দিন দলের বাইরে থাকা তাসকিন আহমেদ ও শফিউল ইসলাম। কিন্তু তাদের বাদ দিয়ে বিসিবি চমক দেখাল আবু জায়েদকে নিয়ে।

অন্য যে জায়গাটি নিয়ে জল্পনা ছিল, সেটি হলো স্পিন-অলরাউন্ডার নিয়ে। এই জায়গায় সম্ভাবনার দৌড়ে ছিলেন সম্ভাবনাময় তরুণ স্পিনার নাঈম হাসান। কিন্তু তাকে হতাশ করে শেষ পর্যন্ত নির্বাচকরা আস্থা রেখেছেন মোসাদ্দেক হোসেন সৈকতের ওপর।

আলোচনায় ছিলেন মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান ইয়াসির আলী রাব্বিও। সৌম্য সরকারের সাম্প্রতিক অফফর্মই ইয়াসির রাব্বিকে আলোচনায় তুলে এনছিল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত অভিজ্ঞ সৌম্যকেই বেছে নিয়েছেন নির্বাচকরা।

তবে ইয়াসির আলী রাব্বি বা নাঈম হাসানকে একেবারে হতাশ হতে হয়নি। বিশ্বকাপ দলে জায়গা না পেলেও তারা আছেন আয়ারল্যান্ডের ত্রিদেশীয় সিরিজের দলে। আজ একই সঙ্গে আয়ারল্যান্ডের ত্রিদেশীয় সিরিজের জন্য ১৭ সদস্যের দল ঘোষণা করেছেন প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু।

বিশ্বকাপ দলে জায়গা পাওয়া ১৫ জনের সঙ্গে ইয়াসির রাব্বি ও নাঈম হাসান—এই হচ্ছে ত্রিদেশীয় সিরিজের দল। মানে তাসকিন বা শফিউলের তাই জায়গা হয়নি ত্রিদেশীয় সিরিজের দলেও।

সব মিলে আবু জায়েদ রাহীই বাংলাদেশের বিশ্বকাপ মিশনের সবচেয়ে বড় চমক। ২৫ বছর ২৫৭ দিন বয়সী রাহী এরই মধ্যে জাতীয় দলের জার্সি গায়ে ৫টি টেস্ট ও ৩টি টি-টোয়েন্টি খেলেছেন। ৫ টেস্টের ৭ ইনিংসে বল করে নিয়েছেন ১১ উইকেট। ৩টি টি-টোয়েন্টিতে উইকেট শিকার ৪টি।

সেই রাহী কোনো ওয়ানডে না খেলেই একেবারে বিশ্বকাপ দলে। সুতরাং বিশ্বকাপের আগে আয়ারল্যান্ডের মাটির ত্রিদেশীয় সিরিজেই যে তার ওয়ানডে অভিষেক হতে যাচ্ছে, এটা এক রকম নিশ্চিত। বিশ্বকাপের মূল মঞ্চের আগে খেলোয়াড়দের বাজিয়ে দেখার একমাত্র সুযোগই তো ওই ত্রিদেশীয় সিরিজ।

ফলে বিশ্বকাপ দলে জায়গা পেলেও শেষ পর্যন্ত বিশ্বকাপে ম্যাচ খেলার সুযোগ তিনি পাবেন কিনা, সেটা জানা যাবে পরে। তবে ত্রিদেশীয় সিরিজের মাধ্যমে ওয়ানডে অভিষেকের রঙিন স্বপ্ন এখন রাহী দেখতেই পারেন।

এমএ/ ০৪:০০/ ১৬ এপ্রিল

ক্রিকেট

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে