Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, রবিবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৯ , ৩ ভাদ্র ১৪২৬

গড় রেটিং: 0/5 (0 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)


আপডেট : ০৩-০৭-২০১৯

জয় বাংলা কনসার্টে তারুণ্যের উচ্ছ্বাস

জয় বাংলা কনসার্টে তারুণ্যের উচ্ছ্বাস

ঢাকা, ০৭ মার্চ- বিশ্বমানচিত্রে বাঙালির নিজস্ব রাষ্ট্র্র গড়ার বার্তা দেওয়া ঐতিহাসিক ৭ মার্চ ছিল  বৃহস্পতিবার। ১৯৭১ সালে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের অগ্নিঝরা ঐতিহাসিক ভাষণের দিনটি উপলক্ষে এ প্রজন্মের এক ঝাঁক ব্যান্ডের নিজস্ব পরিবেশনার সঙ্গে গীত হলো স্বাধীন বাংলা বেতারের গানও। 

রাজধানীর আর্মি স্টেডিয়ামে 'জয় বাংলা কনসার্ট' নামে এই সঙ্গীত আসরটি চলে দুপুর থেকে রাত অবধি। কনসার্ট উপভোগে ঢাকার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে জড়ো হয়েছিলেন শ্রোতারা। স্টেডিয়ামের গ্যালারি থেকে মাঠ- বিস্তীর্ণ জায়গাজুড়ে ছিল তারুণ্যের বাঁধভাঙা উচ্ছ্বাস। 

ঐতিহাসিক ৭ মার্চ উপলক্ষে পঞ্চমবারের মতো এ কনসার্টের আয়োজন করে সেন্টার ফর রিসার্চ অ্যান্ড ইনফরমেশনের (সিআরআই) অঙ্গ প্রতিষ্ঠান 'ইয়ং বাংলা'।

কনসার্টে অংশ নেয় দেশের জনপ্রিয় আটটি ব্যান্ড- চিরকুট, আর্বোভাইরাস, লালন, ক্রিপটিক ফেইট, নেমেসিস, শূন্য, বে অব বেঙ্গল, আর্টসেল। গানের পাশাপাশি ডিজিটাল স্ট্ক্রিনে কিংবা শ্রোতার মুখে মুখে বারংবার উচ্চারিত হয়েছে বাঙালিত্বের অহঙ্কারমাখা সেই স্লোগান 'জয় বাংলা'। প্রায় সাত ঘণ্টার আয়োজনে প্রতিটি ব্যান্ড দলই নিজেদের পরিবেশনার সঙ্গে গেয়েছে স্বাধীন বাংলা বেতারের প্রেরণাদায়ী সেই গানগুলো। এবারও অন্যতম আকর্ষণ ছিল বড় পর্দায় বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণটির রঙিন সংস্করণের প্রদর্শনী।

হাজারো সুররসিকের সঙ্গে সঙ্গীতায়োজনটি উপভোগ করেছেন বঙ্গবন্ধুর ছোট মেয়ে শেখ রেহানা, নাতনি সায়মা ওয়াজেদ পুতুল ও নাতি রাদওয়ান মুজিব সিদ্দিক ববি। এ ছাড়া দর্শক সারিতে বসে গান শোনেন বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বিপুসহ বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ।

বিকেল সাড়ে ৩টায় ব্যান্ড দল বে অব বেঙ্গলের ড্রামের বাজনায় বিক্ষিপ্ত হাজারো দর্শক ছুটে আসে মঞ্চের সামনে। এর পর মঞ্চে আসে আরেক ব্যান্ড দল শূন্য। স্বাধীন বাংলা বেতারের গান দিয়ে শুরু হয় দলটির পরিবেশনা। শ্রোতাদের অন্তরে দেশাত্মবোধ জাগিয়ে শোনায় 'জয় বাংলা বাংলার জয়'। তাদের সঙ্গে কণ্ঠ মিলিয়ে হাজারো কণ্ঠ গেয়ে ওঠে 'জয় বাংলা'র গানটি। এর পর দলটি পরিবেশন করে তাদের জনপ্রিয় গান 'শোন মহাজন'।

এরপর শ্রোতাদের মাতায় ব্যান্ড দল লালন। তারা গেয়ে শোনায় 'তাল তমালের বনেতে/আগুন লাগে মনেতে', 'সময় গেলে সাধন হবে না' ও 'পাগল ছাড়া দুনিয়া চলে না'। দলটি যখন গাইছিল ' শেখ মুজিবের মুক্তি চাই' তখন জয় বাংলা স্লোগানে মুখর হয়ে ওঠে পুরো স্টেডিয়াম।

পরে গানে গানে মঞ্চ মাতায় ব্যান্ড দল আর্বোভাইরাস। স্বদেশপ্রেমকে সঙ্গী করে তারা গেয়ে শোনায় 'ও আমার দেশের মাটি, তোমার 'পরে ঠেকাই মাথা'। নিজেদের পরিবেশনার সঙ্গে দলটি গায় স্বাধীন বাংলা বেতারের প্রেরণাদায়ী কিছু গানও।

ক্রিপটিক ফেইট শুনিয়েছে 'তীরহারা এই ঢেউয়ের সাগর পাড়ি দেবো রে'সহ নিজস্ব কিছু গান। রাত প্রায় ১১টা পর্যন্ত চলবে এ সঙ্গীতাসর।

এমএ/ ১১:০০/ ০৭ মার্চ

সংগীত

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে