Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, শুক্রবার, ২২ নভেম্বর, ২০১৯ , ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.0/5 (5 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৩-০৬-২০১৯

৬ বছরেও দাখিল হয়নি ত্বকী হত্যার অভিযোগপত্র

৬ বছরেও দাখিল হয়নি ত্বকী হত্যার অভিযোগপত্র

নারায়ণগঞ্জ, ০৬ মার্চ- নারায়ণগঞ্জের মেধাবী ছাত্র তানভীর মুহাম্মদ ত্বকী হত্যার ছয় বছরেও আদালতে দাখিল হয়নি মামলার অভিযোগ পত্র।  নারায়ণগঞ্জের চাঞ্চল্যকর ও লোমহর্ষক হিসেবে মনিটরিং সেলে অর্ন্তভুক্ত হলেও অভিযোগপত্র দাখিল করতে পারেনি তদন্তকারী সংস্থা র‍্যাব।

বুধবার (৬ মার্চ) দেশব্যাপী আলোচিত এই হত্যাকাণ্ডের ছয় বছর পূর্তি হচ্ছে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত অনেকেই এখন প্রকাশ্যেই ঘুরে বেড়াচ্ছেন বলেও অভিযোগ রয়েছে।

নিহতের পরিবারের অভিযোগ, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনার অপেক্ষাতেই মামলাটির অভিযোগপত্র দাখিল হচ্ছে না। হত্যাকাণ্ডে জড়িতরা প্রভাবশালী হওয়ায় বিচার প্রক্রিয়া বিলম্বিত হচ্ছে বলেও অভিযোগ করে আসছেন নিহত ত্বকীর পরিবারের স্বজনরা। তবে আলোচিত এ হত্যাকাণ্ডের বিচার দ্রুত সম্পন্ন করা দরকার বলে মনে করছেন সুশীল সমাজের প্রতিনিধিরা।

২০১৩ সালের ৬ মার্চ রাতে নারায়ণগঞ্জ শহরের পুরান কোর্ট এলাকা থেকে অপহরণ করা হয় ইংরেজী মাধ্যমের মেধাবী শিক্ষার্থী তানভীর মুহাম্মদ ত্বকীকে। অপহরণের দুইদিন পর ৮ মার্চ সকালে ত্বকীর লাশ ভেসে উঠে শহরের চারারগোপ এলাকায় শীতলক্ষ্যা নদীর কুমুদিনি খালে। ঘটনার দিন রাতেই ত্বকীর বাবা সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব রফিউর রাব্বি বাদী হয়ে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানায় দন্ড বিধি ৩০২/৩৪ ধারায় আসামি অজ্ঞাত উল্লেখ করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

এরপর মামলাটির তদন্তভার দেওয়া হয় ডিবি পুলিশকে। তবে ডিবি পুলিশের তদন্তে মামলাটির আশানুরূপ অগ্রগতি না হওয়ায় রফিউর রাব্বির আবেদনের প্রেক্ষিতে ২৮ মে উচ্চ-আদালত মামলাটি তদন্ত করতে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব) কে নির্দেশ দেন।

ত্বকী হত্যা মামলার বাদীপক্ষের আইনজীবী প্রদীপ ঘোষ বাবু জানান, ত্বকী হত্যা মামলার তদন্ত করতে গিয়ে র‍্যাব ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ৫ জনকে গ্রেফতার করলেও তাদের মধ্যে একজন কারাগারে রয়েছে এবং চারজনই উচ্চ আদালত থেকে জামিনে আছে। গ্রেফতারকৃত আসামিদের মধ্যে দুই আসামি সুলতান শওকত ভ্রমর ও আসামি ইউসুফ হোসেন লিটন আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে।

ত্বকী হত্যা মামলাটিকে স্পর্শকাতর মামলা আখ্যা দিয়ে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন-র‍্যাব ১১ এর কমান্ডিং অফিসার (সিও) লেফটেন্যান্ট কর্ণেল কাজী শামশের উদ্দিন বলেছেন, ‘এটার তদন্ত চলছে। তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেয়া হবে সেটা বলা কঠিন। তবে সময় লাগবে। নির্দিষ্ট সময় বলা যাচ্ছে না। তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত কি পর্যায়ে আছে সেটাও বলা যাচ্ছে না। তবে তদন্তে কোন চাপ নেই। আমরা আমাদের মতো কাজ করে যাচ্ছি’।

নিহত ত্বকীর বাবা রফিউর রাব্বি অভিযোগ করেন, সরকার চায় না ত্বকী হত্যার বিচার হোক। তাই বিচার হচ্ছে না। কারন, এই হত্যাকাণ্ডের সাথে প্রভাবশালী রাজনৈতিক পরিবার জড়িত আছে। তিনি বলেন, এই সরকার বিচার না করলেও আমরা বিশ্বাস কোন একদিন ত্বকী হত্যার বিচার হবেই। এই সরকারকে সেদিন বিচারের কাঠগড়ায় দাঁড়াতে হবে।

নারায়ণগঞ্জ নাগরিক কমিটির সাধারণ সম্পাদক আবদুর রহমান বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাঁর ছোট ভাই শেখ রাসেলের মৃত্যুবার্ষিকীর এক অনুষ্ঠানে বলেছিলেন তিনি দেশের সব শিশু হত্যার বিচার করবেন। তবে প্রধানমন্ত্রীর সেই ঘোষণা আজও বাস্তবায়ন হয়নি। এতে আমরা মর্মাহত। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর কাছে আমার দাবী থাকবে অবিলম্বে ত্বকীসহ দেশের সব শিশু হত্যার বিচার করা হোক।

বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশনের ঢাকা বিভাগীয় সমন্বয়ক এ্যাডভোকেট মাহাবুবুর রহমান মাসুম বলেন, প্রধানমন্ত্রী যদি মনে করেন ত্বকী হত্যার বিচার করবেন, তাহলে বিচার হবে। আর যদি প্রধানমন্ত্রী না চান তাহলে এই সরকারে আমলে ত্বকী হত্যার বিচার হবে না। তবে আমি আশা করি আমাদের বিচক্ষণ ও মানবতার প্রতীক প্রধানমন্ত্রী ত্বকী হত্যার বিচার করে দেশে দৃষ্টান্ত স্থাপন করবেন।

সূত্র: বাংলা ট্রিবিউন
এমএ/ ০২:৩৩/ ০৬ মার্চ

নারায়নগঞ্জ

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে