Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, বৃহস্পতিবার, ২১ নভেম্বর, ২০১৯ , ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.0/5 (10 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)


আপডেট : ০১-৩০-২০১৯

মনোনয়নপত্র জমা দিলেন সৈয়দ আশরাফের বোন

মনোনয়নপত্র জমা দিলেন সৈয়দ আশরাফের বোন

কিশোরগঞ্জ, ৩০ জানুয়ারি- সৈয়দ আশরাফের মৃত্যুর কারণে আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি কিশোরগঞ্জ-১ (সদর-হোসেনপুর) আসনে পুনর্নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের ছোটবোন ডা. সৈয়দা জাকিয়া নূর লিপি মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।

আজ বুধবার দুপুর দেড়টার দিকে জেলা কিশোরগঞ্জের প্রশাসক ও রিটার্নিং অফিসারের কার্যালয়ে দলীয় নেতাকর্মীদের সঙ্গে নিয়ে তিনি মনোনয়নপত্র জমা দেন। ডা. সৈয়দা জাকিয়া নূর লিপি মুক্তিযুদ্ধকালীন অস্থায়ী সরকারের রাষ্ট্রপতি শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলামের মেয়ে ও প্রয়াত জনপ্রশাসন মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের ছোটবোন।

রিটার্নিং কর্মকর্তার অনুপস্থিতিতে তার পক্ষে কালেক্টরেটের স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক মো. জহিরুল ইসলাম মনোনয়নপত্রটি গ্রহণ করেন। এ সময় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মো. আব্দুল্লাহ আল মাসউদ, সহকারী রিটার্নিং অফিসার ও কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মাহদী হাসান ছাড়াও জেলা প্রশাসন ও নির্বাচন অফিসের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা উপস্থিত ছিলেন।

অন্যদিকে ডা. সৈয়দা জাকিয়া নূর লিপির সাথে পরিবারের সদস্যদের মধ্যে চাচাতো ভাই অ্যাডভোকেট সৈয়দ আশফাকুল ইসলাম টিটু, মামাতো ভাই মঈনুজ্জামান অপু মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার কাজে অংশ নেন।

এ ছাড়া জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি অ্যাডভোকেট কামরুল আহসান শাহজাহান, সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট এম এ আফজল, জেলা বারের সভাপতি অ্যাডভোকেট প্রিন্সিপাল এম এ রশিদ, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও পিপি অ্যাডভোকেট শাহ আজিজুল হক, কিশোরগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মাহমুদ পারভেজ, কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি অ্যাডভোকেট আতাউর রহমান, হোসেনপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জহিরুল ইসলাম নূরুসহ জেলা আওয়ামী লীগ, কিশোরগঞ্জ সদর ও হোসেনপুর উপজেলা আওয়ামী লীগ ও অঙ্গসহযোগী সংগঠনের নেতার এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

মনোনয়নপত্র জমা দিয়ে ডা. সৈয়দা জাকিয়া নূর লিপি সাংবাদিকদের বলেন, সৈয়দ আশরাফ ছিলেন সবার কাছে একটি আবেগ ও অনুভূতির নাম। তিনি বারবার এ আসন থেকে নির্বাচিত হয়েছেন। গত ৩০ ডিসেম্বরের নির্বাচনেও তাঁকে মানুষ বিপুল ভোটে নির্বাচিত করেছিলেন।

তিনি বলেন, তাঁর ভাই পরিচ্ছন্ন ভাবমূর্তি রক্ষা করে এলাকার ব্যাপক উন্নয়ন করেছেন। ভাই যে স্বপ্ন দেখতেন সেই স্বপ্নগুলো ভাইয়ের হয়ে আমি বাস্তবায়ন করতে চাই। ভাইয়ের আসন থেকে এমপি নির্বাচিত হলে তার অসমাপ্ত কাজগুলো অগ্রধিকার ভিত্তিতে বাস্তবায়ন করব।

আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও জনপ্রশাসনমন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম একাদশ সংসদ নির্বাচনে অসুস্থ অবস্থায় নির্বাচিত হলেও শপথ গ্রহণের আগেই মারা যান। এ অবস্থায় আসনটি শূন্য ঘোষণা করে পুন নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন। আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি এ আসনে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

বিকেল সাড়ে চারটার দিকে কালেক্টরেটের স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক মো. জহিরুল ইসলামের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানিয়েছেন, আওয়ামী লীগের প্রার্থীই মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। অন্য কোনো দলের বা স্বতন্ত্র কোনো প্রার্থী মনোনয়নপত্র জমা দেননি।

এমএ/ ১০:৩৩/ ৩০ জানুয়ারি

কিশোরগঞ্জ

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে