Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, বুধবার, ১৬ অক্টোবর, ২০১৯ , ১ কার্তিক ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.0/5 (20 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)


আপডেট : ১২-২২-২০১৮

কী অপরাধ করেছিল সেই মা, যার সন্তানের খোঁজ নাই : ফখরুল

কী অপরাধ করেছিল সেই মা, যার সন্তানের খোঁজ নাই : ফখরুল

দিনাজপুর, ২২ ডিসেম্বর- বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, স্বৈরশাসন থেকে মুক্তি চায় মানুষ, চায় তাদের অধিকার, কৃষক তার উৎপাদিত ফসলের ন্যায্যমূল্য চায়, শ্রমিক তার ন্যায্য মজুরি চায়, সবমিলে স্বৈরশাসনের অবসান চায় দেশের মানুষ। দেশকে স্বৈরশাসন থেকে মুক্ত করতে ৩০ ডিসেম্বর ধানের শীষে ভোট দিন।

শনিবার দিনাজপুর-৪ নির্বাচনী এলাকার চিরিরবন্দর কেন্দ্রীয় ঈদগাহ মাঠ ও দিনাজপুর-৫ নির্বাচনী এলাকার পার্বতীপুর বাস টার্মিনালে নির্বাচনী পথসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

মির্জা ফখরুল বলেন, এই সরকার বলেছিল, ঘরে ঘরে চাকরি দেবে। কিন্তু চাকরি না দিয়ে ঘরে ঘরে মামলা দিয়েছে। যাদের চাকরি দিয়েছে তাদের ডিএনএ টেস্ট করা হয়েছে। আওয়ামী লীগ ঘরানার হলে চাকরি হয়েছে, তাতেও দিতে হয়েছে কমপক্ষে ১৫ লাখ টাকা ঘুষ। তারা বলেছিল, ১০ টাকা কেজি চাল খাওয়াবে, কৃষকদের বিনামূল্যে সার দেবে। কিন্তু তারা ক্ষমতায় গিয়ে এসব কথা ভুলে গেছে। ৩০০ টাকার সার হয়েছে ১২০০ টাকা, চাল হয়েছে কেজি ৭০ টাকা।

ফখরুল বলেন, এখন ব্রিটিশ নাই, পাকিস্তান নাই; কিন্তু তার চেয়ে বড় স্বৈরাচার আওয়ামী লীগ আমাদের বুক চেপে বসেছে। পুলিশ, প্রশাসন, আদালত সব পক্ষে নিয়েও ভয় পাচ্ছে তারা। নির্বাচন কমিশনকে ঠুঁটো জগন্নাথ বানিয়ে রেখেছে। এরপরও আমরা নির্বাচন করছি। আমরা জানি এ সরকার ক্ষমতায় থেকে সুষ্ঠু নির্বাচন করতে পারবে না। এরশাদ ৯ বছর জোর করে ক্ষমতায় ছিল, তাকেও মানুষ ক্ষমতা থেকে সরিয়েছে। এখন নতুন করে স্বৈরাচার তাড়াতে জেগেছে মানুষ, স্লোগান তুলেছে, ‘আগে জানলে তোর ভাঙা নৌকায় উঠতামনা’।

তিনি বলেন, ‘গত ১০ বছর থেকে বিরোধী দলের নেতাকর্মীরা বাড়িতে থাকতে পারছে না। সরকারের কাছে আমার প্রশ্ন, কি অপরাধ করেছিল সেই মা, যার সন্তানকে তুলে নিয়ে যাওয়া হলো। গত ৫টি বছর সেই মায়ের সন্তানের কোনো খোঁজ নাই। কি অপরাধ করেছে সেই বোন, যার স্বামীকে তুলে নিয়ে যাওয়া হলো। কী অপরাধ করেছে সেই সন্তান, যার বাবার খোঁজ নাই। আমাদের হাজার হাজার নেতাকর্মীদের কারাগারে নেয়া হলো, তুলে নেয়া হলো, কী অপরাধ তাদের’।

মির্জা ফখরুল আরও বলেন, এখন মানুষ খুন-গুম নির্যাতনের হাত থেকে মুক্তি চায়, আমাদের মা-বোন নিরাপত্তা চায়, বেকাররা চাকরি চায়, শ্রমিক ন্যায্য মজুরি চায়, আমরা শান্তিতে বাস করতে চাই। এই খুন-গুম-দুর্নীতি বন্ধ করতে হবে। স্বৈরাচারী শাসন বন্ধ করতে হবে। এই জন্য আগামী ৩০ ডিসেম্বর ধানের শীষ মার্কায় ভোট দিন।

চিরিরবন্দরের নির্বাচনী পথসভায় সভাপতিত্ব করেন- চিরিবন্দর উপজেলা বিএনপির সভাপতি মজিবর রহমান শাহ ও পার্বতীপুরের পথসভায় সভাপতিত্ব করেন উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক জালাল উদ্দিন।

এতে আরও বক্তব্য রাখেন- চিরিরবন্দর উপজেলার ধানের শীষের প্রার্থী আকতারুজ্জামান মিয়া ও দিনাজপুর-৫ আসনের ধানের শীষের প্রার্থী এজেডএম রেজওয়ানুর হক, খালেদা জিয়ার উপদেষ্টা আব্দুল জলিল ও সাবেক এমপি রেজিনা ইসলাম প্রমুখ।

এমএ/ ১১:৪৪/ ২২ ডিসেম্বর

দিনাজপুর

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে