Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, সোমবার, ১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ , ১ পৌষ ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.0/5 (15 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ১২-২০-২০১৮

মৃত বাবাসহ গোলাম মাওলা রনিকে ভূমি কমিশনারের নোটিশ!

মৃত বাবাসহ গোলাম মাওলা রনিকে ভূমি কমিশনারের নোটিশ!

পটুয়াখালী, ২০ ডিসেম্বর- দীর্ঘ ৫৮ বছর পরে শর্ত ভঙ্গের দায়ে পটুয়াখালী-৩ আসনের বিএনপি প্রার্থী গোলাম মাওলা রনিকে নোটিশ দিয়েছে ভূমি প্রশাসন।

একই সঙ্গে রনির মৃত বাবাকে কারণ দর্শনো নোটিশ প্রদান করা হয়েছে। গলাচিপা উপজেলা ভূমি সহকারী কমিশনার মো. সুহৃদ সালেহীনের স্বাক্ষরিত একটি নোটিশ এবং রনির জবাবে এ তথ্য বেরিয়ে আসে।

এদিকে উপজেলা ভূমি প্রশাসন দীর্ঘদিন পরে পাঠানো চিঠি এবং বিবাদী পক্ষের দেয়া জবাবের বিষয়টি আলোচনার সৃষ্টি হয়েছে।

গত ১৭ ডিসেম্বর গলাচিপার সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. সুহৃদ সালেহীন এক নোটিশে উল্লেখ করেন, গোলাম মাওলা রনি অকৃষি খাসজমি অস্থায়ী ব্যবসার জন্য ২০০৭-০৮ সালে বন্দোবস্ত নেন। কিন্তু রনি শর্ত ভঙ্গ করে দ্বিতীয়তলা স্থায়ী পাকা ইমারত নির্মাণ করেছেন। সে ক্ষেত্রে বন্দোবস্ত অঙ্গীকারনামার শর্ত ভঙ্গের দায়ে রনির ইজারা কেন বাতিল হবে না- তা ১৯ ডিসেম্বর ভূমি কার্যালয়ে হাজির হয়ে জবাব দেয়ার অনুরোধ জানানো হয়।

একই নোটিশ রনির মৃত বাবা মো. সাসুদ্দিন মুন্সি, অসুস্থ মা মনোয়ারা বেগম এবং স্ত্রী মোসা. কামরুন নাহার রুনুকেও দেয়া হয়।

এদিকে ১৯ ডিসেম্বর গলাচিপা সহকারী কমিশনার (ভূমি) চিঠির জবাবে রনি লিখিতভাবে জানান, তার বাবা ২০১০ সালে মারা গেছেন এবং তার মা অতিশয় বৃদ্ধা, তাই তাদের হাজির করা অসম্ভব। এবং জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে প্রধান নির্বাচন কমিশনকে অবহিত করেছেন- যা স্থানীয় প্রশাসনকে অবহিত করা হয়েছে।

রনির চিঠিতে আরও উল্লেখ করা হয়, রনির পরিবারকে গলাচিপা সহকারী কমিশনার (ভূমি) কার্যালয়ে হাজির হতে হলে তার সার্বিক নিরাপত্তার ব্যবস্থা ভূমি কর্মকর্তাকে দিতে হবে। রনির চিঠিতে আরও উল্লেখ করা হয়, রনির পরিবার ১৯৬০ সাল থেকে ওই সম্পত্তিতে বসবাস করে আসছেন। কোনো দিন ওই ভূমির মালিকানা দাবি করে দখলিস্বত্ব চ্যালেঞ্জ করেনি। তাই বসবাসকারীদের কোনো ব্যক্তি বা কর্তৃপক্ষ ক্ষতিপূরণ না দিয়ে অধিকার হরণ করতে পারেন না। চান্দিনা ভিটি মূলত দোকান করার জন্য বরাদ্দ দেয়া হয়।

পরে দীর্ঘদিন জমির খাজনা পরিশোধ না হলেও ভূমি অফিস কখনো নোটিশ দেয়নি।

রনি জবাবে বলেন, আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন ঘিরে ভয়াবহতম শ্বাসরুদ্ধকর প্রেক্ষাপটে হঠাৎ করে ভূমি অফিস থেকে এই আলোচ্য চিঠি পাঠানো হলো- তা যেমন সবাই বোঝেন, তেমনি মহামান্য হাইকোর্টও বুঝবেন।

সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. সুহৃদ সালেহীন জানান, শুধু গোলাম মাওলা রনিকেই নোটিশ দেয়া হয়নি। শর্ত ভঙ্গের কারণে ওই এলাকার আরও ১৬ জনকে নোটিশ দেয়া হয়েছে। আরও যারা শর্তভঙ্গ করে পাকা ভবন করেছেন পর্যায়ক্রমে তাদের সবাইকেই নোটিশ দেয়া হবে। গোলাম মাওলা রনি কারণ দর্শানোর নোটিশের জবাব দিয়েছেন।

সূত্র: যুগান্তর
এমএ/ ১১:০০/ ২০ ডিসেম্বর

পটুয়াখালী

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে