Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, সোমবার, ১৭ জুন, ২০১৯ , ৩ আষাঢ় ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.0/5 (26 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ১২-১৩-২০১৮

মামলা দিয়েছে আপনার ভাইয়ের ভায়রা ভাই: মতিয়া চৌধুরী

মামলা দিয়েছে আপনার ভাইয়ের ভায়রা ভাই: মতিয়া চৌধুরী

শেরপুর, ১৩ ডিসেম্বর- আওয়ামী লীগ প্রেসিডিয়াম সদস্য, কৃষিমন্ত্রী ও শেরপুর-২ (নকলা-নালিতাবাড়ী) আসনের আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী বেগম মতিয়া চৌধুরী বিএনপির চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার উদ্দেশে বলেছেন, সাজা পেয়ে আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে অভিযোগ করা তার মানায় না। কারণ খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে এতিমের টাকা মেরে খাওয়ার মামলা দিয়েছেন তারই ‘ভাই সাঈদ এস্কান্দারের ভায়রা ভাই জেনারেল (অব.) মাসুদ উদ্দিন।’

বুধবার (১২ ডিসেম্বর) দুপুরে তার নির্বাচনি এলাকা শেরপুরের নকলা উপজেলার পাঠাকাটা ও চরঅষ্টাধর ইউনিয়নে বিভিন্ন নির্বাচনি পথসভায় মতিয়া চৌধুরী বলেন, ‘দেশের উন্নয়নের জন্য নৌকায় ভোট দিয়ে আবারও আওয়ামী লীগকে ক্ষমতায় বসান। যারা এতিমের টাকা মারে তারা মানবতার শত্রু। এতিমের মাথায় হাত বুলালে বেহেস্তে যাওয়ার পথ প্রশস্ত হয়। অথচ খালেদা জিয়া এতিমের টাকা লুট করে।’

খালেদা জিয়াকে উদ্দেশ্যে করে মতিয়া চৌধুরী বলেন, ‘জেলখানায় বসে আওয়ামী লীগকে গালি দিয়ে লাভ নেই। আপনার বিরুদ্ধে মামলা দিয়েছে আপনার ভাই, সাইদ এস্কান্দারের ভায়রা ভাই জেনারেল মাসুদ উদ্দিন। এখন আমরা কি করব? আপনি ১১ বছর এ মামলাটি আটকাতে তাইরে-নাইরে, তাইরে-নাইরে করেছেন। তখন মামলা শেষ হলে আজ আপনার এমন অবস্থা হতো না।’

এসময় মতিয়া চৌধুরী আরও বলেন, শেখ হাসিনা ক্ষমতায় এলে বছরের প্রথম দিন শিক্ষার্থীরা নতুন বই পায়। দেশের মানুষ বিদ্যুৎ পায়। স্কুল, কলেজ ও মাদরাসার সৌন্দর্য বাড়ে। নতুন স্কুল, কলেজ এবং মাদ্রাসা হয়। দেশের মানুষের আয় বাড়ে। গ্রাম শহর হয়। প্রতিবন্ধী, বয়স্ক ও বিধবা মায়েরা ভাতা পায়। আর বিএনপি ক্ষমতায় এলে কর্মী পালে, কর্মীদের মাস্তান, জুয়াড়ি ও মাদক কারবারি বানায়। টিআর কাবিটার টাকা নয়-ছয় করে।

তারেক রহমানের বিষয়ে মতিয়া চৌধুরীর ভাষ্য, ‘জুয়া খেলা ইসলামে হারাম। অথচ তারেক রহমান ব্রিটিশ সরকারের কাছে তার আয়ের উৎস দেখিয়েছেন ক্যাসিনো। অর্থ্যাৎ সে লন্ডনে জুয়ার ব্যবসা করে। এরা নাকি দেশে ইসলাম কায়েম করবে!’

কৃষিমন্ত্রীর সঙ্গে নকলা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যাপক মোস্তাফিজুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা শফিকুল ইসলাম জিন্নাহ, পৌর মেয়র, উপজেলা চেয়ারম্যান ও সংশ্লিষ্ট ইউনিয়নের ইউপি চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

সূত্র: বাংলা ট্রিবিউন

আর/০৮:১৪/১৩ ডিসেম্বর

শেরপুর

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে