Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, বুধবার, ২১ আগস্ট, ২০১৯ , ৬ ভাদ্র ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.6/5 (14 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ০৫-০১-২০১৩

কমছে ব্যান্ডউইথের দাম


	কমছে ব্যান্ডউইথের দাম

ঢাকা, ১ মে- আরেক দফা কমল ইন্টারনেট ব্যান্ডউইথের দাম। সম্প্রতি বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ কোম্পানি লিমিটেড (বিটিসিএল) ইন্টারনেট সেবাদাতা প্রতিষ্ঠানসহ (আইএসপি) অন্যান্য উচ্চ ব্যান্ডউইথ গ্রাহকদের জন্য প্রতি এমবিপিএস ব্যান্ডউইথের দাম চার হাজার ৮০০ টাকা নির্ধারণ করেছে।  ব্যান্ডউইথের দাম কমার পাশাপাশি উচ্চহারে ব্যবহারের পরিমাণের ওপর শতকরা ১৫ ভাগ থেকে ৩৫ শতাংশ হারে ছাড় দেওয়ারও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

বিটিসিএলের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এস ও এম কলিম উল্যা ঢাকা টাইমসকে জানান, ‘ব্যান্ডউইথের এ দাম কমানোর ক্ষেত্রে মূল মাসিক খরচ চার হাজার ৮০০ টাকার ওপর সরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে ২৫ শতাংশ, বেসরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, প্রশিক্ষণ ও গবেষণাকেন্দ্র, সামরিক শিক্ষা ও প্রশিক্ষণ প্রতিষ্ঠানে ৫ শতাংশ এবং সরকারি অফিস এবং আধাসরকারি, স্বায়ত্তশাসিত ও বিধিবদ্ধ প্রতিষ্ঠানে ৫ শতাংশ হারে ছাড় দেওয়ারও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।’ পাশাপাশি বিটিসিএলের অন্যান্য লিজড লাইন ও ইন্টারনেট সংযোগ খরচও পুননির্ধারণ হয়েছে বলেও জানান তিনি।
 
উল্লেখ্য, আগে প্রতি এমবিপিএস ব্যান্ডউইথের মূল্য ছিল আট হাজার টাকা। এ নিয়ে এই সরকারের আমলে পাঁচবার ব্যান্ডউইথের মূল্য কমানো হলো। এর আগে ২০১২ সালের আগস্ট মাসে ১০ হাজার টাকা প্রতি এমবিপিএসের মূল্য নির্ধারিত হয় আট হাজার টাকা। এ ছাড়া ২০১১ সালের আগস্টে ১২ হাজার টাকা থেকে মূল্য ১০ হাজার টাকায় নির্ধারিত হয়। একই বছরের জানুয়ারি মাসে ১৮ হাজার টাকার ব্যান্ডউইথের খুচরা মূল্য নির্ধারিত হয় ১২ হাজার টাকা। ২০০৯ সালের জুলাইয়ে ব্যান্ডউইথের মূল্য ২৭ হাজার টাকা থেকে কমিয়ে ১৮ হাজার টাকা নির্ধারিত হয়।
 
দফায় দফায় ব্যান্ডউইথের খুচরা মূল্য কমলেও গ্রাহক পর্যায়ে এর তেমন কোনো প্রভাবাই পড়ছে না। গ্রাহকের ইন্টারনেট ব্যবহারের খরচ কমছে না। এ বিষয়ে ইন্টারনেট সেবাদাতাদের সংগঠন আইএসপি অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের সভাপতি মো. আক্তারুজ্জামান বলেন, ‘আমাদের লক্ষ্য ভালো সেবা দেওয়া। যত বেশি ভালো সেবা দেওয়া সম্ভব, সেটাই আমরা চাই। তা ছাড়া সদস্যদের মধ্যে একধরনের প্রতিযোগিতাও আছে। ব্যান্ডউইথের পাশাপাশি ভ্যাটটাও কমাতে হবে।’ তিনি যোগ করেন, ‘শুধু ব্যান্ডউইথের দাম কমানোর বিষয়টিই মূল নয়, পাশাপাশি অন্য বিষয়গুলো মাথায় রাখলে গ্রাহকদের উন্নত সেবা দিতে আমাদের সমস্যা থাকার কথা নয়।’।
 
জানা গেছে, আন্তর্জাতিক ইন্টারনেট গেটওয়েগুলোর (আইআইজি) জন্য প্রতি এমবিপিএস তিন হাজার ৮০০ টাকা এবং এসপিএসপিদের জন্য পাইকারি মূল্য প্রতি এমবিপিএস চার হাজার ২০০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে।

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে