Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

Login
ইউনিজয়
ফনেটিক
English

গড় রেটিং: 3.0/5 (115 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

print

আপডেট : ০৩-১১-২০১৮

গ্রিসে নারী দিবস ও প্রথমবারের মতো বসন্ত উৎসব উদযাপন

গ্রিসে নারী দিবস ও প্রথমবারের মতো বসন্ত উৎসব উদযাপন

এথেন্স, ১১ মার্চ- গ্রিসের রাজধানী এথেন্স ও পার্শ্ববর্তী শহরে বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশি নারীদের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত হয়েছে আন্তর্জাতিক নারী দিবসের আলোচনা ও প্রথমবারের মতো বর্ণিল বসন্ত উৎসব উদযাপন। এর আয়োজন করে এথেন্সের বাংলাদেশ দূতাবাস। প্রবাসী নারীরা তাদের কন্যাশিশুদের নিয়ে এ অনুষ্ঠানে যোগদান করেন।

বাংলাদেশ থেকে অনেক দূরে পরিবার, আত্মীয়-স্বজন ও বন্ধু-বান্ধববিহীন ব্যস্ত জীবনে এ আয়োজন ছিল অত্যন্ত আনন্দময়। অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণকারী নারীরা প্রাণঢালা উচ্ছ্বাস ও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। বসন্ত উৎসব অনুষ্ঠানে তারা তাদের ভালো লাগা পরস্পরের সঙ্গে ভাগ করেন এবং প্রত্যেকেই গান, নৃত্য, আবৃত্তি অথবা কৌতুক পরিবেশন করেন। তাদের মুখরতায় এথেন্সে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূতের সরকারি বাসস্থান বাংলাদেশ হাউস চাঁদের হাটে পরিণত হয়।

আন্তর্জাতিক নারী দিবসের আলোচনায় নারীরা তাদের স্বপ্ন ও ভবিষ্যৎ পরিকল্পনার কথা রাষ্ট্রদূতকে অবহিত করেন। সংসার ও সন্তান সঠিকভাবে পরিচর্যা করার পরও গ্রিসে উল্লেখযোগ্যসংখ্যক বাংলাদেশি নারী কর্মজীবী বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, ব্যাংক ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে কর্মরত রয়েছেন। এ ছাড়া তারা সাংস্কৃতিক ও সামাজিক কর্মকাণ্ডেও উল্লেখযোগ্য অবদান রাখছেন।

দেশের উন্নয়নে সুদূর গ্রিসে থেকেও নারীরা সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করছেন। পুরুষের পাশাপাশি তারা রেমিট্যান্স প্রেরণ করে গ্রিসের অবস্থান ৩০টি অগ্রবর্তী দেশের তালিকায় ২৬ থেকে ২০-এ নিয়ে এসেছেন। বৈধ পথে রেমিট্যান্স প্রেরণে উদ্বুদ্ধ করার জনসচেতনতামূলক নাটিকায় অভিনয় করেছেন। প্রবাসী বাংলাদেশিদের বিনা মূল্যে অনলাইনে গ্রিক ভাষা শিক্ষা কোর্স বাংলায় শেখাচ্ছেন। আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে দূতাবাস কর্তৃক ইংরেজি ভাষায় নির্মিত মিউজিক ভিডিওতে পুরুষের পাশাপাশি অংশগ্রহণ করেন। এ ছাড়া সুসংগঠিত এবং নিজেদের সমস্যা সমাধানে একযোগে কাজ করছেন। গ্রিসের বাংলাদেশ দূতাবাস সর্বতোভাবে নারীদের বিভিন্ন কর্মকাণ্ডে সহযোগিতা করে যাচ্ছে।

আন্তর্জাতিক নারী দিবসের আলোচনা অনুষ্ঠানে রাষ্ট্রদূত মো. জসীম উদ্দিন বলেন, আন্তর্জাতিক অঙ্গনে সারা বিশ্বে নারীরা আজ অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখে চলেছেন। তিনি বলেন, বাংলাদেশ নারী ক্ষমতায়নের রোল মডেল। রাষ্ট্রদূত আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। ২০২১ সালের মধ্যে মধ্যম আয়ের ও ২০৪১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ উন্নত দেশের কাতারে দাঁড়াবে। তিনি গ্রিসপ্রবাসী নারীদের প্রত্যেককে একেকজন বেগম রোকেয়া হিসেবে উল্লেখ করে সকলে মিলে কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে এগিয়ে যাওয়ার আহ্বান জানান।

রাষ্ট্রদূতের সহধর্মিণী শায়লা পারভীন বলেন, নারীদের সক্রিয় অংশগ্রহণে আয়োজনটি স্মরণীয় একটি দিনে পরিণত হয়েছে। এ জন্য তিনি তাদের ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।

অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন দূতাবাসের কাউন্সেলর ড. সৈয়দা ফারহানা নূর চৌধুরী।

আরও উপস্থিত ছিলেন দূতাবাসের প্রথম সচিব সুজন দেবনাথ, দূতাবাসের অন্যান্য কর্মকর্তা-কর্মচারী ও তাদের পরিবারের সদস্যরা।

সূত্র: প্রথম আলো
এমএ/ ১১:৪৪/ ১১ মার্চ

অন্যান্য

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে