Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, মঙ্গলবার, ২৮ জানুয়ারি, ২০২০ , ১৫ মাঘ ১৪২৬

গড় রেটিং: 3.0/5 (36 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)


আপডেট : ০৭-৩১-২০১৭

‘বিকৃত যৌনাচার’ : কর্মকর্তাদের ওপর এতিম শিশুদের হামলা

‘বিকৃত যৌনাচার’ : কর্মকর্তাদের ওপর এতিম শিশুদের হামলা

সাতক্ষীরা, ৩১ জুলাই- এতিম শিশুদের বিকৃত যৌন নিপীড়ন ও ঠিকমতো খেতে না দেওয়াসহ নানা অভিযোগে একত্রিত হয়ে চার কর্মকর্তা-কর্মচারীকে পিটিয়েছে সাতক্ষীরা সরকারি শিশু পরিবারের ৭২ শিক্ষার্থী। দীর্ঘদিনের ক্ষোভ থেকে এমনটি হয়েছে বলে মনে করেন সাতক্ষীরা সুশীল সমাজের নেতৃবৃন্দ। রোববার রাতে সাতক্ষীরা শহরের সরকারি শিশু পরিবারে এ ঘটনাটি ঘটেছে।আহতরা হলেন—অফিস সহকারী সাতক্ষীরার দেবনগর এলাকার খলিলুর রহমানের ছেলে তানভীর হোসেন, গোপালগঞ্জ জেলার বিমল বৈরাগী, বড় ভাই (পদের নাম) নওগাঁ জেলার মোজাফফার হোসেনের ছেলে আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ বিন হোসেন ও কৌশিক।

সোমবার সকালে ঘটনাস্থলে গিয়ে শিশুদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, সরকারি সুযোগ সুবিধা থেকে তারা বঞ্চিত। তারা অসুস্থ হলেও তাদের ঠিকমতো চিকিৎসা সেবা হয় না। এ ছাড়া প্রয়োজনীয় খাদ্যও দেওয়া হয় না। শিশুরা কাঁদতে কাঁদতে বলে, কর্মকর্তারা এতিম শিশুদের ওপর বিকৃত যৌনাচার চালায়। কথা না শুনলে ছোট ছোট বাচ্চাদের বেদম মারপিট করে তারা। এ বিষয়ে কারো কাছে নালিশ করলে তাদের জন্য আরো কঠিন শাস্তির ব্যবস্থা করা হয়। তারপরও তারা ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে বার বার বিচার দিলেও কোনো ফল পায়নি। কর্মকর্তা-কর্মাচারীদের কাজে অতিষ্ঠ হয়ে কোনো উপায় না পেয়ে তারা এ কাজ করেছে বলে জানায়।

সরকারি শিশু পরিবারের ব্যবস্থাপনা কমিটির একজন সদস্য নাম প্রকাশ না করার শর্তে জানান, এখানে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বিরুদ্ধে অভিযোগের শেষ নেই। এখানকার কর্মকর্তারা শিশুদের ওপর অমানুষিক নির্যাতন করে। এমনকি ন্যাক্কারজনক যৌন নির্যাতনও করা হয়। সদস্য হলেও কোনো মিটিংয়ে তাকে ডাকা হয় না।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মারুফ আহমেদ জানান, সদরের ভারপ্রাপ্ত ইউএন ও পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদশর্ন করেছে। আমরা যতদূর জেনেছি শিশু পরিবারের একজন কর্মকর্তার বিরুদ্ধে শিশুদের নির্যাতন, গা-হাত-পা টিপিয়ে নেওয়ার অভিযোগে শিশুরা এমনটি করেছে। এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানান ওসি।

এ বিষয়ে সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক (ডিসি) আবুল কাশেম মো. মহিউদ্দিন  জানান, শিশু পরিবারের ঘটনাটি নিয়ে তিন সদস্যের কমিটি গঠন করা হয়েছে। সাতক্ষীরা সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নুর আহমেদ স্বজলকে প্রধান করে কমিটি গঠন করা হয়। কমিটি প্রতিবেদন দিলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানান জেলা প্রশাসক।

তবে আহত অফিস সহকারী তানভীর হোসেন বলেন, ‘আমাদের সঙ্গে শিশুদের কোনো সমস্যা নেই। কিন্তু কেন তারা আমাদের মারপিট করেছে বুঝতে পারছি না।’

কতজন মেরেছে এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘৭২ জন শিক্ষার্থীই তাদের ওপর হামলা চালিয়েছে।’

সাতক্ষীরা

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে