logo

স্কাইপিতে মেয়ের বিয়ে দিতে গিয়ে বাবা আটক

স্কাইপিতে মেয়ের বিয়ে দিতে গিয়ে বাবা আটক

নারায়ণগঞ্জ, ২৫ জুন- প্রবাসী ছেলের সঙ্গে স্কাইপিতে নাবালিকা মেয়ে তাহমিনা আক্তারের (১৪) বিয়ের আয়োজন করার ঘটনায় আটক হয়েছেন বাবা জাহাঙ্গীর।

মঙ্গলবার রাত ৯টায় ফতুল্লার কাশিপুর এলাকার দক্ষিণ নরসিংপুর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। তাহমিনা কাশিপুর হাটখোলা উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর ছাত্রী। তার রোল নাম্বার ২।

বিয়ের প্রতিবাদ করে তাহমিনা আত্মহত্যা করার চেষ্টা করলে ভ্রাম্যমাণ আদালতের পুলিশ জাহাঙ্গীরকে আটক করে বিচারের মুখোমুখি করে।

নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার নির্বার্হী কর্মকর্তা (ইউএনও) গাউছুল আজম জানান, রাতে স্কাইপির মাধ্যমে মুন্সিগঞ্জ জেলার কালিগঞ্জ এলাকার প্রবাসী হাবিবুর রহমানের সঙ্গে বিয়ের আয়োজন করে তাহমিনার বাবা। কিন্তু তাহমিনা এ বিয়েতে রাজি না থাকায় সে আত্মহত্যার চেষ্টা করে। এলাকাবাসীর মাধ্যমে খবর পেয়ে ফতুল্লা থানা পুলিশের সহযোগিতায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে অভিযান চালিয়ে জাহাঙ্গীরকে আটক করা হয়।

তাহমিনার বরাত দিয়ে ইউএনও আরও জানান, গত তিন মাস আগেও একবার বিয়ে দেয়ার চেষ্টা করা হয়। তখন তাহমিনা তার স্কুলের প্রধান শিক্ষক শামসুল হককে জানালে তিনি বিয়ে বন্ধ করে দেন। মঙ্গলবার আবার তার বাবা দ্বিতীয়বার বিয়ের ব্যবস্থা করেন। সে বিয়েতে রাজি না থাকায় আত্মহত্যার চেষ্টা করে।

তাহমিনা এ বিষয়ে তার বাবা জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দিয়েছে ইউএনওর কাছে। তাহমিনা তার লেখাপড়া চালিয়ে যেতে ইচ্ছুক বলে জানিয়েছে।

এ ঘটনায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে তাহমিনার বাবা জাহাঙ্গীরের সাজা নির্ধারণ করা হবে বলে জানান গাউছুল আজম।