logo

স্পেনে বাংলাদেশিদের ঈদ উদ্‌যাপন

বকুল খান


স্পেনে বাংলাদেশিদের ঈদ উদ্‌যাপন

মাদ্রিদ, ০১ সেপ্টেম্বর- আনন্দ ও উৎসবমুখর পরিবেশে স্পেনপ্রবাসী বাংলাদেশিরা আজ ১ সেপ্টেম্বর শুক্রবার ঈদুল আজহা পালন করেছেন। স্পেনের মাদ্রিদের প্রাণকেন্দ্র বাংলাদেশি অধ্যুষিত লাভা পিয়াসের কাসিনো পার্কের খোলা মাঠে ঈদের দুটি জামাত অনুষ্ঠিত হয়। এ ছাড়া মাদ্রিদে বাংলাদেশিদের সবচেয়ে বড় মসজিদ ভেনতাসে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়।

দুই স্থানেই হাজার হাজার প্রবাসীর উপস্থিতিতে গোটা এলাকা বাংলাদেশি মুসলমানদের মিলনমেলায় রূপ লাভ করে। শত ব্যস্ততার মাঝে এই একটা দিন প্রবাসী সবাই মিলিত হন উৎসবের আমেজে। গ্রীষ্মকালীন ছুটি থাকায় এবারের ঈদুল আজহায় প্রবাসী বাংলাদেশি শিশু-কিশোরদের মধ্যে বেশ উৎসাহ এবং একটা উৎসব আমেজ দেখা যায়। অনেকে সপরিবারে লম্বা ছুটিতে দেশে রয়েছেন।

ভেনতাসে সকাল সাড়ে ৮টায় কয়েক হাজার মুসল্লির উপস্থিতিতে ঈদের নামাজের বিরাট জামাত অনুষ্ঠিত হয়। এখানে নামজ আদায় করেন স্পেনে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত হাসান মাহমুদ খন্দকার ও দূতাবাসের কমার্শিয়াল কাউন্সেলর নাভিদ শফিউল্লাহ। কাসিনো পার্কে ঈদের জামাতে বাংলাদেশির পাশাপাশি বিশ্বের বিভিন্ন দেশের ধর্মপ্রাণ মুসলমানেরা অংশ নেন।


তারা জড়ো হতে থাকেন সকাল থেকেই। নানা দেশের নানা বর্ণের ভিন্ন ভিন্ন ভাষাভাষী মানুষ এক কাতারে শামিল হয়ে ঈদের নামাজ আদায় করেন। প্রথম নামাজের জামাত অনুষ্ঠিত হয় সকাল সাড়ে ৮টায় আর দ্বিতীয় জামাত অনুষ্ঠিত হয় সাড়ে ৯টায়। এখানে বাংলাদেশ দূতাবাসের মিনিস্টার ও হেড অব চ্যান্সারি হারুন আল রাশিদসহ বাংলাদেশি সামাজিক ও রাজনৈতিক সংগঠনের নেতা-কর্মী এবং কমিউনিটির শীর্ষ ব্যক্তিরা অংশ নেন।

ঈদুল আজহা উপলক্ষে প্রবাসী বাংলাদেশিদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন বাংলাদেশে অ্যাসোসিয়েশনের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি কাজি এনায়েতুল করিম, সাধারণ সম্পাদক কামরুজ্জামান সুন্দর, সাবেক সম্পাদক মিনহাজুল আলম, সহসভাপতি জাকির হোসেন, আওয়ামী লীগের স্পেন শাখার সাধারণ সম্পাদক জহিরুল ইসলাম, বাংলাদেশ প্রেসক্লাব অব স্পেনের সভাপতি এ কে এম জহিরুল ইসলাম, সহসভাপতি জাহিদুল হক, গ্রেটার সিলেট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি লুতফুর রহমান, সহসভাপতি খায়রুজ্জামান জামান, ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক ছানুর মিয়া, গ্রেটার নোয়াখালী অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মো. সেলিম, সম্পাদক আবুল কাশেম, গ্রেটার নোয়াখালী সমিতির সভাপতি মাসুদ রানা, সাবেক সভাপতি মানিক মিয়া, বিক্রমপুর-মুন্সিগঞ্জ সমিতির সভাপতি গোলাম মোস্তফা ও কুমিল্লা সমিতির সভাপতি রুবেল মজুমদার।


মাদ্রিদ ছাড়াও স্পেনের বার্সেলোনা, মালাগা, আলিকান্তে, মুরছিয়া, সেভিলা, গ্রানাদা ও কর্দোভাসহ বিভিন্ন শহরে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়। অনেক বাংলাদেশি নারীও ঈদের নামাজ আদায় করেন।

নামাজ শেষে মোনাজাতে মুসলিম বিশ্বের শান্তি, সম্প্রীতি ও সমৃদ্ধির জন্য দোয়া করা হয়। বিশেষ করে মিয়ানমারের রোহিঙ্গা মুসলমানদের অমানবিক নির্যাতন ও নিপীড়ন থেকে মুক্তির জন্য এবং বার্সেলোনায় গাড়ি হামলায় নিহতের স্মরণে দোয়া করা হয়।

মোনাজাত শেষে প্রবাসীরা শুভেচ্ছা বিনিময় আর নিজেদের মাঝে সুখ-দুঃখ ভাগাভাগি করে কিছুটা হলেও খুঁজে পান শিকড়ের টান। কেউ কেউ জানান গ্রীষ্মের ছুটি থাকায় এবারের ঈদে যোগ হয়েছে বাড়তি আনন্দ।

এই ঈদে কেনাকাটার চেয়ে মুসলমানেরা পশু কোরবানির নিয়ে ব্যস্ত থাকেন বেশি। কিন্তু স্পেনের আইন অনুযায়ী প্রকাশ্যে পশু কোরবানি দেওয়া যায় না। তাই মাংস ব্যবসায়ীদের মাধ্যমে বাংলাদেশিরা কোরবানি দেন।

আর/১০:১৪/০১ সেপ্টেম্বর