শিক্ষা

প্রাথমিক শিক্ষকদের চাকরি অবদলিযোগ্য

ঢাকা, ১৩ জুলাই – প্রাথমিক স্কুলের কোনো শিক্ষক এক উপজেলা থেকে বদলি হয়ে অন্য উপজেলার স্কুলে যোগদান করলে তার অতীতের সকল অভিজ্ঞতা বাতিল হয়ে নতুন স্কুলে যোগদানের তারিখ থেকে জ্যেষ্ঠতার হিসাব শুরু হয়। বদলির এমন নিয়ম নিয়ে শিক্ষকদের মধ্যে চরম অসন্তোষ রয়েছে।

সম্প্রতি এ বিষয়ে কথা বলেছেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (বিদ্যালয়) রতন চন্দ্র পন্ডিত। তিনি বলেন, প্রাথমিক স্কুলে শিক্ষকতা অবদলিযোগ্য চাকরি। তারপরও যারা বদলি হন, অতীতের অভিজ্ঞতা গণ্য হবে না- এমন শর্ত মেনেই তারা বদলি হন। এখানে অভিযোগের কিছু নেই।

তিনি আরো বলেন, যে শিক্ষক এক উপজেলা থেকে অন্য উপজেলায় বদলি হয়ে যাচ্ছেন সেখানে বহিরাগত হিসেবে যাচ্ছেন। তার আগের কর্মস্থলের অভিজ্ঞতা হিসেবে নেওয়া হলে উপজেলার শিক্ষকরা পদোন্নতির ক্ষেত্রে বঞ্চিত হবেন। তাই বদলি হওয়ার শিক্ষকদের আগের অভিজ্ঞতা গণ্য করা হয় না। প্রাথমিক শিক্ষকদের বদলি না হওয়ার পক্ষে তার মত।

এ সমস্যার ভুক্তভোগী একজন শিক্ষক নাঈমা জান্নাত। তিনি বলেন, দীর্ঘ ১১ বছর ভৈরব প্রাথমিক স্কুলে শিক্ষকতা করেছি। ২০১৮ সালে ঢাকার একটি স্কুলে বদলি হয়ে আসি। নতুন কর্মস্থলে বদলি হয়ে আসায় শিক্ষকদের জ্যেষ্ঠতার তালিকায় আমার নাম উঠছে না। এ বিষয়ে লালবাগ থানা শিক্ষা অফিসে যোগাযোগ করা হলে সেখান থেকে জানানো হয়, আগামী ১০ বছরেও জ্যেষ্ঠতার তালিকায় আমার নাম আসবে না।

জান্নাত ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, বদলি হয়ে এসে কি আমি অপরাধ করেছি? শুধু আমি নয়, সারা দেশে হাজার হাজার সহকারী শিক্ষক রয়েছেন, যারা নিজ উপজেলা থেকে অন্য উপজেলা, জেলা ও মহানগরে বদলি হওয়ার পর জ্যেষ্ঠতা পাচ্ছেন না। বদলি হওয়ার কারণে তাদের অতীতের সব অভিজ্ঞতা শূন্য হয়ে গেছে। অর্থাৎ বদলি হওয়া নতুন জায়গায় তিনি শূন্য থেকে চাকরি শুরু করছেন। সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পদোন্নতির ক্ষেত্রে বদলির পরের অভিজ্ঞতাকে কাউন্ট করা হয় না। এটা খুবই হতাশাজনক।

ভুক্তভোগী আরো কয়েকজন শিক্ষক বলেন, এটা কোনো নিয়ম হতে পারে না। কোনো সরকারি চাকরিতে এমন নিয়ম নেই। প্রাথমিকে কেন এ আজব পদ্ধতি অনুসরণ করা হচ্ছে। প্রাথমিকের কোনো একজন সহকারী শিক্ষক দীর্ঘদিন কোনো স্কুলে চাকরি করে অন্য স্কুলে যোগদান করলে তার অতীতের সকল অভিজ্ঞতা বাতিল! নতুন স্কুলে যোগদানের তারিখ থেকে তার জ্যেষ্ঠতার হিসাব শুরু হয়। খুব দ্রুত এ সমস্যার সমাধান হওয়া প্রয়োজন। যাতে করে বদলি হলে আগের অভিজ্ঞতা ধরা হয়।

এ বিষয়ে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা বলছেন, প্রাথমিক স্কুলের শিক্ষকদের নিয়োগ দেয়া হয় স্থানীয়ভাবে। যেটা অন্য কোনো চাকরিতে নেই। নিয়োগে স্পষ্ট লেখা থাকে তিনি নিজ উপজেলার মধ্যে সারাজীবন চাকরি করবেন। তারপরও অনেকে বদলি হয়ে অন্যত্র চলে যান। সেই বদলি নীতিমালায় বলা থাকে, তিনি বদলি হলে আগের অভিজ্ঞতা আর গণ্য করা হবে না। এটা জেনেই তিনি বদলি হন।

সূত্র: বাংলাদেশ জার্নাল
এম ইউ/১৩ জুলাই ২০২১

Back to top button