শিক্ষা

প্রত্যেক জেলায় বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা করা হবে

ঢাকা, ২০ জুন – গ্রিন ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশের চতুর্থ সমাবর্তন অনুষ্ঠিত হয়েছে। শনিবার (১৯ জুন) ভার্চুয়াল মাধ্যমে আয়োজিত এই সমাবর্তনে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি সভাপতিত্ব করেন। এ সময় তিনি বাংলাদেশের প্রতিটি জেলায় একটি করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠায় সরকারের উদ্যোগের কথা তুলে ধরেন।

সমাবর্তনে বক্তব্য রাখেন শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী এমপি; বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের সদস্য অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ আলমগীর।

অনুষ্ঠানে সমাবর্তন বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ অ্যাক্রেডিটেশন কাউন্সিলের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. মেসবাহউদ্দিন আহমেদ। বক্তব্য রাখেন গ্রিন ইউনিভার্সিটির বোর্ড অব ট্রাস্ট্রিজের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মামুন, উপাচার্য অধ্যাপক ড. মোঃ গোলাম সামদানী ফকির, উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মোঃ আব্দুর রাজ্জাক ও কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. মোঃ ফায়জুর রহমান।

সমাবর্তনে সভাপতির বক্তব্যে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেন, করোনাকালীন সময়ে অনলাইনে পাঠদান ইতোমধ্যেই দেশের শিক্ষাব্যবস্থার ইতিবাচক পরিবর্তন এনে দিয়েছে। গ্রিন ইউনিভার্সিটির ভার্চুয়াল সমাবর্তনও সেই ধারাবাহিকতার সুফল। বক্তৃতায় করোনাকালীন গ্রিন ইউনিভার্সিটির অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রমের ভূয়সী প্রশংসা করেন শিক্ষামন্ত্রী।

মন্ত্রী বলেন, আমরা দক্ষ মানব শক্তি তৈরিতে বিশ্বাসী এবং এজন্য উচ্চশিক্ষার বিকল্প নেই। বর্তমান সরকারও শিক্ষার এই গুরুত্ব উপলব্ধি করে ‘সবার জন্য শিক্ষা’ লক্ষ্যের উপর জোর দিয়ে আসছে। ইতোমধ্যেই সরকার বিভিন্ন স্থানে সরকারি-বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের অনুমোদন দিয়েছে। ভবিষ্যতে সকল জেলায় বিশ্ববিদ্যালয় গড়ে তোলা হবে।

সমাবর্তনে মোট এক হাজার ৩৪০ জনের মধ্যে ৯৮০ জন গ্র্যাজুয়েটকে স্নাতক ডিগ্রি এবং ৩৬০ জনকে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি প্রদান করা হয়।

সূত্র : একুশে
এন এইচ, ২০ জুন

Back to top button