নড়াইল

৪১ লাখ টাকায় গড়মিল, বরখাস্ত শিক্ষক

৪১ লাখ টাকায় গড়মিল, বরখাস্ত শিক্ষক

নড়াইল, ১৭ জুলাই- নড়াইল সদর উপজেলার সিংগাশোলপুর কে.পি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক স্বপন কুমার বিশ্বাসকে দুর্নীতি, অনিয়ম ও স্বেচ্ছাচারিতার অভিযোগে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ প্রাথমিকভাবে প্রমাণিত হওয়ায় এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিদ্যালয়টির পরিচালনা কমিটি।

এ তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করে বিদ্যালয়টির পরিচালনা কমিটির সভাপতি খায়রুজ্জামান এ প্রতিবেদককে বলেন, ‘তার বিরুদ্ধে আনা সকল অভিযোগ প্রাথমিকভাবে প্রমাণিত হয়েছে। তাই কর্মস্থল থেকে তাকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করা হয়েছে।’

বিদ্যালয়টির প্রধান শিক্ষক মোড়ল আবুল হোসেন বলেন, ‘স্বপন কুমার বিশ্বাসের বিভিন্ন অনিয়ম-দুর্নীতির কারণে তাকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করা হয়েছে। আমি বরখাস্তকৃত চিঠি তাকে দিতে গেলে তিনি তা গ্রহণ করেননি। বিধায় চিঠিটি ডাকযোগে চিঠি পাঠানো হয়েছে।’

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, কে.পি বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক থাকা কালে স্বপন কুমার বিশ্বাসের নামে সরকারি বই বিক্রি করে ৪০ হাজার টাকা আত্মসাৎ করার অভিযোগ উঠে। একইসঙ্গে বিদ্যালয়ের বিভিন্ন খাত থেকে উপার্জিত ৪১ লাখ ৭৮ হাজর ২৩৮ টাকার সঠিক হিসেব তিনি দিতে পারেননি।

এমনকি উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে বিদ্যালয়ে কর্মরত কোষাধ্যক্ষের কাছ থেকে হিসাবের (টালি) খাতাও নিয়ে যান শিক্ষক স্বপন কুমার। অনেকবার সেই খাতা চেয়েও তিনি দেননি।

  আরও পড়ুন:  নতুন আতঙ্কে কালীগঞ্জের চাষীরা, ৪ মাসে ২১ কৃষকের ক্ষতি

এমনকি স্কুলের প্রধান শিক্ষককে কাজে সহায়তা না করা এবং সহকারী শিক্ষকদের সঙ্গে অসৌজন্যমূলক আচরণ করারও অভিযোগ আছে তার বিরুদ্ধে।

সব অভিযোগ প্রাথমিকভাবে প্রমাণিত হওয়ায় তাকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করা হয়।

এ ব্যাপারে জানতে চাওয়া হলে অভিযুক্ত শিক্ষক স্বপন কুমার বলেন, ‘আমি কোনো চিঠি হাতে পাইনি।’

সূত্র: বাংলাদেশ জার্নাল

আর/০৮:১৪/১৭ অক্টোবর

Comments

Back to top button