জাতীয়

তেল-গ্যাস অনুসন্ধানে সহযোগিতা করতে চায় মার্কিন কোম্পানি: পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী

ঢাকা, ১৪ অক্টোবর- বঙ্গোপসাগরে তেল-গ্যাস অনুসন্ধানে মার্কিন কোম্পানি আগ্রহ দেখিয়েছে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম।

বুধবার রাতে (১৪ অক্টোবর) হোটেল ওয়েস্টিনে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের উপ-পররাষ্ট্রমন্ত্রী স্টিফেন ই বিগানের সঙ্গে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর এক বৈঠকে এ নিয়ে আলোচনা হয়। আলোচনায় সাগরে তেল-গ্যাস অনুসন্ধ্যান সহযোগিতা করতে চায় মার্কিন কোম্পানি।

বাংলাদেশের পাশ্ববর্তী দু’দেশ মিয়ানমার ও ভারতের সঙ্গে বিরোধপূর্ণ সমুদ্র এলাকা নিষ্পত্তির পর ১ লাখ ১৮ হাজার ৮১৩ বর্গকিলোমিটারের টেরিটরিয়াল সমুদ্রসহ বড় একটি অঞ্চলের ওপর বাংলাদেশের সার্বভৌম অধিকার প্রতিষ্ঠিত হয়। এরপর থেকেই বঙ্গোপসাগরে তেল-গ্যাস অনুসন্ধানের বিষয়টি জোরদার করা হয়।

আরও পড়ুন: ঢাকায় পৌঁছেই দ্বিপক্ষীয় বৈঠকে মার্কিন উপ-পররাষ্ট্রমন্ত্রী

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম বলেন, বঙ্গোপসাগরে তেল-গ্যাস অনুসন্ধানের পাশাপাশি যুক্তরাষ্ট্রের কোভিড ভ্যাকসিন, বাংলাদেশের শিক্ষার্থীদের জন্য ভিসা দেওয়ার ক্ষেত্রে যুক্তরাষ্ট্র সিদ্ধান্ত নেবে। এছাড়া রোহিঙ্গা সংকট নিয়ে দীর্ঘমেয়াদী সমাধানে আমরা যেতে চাই না বলে যুক্তরাষ্ট্রকে জানিয়েছি। তবে যুক্তরাষ্ট্র বলেছে, প্রতিবেশী দেশগুলোকে এ বিষয়ে সম্পৃক্ত করা প্রয়োজন।

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের খুনি রাশেদ চৌধুরীকে ফেরতের দেওয়ার বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। তবে এ ব্যাপারে এখনই বিস্তারিত জানানো সম্ভব নয়।

বুধবার বিকেলে দিল্লি থেকে একটি বিশেষ ফ্লাইটে ঢাকায় আসেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ডেপুটি সেক্রেটারি অব স্টেট স্টিফেন ই বিগান। ঢাকা সফরের প্রথম দিন সন্ধ্যায় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলমের সঙ্গে বৈঠক করেন তিনি। বৈঠককালে ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল মিলার উপস্থিত ছিলেন।

সূত্র : আরটিভি
এন এইচ, ১৪ অক্টোবর

Back to top button