নাটোর

সরকারি ঘরের জন্য ১০ হাজার টাকা আদায়ের অভিযোগ

নাটোর, ০৭ ফেব্রুয়ারি – বাড়ি বাড়ি কাজ করে সংসার চলে সিংড়া উপজেলার গুনাইখাড়া ভাটোপাড়া গ্রামের ভূমিহীন ফুল বিবির। স্বামী গাফফার আলী মারা গেছেন প্রায় ২০ বছর আগে। সরকারি ঘর পাওয়ার জন্য ১১ মাস আগে ১০ হাজার টাকা তুলে হাতিয়ান্দহ ইউপির ১ নম্বর ওয়ার্ড সদস্য মেহের আলীর হাতে দিয়েছেন বলে জানান এই নারী।

ফুল বিবির অভিযোগ, এ বিষয়ে গত ৩ ফেব্রুয়ারি সিংড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে ওই ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে একটি লিখিত অভিযোগ করেন তিনি। এরপর থেকে গোপনে টাকা দিয়ে মীমাংসা ও অভিযোগ তুলে নিতে প্রতিনিয়তই তাকে হুমকি দিচ্ছেন ওই ইউপি সদস্য।

আরও পড়ুন : ১০ দফা দাবিতে নওগাঁয় মানববন্ধন করছে নার্সিং ইনস্টিটিউটের ছাত্র-ছাত্রীরা

এদিকে রবিবার সকাল ১০টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত একটানা চার ঘণ্টা ওই ভূমিহীন ওই বৃদ্ধাকে ভূমি অফিসে ডেকে বসিয়ে রাখেন সহকারী কমিশনার (ভূমি) রকিবুল হাসান। পরে বিষয়টি নিয়ে কোন সুরাহা না পেয়ে তখন নিজের জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে সিংড়া থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জি ডি) করেন ভুক্তভোগী ফুল বিবি।

তিনি বলেন, ‘বাবা সরকারি ঘর পেতে মেম্বারকে ১০ হাজার টাকা দিছি। এখন হামার কষ্টের টাকাডা স্যারের সামনে ফেরত দেক। কিন্তু মেম্বার গোপনে টাকাডা ফেরত দিতে গেছে।’

টাকা না নেয়ায় তাকে এখন রাস্তা-ঘাটে ভয়-ভীতি দেখানো হচ্ছে বলে জানান তিনি।

তবে অভিযুক্ত ইউপি সদস্য মেহের আলী জানান, তার বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ করা হয়েছে। আর কাউকে হুমকিও দেননি বলে জানান তিনি।

সিংড়া থানার ভারপ্রাপ্ত তদন্ত কর্মকর্তা (ওসি) রফিকুল ইসলাম এ ঘটনায় জিডি করার বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

অন্যদিকে সিংড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এম.এম সামিরুল ইসলাম জানান, তার দপ্তরে ইউপি সদস্য মেহের আলীর বিরুদ্ধে ওই ভূমিহীন নারী একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন। তাছাড়া এখন ওই নারীকে ভয়-ভীতি দেখানো হচ্ছে বলে মৌখিকভাবে বিষয়টি তিনি শুনেছেন। বিষয়গুলো তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

সূত্র : ঢাকাটাইমস
এন এইচ, ০৭ ফেব্রুয়ারি

Back to top button